সব বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রসংসদ নির্বাচন দ্রুত সময়ে হবে

সাভার করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

জাতীয় স্মৃতিসৌধে শ্রদ্ধাঞ্জলি দিচ্ছেন ডাকসুর ভিপি নুরুল হক নুরু। ছবি:বাংলানিউজ

walton

জাতীয় স্মৃতিসৌধ (সাভার) থেকে: ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্র সংসদের (ডাকসু) ভিপি (ভাইস প্রেসিডেন্ট) কোটা সংস্কার আন্দোলনের নেতা নুরুল হক নুরু বলেছেন, গত বছর ছাত্রদের দাবি দাওয়া নিয়ে আন্দোলন করে আমরা যে জনপ্রিয়তা এবং যে গ্রহণযোগ্যতা পেয়েছি। এ থেকে আমরা আশাবাদী সব বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রসংসদ নির্বাচন অতি শিগগিরই হবে।

php glass

মঙ্গলবার (২৬ মার্চ) সকাল সাড়ে ১০টায় মহান স্বাধীনতা দিবসে জাতীয় স্মৃতিসৌধে শহীদের শ্রদ্ধা জানাতে এসে তিনি এসব কথা বলেন।

নুরু বলেন, সব বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র সংসদ নির্বাচনে আমাদের সাধারণ ছাত্র অধিকার সংরক্ষণ পরিষদ থেকে আমরা অংশ নেবো এবং শিক্ষার্থীরাও সেটা চায়। কারণ শিক্ষার্থীরা দেখেছে ৯০ এর পরর্বর্তীকালে বিশ্ববিদ্যালয়ে ছাত্র রাজনীতির নামে পেশিশক্তি নির্ভর যে অপরাজনীতি হয়েছে সেটা শিক্ষার পরিবেশকে ব্যাহত করেছে। আর এই সব অপরাজনীতির আধিপত্যকে কেন্দ্র করে যে অপকর্ম হয়েছে। সেই জায়গা থেকে আমরা সাধারণ ছাত্র অধিকার সংরক্ষণ পরিষদ ছাত্রদের দাবি নিয়েই কাজ করতে চাই। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা আমাদের যেভাবে সর্মথন দিয়েছেন আশাকরি অনান্য বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা আমাদের এভাবেই সর্মথন দেবেন।

তিনি বলেন, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র সংসদ নির্বাচনে অনিয়ম হয়েছে তার প্রতিবাদ চলছে। সেজন্য আমি ভিপি নির্বাচিত হয়েও আবার নির্বাচন চেয়েছি। আর ডাকসু নির্বাচনে যে অনিয়ম হয়েছে তা অন্যান্য বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক ও ছাত্ররাও প্রত্যক্ষ করেছে। তাই আমার মনে হয় অন্যান্য বিশ্ববিদ্যালয়গুলোতে এমন নির্বাচন হবে না। আর যদি হয় তাহলে আপনারা দেখেছেন ছাত্ররা কখন প্রতিবাদ করেছে আবার কখন করেনি। কিন্তু যখন অন্যায়ের মাত্রা চরম আকার ধারণ করে তখন ছাত্ররা কিন্তু থেমে থাকে না।  

তিনি আরও বলেন, ৯০ এর পর থেকে ছাত্র রাজনীতিতে যারা ছাত্রদের নেতৃত্ব দিয়েছেন তারা দেশের কথা না ভেবে ছাত্রদের কথা না ভেবে দলীয় রাজনীতি নিয়ে বেশি ব্যস্ত ছিলেন। যে কারণে ছাত্ররা দেশের উন্নতির কাজে একটু কম এসেছে। সেই জায়গা থেকে আমি মনে করি এখন এই অপরাজনীতির কিছুটা পরির্বতন এসেছে। আমি আশাকরি ছাত্র রাজনীতির সেই ঐতিহ্য আমরা আবার ফিরিয়ে আনতে পারবো।

বাংলাদেশ সময়: ১১৫৩ ঘণ্টা, মার্চ ২৬, ২০১৯
আরএ

বাগেরহাটবাসীকে শিক্ষিত, মার্জিত, মেধাবী ও দক্ষ হতে হবে
তাপদাহে ওষ্ঠাগত রাজশাহীর জনজীবন
চবির সাবেক শিক্ষার্থীদের পুনর্মিলনী ১৮ নভেম্বর
শাহবাগে চাকরির বয়স ৩৫ করার দাবিতে সমাবেশ, আটক ৭
আদিতমারীতে গৃহবধূর ঝুলন্ত মরদেহ উদ্ধার 


টাঙ্গাইলে ভুয়া চিকিৎসকের কারাদণ্ড
অনশনরত রোহিঙ্গাদের নির্যাতন করছে সৌদি আরব!
উন্নয়‌নের অগ্রযাত্রা ধরে রাখ‌তে শেখ হা‌সিনার বিকল্প নেই
গাজীপুরে অটো‌রিকশা-কভার্ডভ্যানের সংঘর্ষে নিহত ১, আহত ৫
বিদেশে নেওয়ার আশ্বাসে ৮ কোটি টাকা হাতিয়ে নিলেন তারা