php glass

স্তন ক্যান্সার মোকাবিলায় সচেতনতা জরুরি

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

‘বিশ্ব স্তন ক্যান্সার’ দিবসের র‌্যালি-সেমিনার

walton

ঢাকা: বিশ্বে প্রতি ১৩ মিনিটে একজন নারী স্তন ক্যান্সারে আক্রান্ত হয়ে মৃত্যুবরণ করেন। দেশের মেয়েরা সবচেয়ে বেশি স্তন ক্যান্সারের ঝুঁকিতে রয়েছেন। এ ক্ষেত্রে এখনও নারীর মধ্যে লজ্জা, প্রতিবন্ধকতা রয়েছে। সব বাধা উপেক্ষা করে এ রোগ বিষয়ে জানতে হবে, অন্যকে জানাতে হবে। নিজে সচেতন হওয়ার সঙ্গে অন্যদেরও করা গেলে মৃত্যুঝুঁকি এড়ানো সম্ভব।

বৃহস্পতিবার (১০ অক্টোবর) রাতে রাজধানীর অফিসার্স ক্লাবে দি ব্লু  স্কাই চ্যারিটেবল ফাউন্ডেশন আয়োজিত ‘বিশ্ব স্তন ক্যান্সার’ দিবসের এক সেমিনারে এসব মন্তব্য করেন দেশের বিশিষ্ট জনেরা।

সেমিনারে জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের (এনবিআর) চেয়ারম্যান মোশাররফ হোসেন ভূইয়া বলেন, আমাদের তৃণমূল পর্যায়ের মেয়েরা এবিষয়ে সচেতন না হওয়ায় অনেক প্রাণ অকালে ঝরে যাচ্ছে। আমরা যারা চাকরি করি কিংবা সমাজের বিত্তবান, সবাইকে এ বিষয়ে এগিয়ে আসতে হবে। পৃষ্ঠপোষকতার পাশাপাশি সব পর্যায়ে নিজ নিজ অবস্থান থেকে সবাইকে সচেতন করতে হবে।

দি ব্লু  স্কাই চ্যারিটেবল ফাউন্ডেশনের প্রধান অ্যাডভাইজার আয়েশা সিদ্দিকা শেলী বলেন, আমাদের দেশে এখনও নারীর মধ্যে লজ্জা, প্রতিবন্ধকতা আছে। মনে রাখতে হবে অন্য রোগের মতোই স্তন ক্যান্সার একটি রোগ। তাই সব বাধা উপেক্ষা করে এ রোগ বিষয়ে জানতে হবে অন্যকে জানাতে হবে, চিকিৎসা নিতে হবে।

তিনি বলেন, আমাদের দেশে প্রতি বছর ৪০ হাজার নারী স্তন ক্যান্সারে আক্রান্ত হচ্ছেন। ক্যান্সার মানেই মৃত্যু নয়। ভালো চিকিৎসা পেলে অবশ্যই রোগী ভালো হয়। কিন্তু আমাদের দেশের হাসপাতালগুলোতে এ রোগের চিকিৎসা নেই। প্রতিটি মেডিকেল কলেজে স্তন ক্যান্সারের জন্য আলাদা ইউনিট এবং হাসপাতালগুলোতে অন্তত দু’টি বেড রাখার দাবি জানাচ্ছি ফাউন্ডেশনের পক্ষ থেকে।

সেমিনারে প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন ডা. সামিয়া সাজমিন সিদ্দিকা। প্রবন্ধে তিনি বলেন, প্রায় প্রতিটি নারী ক্যান্সার ঝুঁকিতে রয়েছে। বিশ্বে প্রতি ১০ মিনিটে একজন নারী স্তন ক্যান্সারে আক্রান্ত হচ্ছেন, প্রতি ১৩ মিনিটে একজন নারীর মৃত্যু হচ্ছে। বিশ্বে ক্যান্সারে মৃত্যুর দ্বিতীয় কারণ স্তন ক্যান্সার। আমাদের দেশের মেয়েরা সবচেয়ে বেশি আক্রান্ত স্তন ক্যান্সারে। কিন্তু দেশের মেয়েরা এ বিষয়ে অসচেতন রয়েছেন। আমাদের উচিৎ হবে এ বিষয়ে সবাইকে সচেতন করা।

সেমিনারের স্পন্সর ছিলো অফিসার্স ক্লাব, জাহেদি ফাউন্ডেশন এবং ইউরো বাংলা সিটি।

সেমিনারে আরও বক্তব্য রাখেন ক্যান্সার বিশেষজ্ঞ ডা. মোহাম্মদ কামরুজ্জামান রুমান, অফিসার্স ঢাকা ক্লাবের সাধারণ সম্পাদক ইব্রাহিম হোসেন খান, ট্রেজারার মেসবাহ উদ্দিন, কর কমিশনার কালিপদ হালদার প্রমুখ।

বাংলাদেশ সময়: ২১১২ ঘণ্টা, অক্টোবর ১০, ২০১৯
ইএআর/এসএইচ

সামাজিক বিরোধ মীমাংসার কেন্দ্রবিন্দু হবে গ্রাম আদালত
ট্যাক্সের রেট কমানো হবে: অর্থমন্ত্রী 
মাটিতেই পারি না মেট্রোরেল চালাবো কী করে, প্রশ্ন রওশনের
মেঘনায় দস্যুদের ধাওয়া খেয়ে এক শ্রমিকের মৃত্যু
মাদকসহ নারী আটক


গলাচিপায় ৪০ মণ ঝাটকা জব্দ, ব্যবসায়ীর কারাদণ্ড
পোর্ট সিটিতে ন্যাশনাল ডিবেট ফেস্ট শুরু শুক্রবার
পুরুষাঙ্গ কর্তন: স্ত্রীসহ ৩ জনের যাবজ্জীবন
৬ ঘণ্টা পর ঢাকা-উত্তারাঞ্চলের রেল যোগাযোগ স্বাভাবিক
জোছনা রাত | শফিকুল ইসলাম খোকন