স্বাস্থ্যখাতে গড় ব্যয় জিডিপির ৩.১ শতাংশ

364 | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

ছবি: বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

walton
১৬ বছরে বাংলাদেশের স্বাস্থ্যখাতে গড়ে ব্যয় হয়েছে মোট অভ্যন্তরীণ দেশজ উ‍ৎপাদনের (জিডিপি) তিন দশমিক এক শতাংশ। ১৯৯৭ সাল থেকে ২০১২ সাল পর্যন্ত স্বাস্থ্যখাতে ব্যয়ের সরকারি প্রতিবেদনে এ তথ্য জানানো হয়।

ঢাকা: ১৬ বছরে বাংলাদেশের স্বাস্থ্যখাতে গড়ে ব্যয় হয়েছে মোট অভ্যন্তরীণ দেশজ উ‍ৎপাদনের (জিডিপি) তিন দশমিক এক শতাংশ।

১৯৯৭ সাল থেকে ২০১২ সাল পর্যন্ত স্বাস্থ্যখাতে ব্যয়ের সরকারি প্রতিবেদনে এ তথ্য জানানো হয়।

বুধবার দুপুরে (১৪ জানুয়ারি) রাজধানীর হোটেল রেডিসনের উৎসব কক্ষে আয়োজিত বাংলাদেশ ন্যাশনাল হেলথ অ্যাকাউন্টস (বিএনএইচএ) ১৯৯৭-২০১২’ শিরোনামে এক অনুষ্ঠানে স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয় এ প্রতিবেদন প্রকাশ করে।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ প্রতিমন্ত্রী জাহিদ মালেক।

স্বাস্থ্য সচিব সৈয়দ মনজুরুল ইসলামের সভাপতিত্বে প্রতিবেদন উপস্থাপন করেন স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের অধীন স্বাস্থ্য অর্থনীতি বিভাগের পরিচালক মো. আসাদুল ইসলাম।
   
ওই প্রতিবেদনে বলা হয়, ১৯৯৭ সালে স্বাস্থ্যখাতে ব্যয় হয়েছিল জিডিপির দুই দশমিক ছয় শতাংশ। ১৫ বছরের ব্যবধানে ২০১২ সালে তা বেড়ে  দাঁড়িয়েছে তিন দশমিক পাঁচ শতাংশে। এ খাতে প্রতিবছর খরচের প্রবৃদ্ধি হয়েছে প্রায় আট শতাংশ। তবে সর্বাধিক ব্যয় হয়েছে ২০১১ সালে। ওই বছর এ খাতে ব্যয় হয় জিডিপির তিন দশমিক ছয় শতাংশ।

সর্বশেষ ২০১২ সালের হিসাব অনুযায়ী, স্বাস্থ্যখাতে বাংলাদেশের মানুষের মাথাপিছু ব্যয় দুই হাজার একশ’ ৬৭ টাকা (২৭ মার্কিন ডলার)। যেখানে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার সুপারিশ ছিল চার হাজার একশ’ ৫৮ টাকা প্রায় (৫৪ মার্কিন ডলার)। ২০১২ এ খাতে ব্যয় হয় মোট তিন লাখ ২৫ হাজার ৯৪ মিলিয়ন টাকা। যা ছিল জিডিপির তিন দশমিক ৫৪ শতাংশ।

প্রতিবেদনে আরও বলা হয়, ২০১২ সালে স্বাস্থ্য খাতের মোট ব্যয়ের ৪১ শতাংশই ব্যয় হয়েছে ঢাকা বিভাগে। আর সর্বনিম্ন চার শতাংশ ব্যয় হয়েছে সিলেট বিভাগে।

তবে সরকারি হিসাব অনুযায়ী, অধিকাংশ বিশেষায়িত হাসপাতাল ঢাকা বিভাগে হওয়ায় এ অঞ্চলে খরচ বেশি হয়েছে।

মাথাপিছু খরচের হিসেবে ঢাকা বিভাগে খরচ হয় দুই হাজার সাতশ’ ২২ টাকা এবং সিলেট বিভাগে এক হাজার তিনশ’ ৭৯ টাকা।

ঢাকার পরেই রয়েছে খুলনা ও চট্টগ্রাম বিভাগ। খুলনা বিভাগে মাথাপিছু ব্যয় হয় দুই হাজার তিনশ’ ৭১ টাকা এবং চট্টগ্রাম বিভাগে খরচ হয় এক হাজার নয়শ’ ৩০ টাকা।

তবে স্বাস্থ্যখাতে ব্যয়ের পরিমাণে সন্তুষ্ট নয় বলে জানিয়েছেন স্বাস্থ্য প্রতিমন্ত্রী জাহিদ মালেক। তিনি বলেন, বাংলাদেশের বর্তমান মাথাপিছু ব্যয় ২৭ মার্কিন ডলার। তবে আমাদের লক্ষ্যমাত্রা এ ব্যয়কে অন্তত ৫০ ডলারে উন্নীত করা।

প্রতিমন্ত্রী জানান, স্বাস্থ্যখাতে মাথাপিছু যে ২৭ ডলার বর্তমানে ব্যয় হয় এর মধ্যে সরকারের অবদান মাত্র নয় ডলার। বাকিটা বিভিন্ন বেসরকারি সংস্থা (এনজিও) ও দাতা সংস্থা থেকে আসে।

স্বাস্থ্যখাতে ব্যয় সন্তোষজনক না হলেও গত এক দশকে এ খাতের অর্জন অনেক উল্লেখ করে তিনি বলেন, আমাদের শিশু ও মাতৃমৃত্যুর হার কমেছে। পাশাপাশি স্বাস্থ্য সেবা উন্নত হয়েছে। বাংলাদেশকে পোলিওমুক্ত ঘোষণা অন্যতম বড় অর্জন হিসেবে অভিহিত করেন তিনি।

বাংলাদেশ সময়: ১৮০৫ ঘণ্টা, জানুয়ারি ১৪, ২০১৫

Nagad
করোনা: ঢাকাসহ চার জেলায় পশুর হাট না বসানোর প্রস্তাব
নোবেলজয়ী কবি পাবলো নেরুদার জন্ম
ঢাকার পথে সাহারা খাতুনের মরদেহ
ভিয়েতনামে মানবপাচারের ঘটনায় আটক তিনজন রিমান্ডে
পল্লবীতে ভুয়া চাকরিদাতা প্রতিষ্ঠানে অভিযান, আটক ৩


রাজশাহীতে বাসচাপায় অটোরিকশার চালকসহ নিহত ২
‘আদিম’ মুক্তির আগেই নির্মিত হচ্ছে সিক্যুয়েল
লকডাউনে ভিডিওচিত্র বানিয়ে খুদে শিক্ষার্থী প্রিয়তির রোবট জয়
সিলেটে করোনার নমুনা জট নেই
খুলনার সাবেক এমপি নুরুল হকের অবস্থা সংকটাপন্ন