ফেব্রুয়ারি মাস ঘিরে ব্যস্ত ফুল বিক্রেতা-চাষিরা

নিউজ ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

ফুল নিয়ে চাষি-বিক্রেতাদের ব্যস্ততা। ছবি: বাংলানিউজ

walton

ঢাকা: প্রতিবছরের মতো ফেব্রুয়ারি মাস ঘিরে ফুল বেচাকেনা করে থাকেন সারাদেশের ফুল ব্যবসায়ী-চাষিরা। এবার চলতি মাসে বসন্তের প্রথম দিন আর ভালোবাসা দিবস হওয়ায় ফুলের কেনাবেচা বেড়ে গেছে কয়েক গুণ। একইসঙ্গে পাল্লাপাল্লি দিয়ে রাজধানীর ফুলের বাজারগুলো যেন জেঁকে বসেছে ফুল আমদানিতে।

বিভিন্ন এলাকার সড়কের মোড়ের ফুলের দোকানগুলোতে বেড়ে বাহারি ফুলের চাহিদা থাকে, আর সে চাহিদা কথা মাথায় রেখেই পরিচর্যার পাশাপাশি পুরোদমে ব্যস্ত সময় পার করছেন ফুল বিক্রেতা ও চাষিরা।

এই মাসে গোলাপ, গ্ল্যাডিওলাস, গাঁদাসহ বিভিন্ন ফুলের অনেক চাহিদা বেড়ে যায়। গত বছরের তুলনায় বিভিন্ন ফসলের পাশাপাশি ফুলচাষ ভালোই হয়েছে বলে দাবি করছেন চাষি-বিক্রেতারা। এবার কৃষি কর্মকর্তারাও চাষিদের পর্যাপ্ত সহযোগিতা করেছেন।.ক্ষেতজুড়ে প্রজাপতির মতো পাখনা মেলে আছে হলুদ ক্যালেন্ডোলা ফুল।.. বাগানে কাজ করছেন একজন ফুল চাষি।..নিজের ফুলের বাগানে কাজ করছেন একজন গৃহিনী।.বিক্রির জন্য ক্ষেতে ফুল ছিঁড়ছেন একজন চাষি।.পাইকারি ব্যবসায়ীরা ফুল কিনে কার্টনে সাজাচ্ছেন।.হাটের উদ্দেশে ফুলের বোঝা নিয়ে যাচ্ছেন এক বিক্রেতা।.হাটে নেওয়ার জন্য আঁটি বেঁধে রাখা হয়েছে সাদাসহ বাহারি রং-বেরংয়ের গ্লাডিওলাস।.ক্রেতার জন্য অপেক্ষা করছেন ফুলবিক্রেতারা।.হাটে ক্রেতা-বিক্রেতাদের ফুল কেনায় ব্যস্ততা।

বাংলাদেশ সময়: ১০২২ ঘণ্টা, ফেব্রুয়ারি ১৩, ২০২০
এএটি

ক্লিক করুন, আরো পড়ুন: ফিচার
বিনামূল্যে পিপিই সরবরাহ করার ঘোষণা ফর্টিস গ্রুপের
কোভিড-১৯ ঠেকাতে কমলনগরের হাট-বাজারে ‘সামাজিক দূরত্ব চিহ্ন’
বই-টেলিভিশন আর পরিবার নিয়ে কাটছে সময়
বন্ধ কারখানা শ্রমিকদের বাসায় থাকতে হবে, পাবেন বেতন
করোনা: বরিশালের সব চায়ের দোকান বন্ধ


করোনা: ৫০ লাখ ইউরো দান করলেন ডর্টমুন্ড অধিনায়ক রয়েস
করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে করণীয় 
মিরপুর স্টেডিয়াম চিকিৎসার জন্য দিতে প্রস্তুত বিসিবি
বগুড়ায় করোনা উপসর্গ নিয়ে মৃত্যু, ১৫ বাড়ি লকডাউন
ভারতীয় নাগরিকদের আতঙ্কিত না হওয়ার অনুরোধ রীভা গাঙ্গুলির