সাতক্ষীরায় আ’লীগ ৫, বিদ্রোহী ২

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

সাতক্ষীরায় নির্বাচিত হলেন যারা

walton

সাতক্ষীরা: পঞ্চম উপজেলা পরিষদ নির্বাচনের তৃতীয় ধাপে সাতক্ষীরার সাত উপজেলায় আওয়ামী লীগের পাঁচজন ও স্বতন্ত্র দু’জন প্রার্থী চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন। 

php glass

রোববার (২৪ মার্চ) রাত ১২টায় নির্বাচনের রিটার্নিং অফিসার এমএম মাহমুদুর রহমান এ ফলাফল ঘোষণা করেন। 

ঘোষিত ফলাফল অনুযায়ী সাতক্ষীরা সদর উপজেলায় নৌকা প্রতীকের প্রার্থী আসাদুজ্জামান বাবু ৬২ হাজার ৭৭৩ ভোট পেয়ে বিজয়ী হয়েছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী আনারস প্রতীকের এসএম শওকত হোসেন পেয়েছেন ৩৪ হাজার ৩৫৮ ভোট। এছাড়া অপর প্রার্থী মোটরসাইকেল প্রতীকের গোলাম মোরশেদ পেয়েছেন ২৭ হাজার ৫১৭ ভোট পেয়েছেন।  

কলারোয়া উপজেলায় আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী প্রার্থী আমিনুল ইসলাম লাল্টু আনারস প্রতীক নিয়ে ৭১ হাজার ৭৯১ ভোট পেয়ে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন। তার প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী নৌকা প্রতীকের ফিরোজ আহমেদ স্বপন পেয়েছেন ৩৭ হাজার ২১১ ভোট।  

শ্যামনগর উপজেলায় নৌকা প্রতীকের প্রার্থী ও উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এসএম আতাউল হক দোলন ৭২ হাজার ৫২৪ ভোট পেয়ে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী দোয়াত-কলমের প্রার্থী জিএম ওসমান গনি পেয়েছেন ১০ হাজার ৯৬৮ ভোট। এছাড়া লাঙল প্রতীকের প্রার্থী ডিএম আজিবার রহমান পেয়েছেন ৯৬৪ ভোট। 

কালিগঞ্জ উপজেলায় আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী প্রার্থী সাঈদ মেহেদী ৫৬ হাজার ৮৩৮ ভোট পেয়ে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী শেখ মেহেদী হাসান সুমন আনারস প্রতীকে পেয়েছেন ৩৪ হাজার ৭৬৬ ভোট। এছাড়া নৌকা প্রতীকের প্রার্থী আতাউর রহমান পেয়েছেন ৯ হাজার ৪৯৬ ভোট। 

দেবহাটায় উপজেলায় আওয়ামী লীগের শিল্প ও বাণিজ্য বিষয়ক সম্পাদক আব্দুল গণি নৌকা প্রতীকে ২৪ হাজার ৭৬৫ ভোট পেয়ে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন। তার প্রতিদ্বন্দ্বী স্বেচ্ছাসেবক লীগের যুগ্ম আহ্বায়ক মাহাবুব আলম খোকন (ঘোড়া) ৩ হাজার ৫৫৫ ভোট, স. ম গোলাম মোস্তফা (আনারস) ১৬ হাজার ২৯৫ ভোট, ন্যাশনাল পিপলস পার্টি ওজিহার রহমান (আম) এক হাজার ৮১ ভোট ও সাবেক উপজেলা চেয়াম্যানের পছেলে সাঈদ মাহফুজুর রহমান (মোটরসাইকেল) ২ হাজার ৩৮৬ ভোট পেয়েছেন।  

আশাশুনি উপজেলায় নৌকা প্রতীকের এবিএম মোস্তাকিম ৭৫ হাজার ৩৪১ ভোট পেয়ে বিজয়ী হয়েছেন। তার প্রতিদ্বন্দ্বী আনারস প্রতীকের শহীদুল ইসলাম পিন্টু পেয়েছেন ৪০ হাজার ৭০৩ ভোট। 

তালা উপজেলায় প্রতীকের প্রার্থী ঘোষ সনৎ কুমার ৫১ হাজার ২৭৬ ভোট পেয়ে বিজয়ী হয়েছেন। তার প্রতিদ্বন্দ্বী এম এম ফজলুল হক আনারস প্রতীকে পেয়েছেন ৪৮ হাজার ৭১৮ ভোট।

বাংলাদেশ সময়: ০৩৩৬ ঘণ্টা, মার্চ ২৫, ২০১৯
এসএইচ

ক্লিক করুন, আরো পড়ুন: উপজেলা পরিষদ নির্বাচন
ঝিনাইদহে সড়ক দুর্ঘটনায় নারীর মৃত্যু
জায়ানের মরদেহ আসবে মঙ্গলবার
অজ্ঞাত নারীর মরদেহ উদ্ধার
স্বামী-স্ত্রীর ঝগড়া থামাতে গিয়ে সংঘর্ষ, আহত ১১
রোহিঙ্গা সংকট: সম্মিলিত সব ধরনের উদ্যোগ চায় ব্রুনেই


মহাদেবপুরে পাহারাদারের মরদেহ উদ্ধার
আফগানদের বিশ্বকাপ দলে আসগর-হামিদ
নালিতাবাড়ীতে নারীর ঝুলন্ত মরদেহ উদ্ধার
ভিটে ছাড়লেন বৃদ্ধ নিরঞ্জন, নেপথ্যে সাত ভূমিদস্যু
নারীর প্রতি সহিংসতার প্রতিবাদে বরিশালে মানববন্ধন