প্রবাসীদের ভোট দেওয়ার ব্যবস্থা করা ‘দুরূহ’

ইকরাম-উদ দৌলা, সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

নির্বাচন কমিশন ভবন

walton

ঢাকা: বিভিন্ন অংশীজনের সঙ্গে নির্বাচন কমিশনের (ইসি) চলমান সংলাপে প্রবাসীদের ভোটার করা ও দূতাবাসের মাধ্যমে সংশ্লিষ্ট দেশে ভোট দেওয়ার ব্যবস্থার সুপারিশ এসেছে। তবে সংস্থাটি মনে করছে প্রবাসে ভোট দেওয়ার ব্যবস্থা করা খুব দুরূহ ব্যাপার।

php glass

ইসি কর্মকর্তারা বলছেন, প্রবাসে ভোট দেওয়ার ব্যবস্থা করার ক্ষেত্রে বেশকিছু বিষয়ে সমাধান খুঁজে বের করতে হবে। আর সে বিষয়গুলোর সামাধান বের করা আদৌ সম্ভব কিনা সে প্রশ্নও রয়েছে।
 
ব্যবস্থাটি চালু করতে প্রথমেই সব প্রবাসীর ভোটের ব্যবস্থা করা যাবে না। আবার কোথাও হবে, কোথাও হবে না এমন করলে মামলাজনিত আইনি জটিলতার সৃষ্টি হবে। আবার যদি সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়, যেসব দেশের প্রবাসী বেশি রয়েছে প্রথমে সেখানেই ব্যবস্থা চালু করা হবে, তাতে ব্যাপক প্রতিবন্ধকতা রয়েছে।
 
কর্মকর্তাদের ভাষ্যমতে, যদি আরব দেশগুলো বা মালয়েশিয়ার মতো বেশি প্রবাসী রয়েছে এমন দেশে ব্যবস্থাটি চালু করতে হয়, তবে প্রথমে সেখানে অবস্থানরত বাংলাদেশিদের ভোটার করতে হবে। এবার তাদের ভোটার করার প্রক্রিয়ায় দূতাবাসেই আসতে বলতে হবে। এজন্য ইসির কর্মকর্তাদের সেখানে যেতে হবে। আবার তাদের তথ্য, আঙুলের ছাপ বাংলাদেশে এনে মিলিয়ে দেখতে হবে যে, তারা আগে কোথাও ভোটার হয়েছেন কিনা। এ বিষয়টি নিশ্চিত করে তাদের তালিকা তৈরি করা যাবে।

সবচেয়ে বড় সমস্যা হবে ভোটগ্রহণের সময়। কেননা, জাতীয় সংসদ নির্বাচনে ৩শ আসনে ভোটগ্রহণ করতে হয়। এক্ষেত্রে প্রতিটি দূতাবাসে ৩শটি ব্যালট বাক্স পাঠাতে হবে। আবার প্রতিটি দূতাবাসের জন্যই ৩শ আসনের আলাদা আলাদা ব্যালট পেপার পাঠাতে হবে। এরপর নির্বাচনের প্রার্থীর এজেন্ট কে হবেন, কিভাবে হবেন, ফলাফল কিভাবে হবে, এসব নিয়েও রাজনৈতিক দলগুলোই সন্দেহের তীর ছুড়ে দেবে। তাই পুরো বিষয়টিই চ্যালেঞ্জের।

আবার অনেক দেশ আছে, যেখানে প্রবাসীরা কাজ করেন যে সিটিতে সেই সিটির বাইরে তারা যেতে পারেন না। এজন্য অনুমতি নিতে হয়। এক্ষেত্রে অনুমতি নিয়ে তারা কতটা সাড়া দেবেন এটাও একটা বিষয়। এসব কারণে দূতাবাসের মাধ্যমে প্রবাসীদের ভোট দেওয়ার ব্যবস্থা করা অসম্ভব বলেই মনে করছেন ইসির জ্যেষ্ঠ কর্মকর্তারা।
 
গত ৩১ জুলাই সুশীল সমাজের প্রতিনিধিদের সঙ্গে এবং ১৬ ও ১৭ আগস্ট গণমাধ্যমের প্রতিনিধিদের সঙ্গে সংলাপে বসে ইসি। এরপর গত ২৪ আগস্ট থেকে রাজনৈতিক দলগুলোর সঙ্গে সংলাপ শুরু করেছে সংস্থাটি। ইতোমধ্যে যারা সংলাপে অংশ নিয়েছেন, তাদের বেশিরভাগই প্রবাসীদের ভোটদানের ব্যবস্থা করার সুপারিশ করেছে।
 
এ বিষয়ে ইসির অতিরিক্ত সচিব মোখলেছুর রহমান বাংলানিউজকে বলেন, তারা হয়তো চিন্তা ভাবনা না করেই এমন সুপারিশ বা দাবি করছেন। কিন্তু আমরা খোঁজ নিয়ে দেখেছি, এটি সম্পন্ন করা অত্যন্ত দুরূহ ব্যাপার। ভারতও চেষ্টা করে এটি পারেনি। তাই এটা প্রায় অসম্ভব। তবে প্রবাসীদের দূতাবাসের মাধ্যমে জাতীয় পরিচয়পত্র দেওয়ার উদ্যোগ ভবিষ্যতে নেওয়া যেতে পারে। এক্ষেত্রে পাসপোর্ট অধিদফতর কিভাবে কাজ করছে সেটা দেখা প্রয়োজন।
 
পৃথিবীর বিভিন্ন দেশে ১ কোটির বেশি প্রবাসী বাংলাদেশি রয়েছেন বলে জানা যায়।
 
বাংলাদেশ সময়: ০৬২৬ ঘণ্টা, সেপ্টেম্বর ২৬, ২০১৭
ইইউডি/এএ

শেখ হাসিনা দেশে না এলে আ’লীগের দশা বিএনপির মতো হতো
ইউজিসি চেয়ারম্যান হলেন ড. কাজী শহীদুল্লাহ
রূপপুর প্রকল্পের নির্বাহী প্রকৌশলী মাসুদুল প্রত্যাহার 
অপরাধ দমনে রমজানের ভূমিকা
ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় ট্রাকচাপায় মোটরসাইকেল আরোহী নিহত


ইন্দোনেশিয়ায় ভোটের ফল ঘোষণার পর সংঘর্ষে নিহত ৬
বিশ্বকাপের আগেই অলরাউন্ডার র‌্যাংকিংয়ের শীর্ষে সাকিব
জয়পুরহাটে সরকারিভাবে বোর ধান সংগ্রহ শুরু
হাত হারানো রাজীবের মামলার প্রতিবেদন ফের পেছালো
ভুল ইনজেকশন পুশ: এখনো জ্ঞান ফেরেনি সেই শিক্ষার্থীর