এনসিটি নিয়ে সময়োপযোগী সঠিক সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে

370 | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

ছবি: বাংলানিউজটোয়েন্টফোর.কম

walton
নৌ পরিবহন মন্ত্রী শাজাহান খান বলেছেন, এনসিটি পরিচালনা নিয়ে যে জটিলতার সৃষ্টি হয়েছে তা শিগগির সমাধান করা হবে। নৌ পরিবহন মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির পর্যবেক্ষণ ও অর্থমন্ত্রীর ব্যাখ্যা এবং বন্দর কর্তৃপক্ষের অধ্যাদেশ ইত্যাদি বিবেচনা করে সময়োপযোগী সঠিক সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে।

চট্টগ্রাম: নৌ পরিবহন মন্ত্রী শাজাহান খান বলেছেন, এনসিটি পরিচালনা নিয়ে যে জটিলতার সৃষ্টি হয়েছে তা শিগগির সমাধান করা হবে। নৌ পরিবহন মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির পর্যবেক্ষণ ও অর্থমন্ত্রীর ব্যাখ্যা এবং বন্দর কর্তৃপক্ষের অধ্যাদেশ ইত্যাদি বিবেচনা করে সময়োপযোগী সঠিক সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে।

তিনি বলেন, এনসিটি পরিচালনার জন্য যন্ত্রপাতি ক্রয় প্রক্রিয়া স্থগিত করা হয়েছে। বাতিল করা হয়নি।

শনিবার দুপুরে চট্টগ্রাম বন্দরের শহীদ মোহাম্মদ ফজলুর রহমান মুন্সী মিলনায়তনে বাংলাদেশ শিপিং কর্পোরেশনের(বিএসসি) বার্ষিক সাধারণ সভা শেষে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে এসব কথা বলেন তিনি।
ctg_port_Marine
কর্ণফুলী নদীতে ড্রেজিং প্রসঙ্গে মন্ত্রী বলেন, ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠানের সঙ্গে চুক্তি বাতিলের প্রক্রিয়া শুরু হয়েছে। একনেকসহ কয়েকটি ধাপ পেরিয়ে সিদ্ধান্ত চুড়ান্ত করা হবে। পরবর্তীতে নতুন টেন্ডার দেওয়া হতে পারে অথবা বিকল্প কোন উপায়ে ড্রেজিংয়ের কাজ শেষ করা হতে পারে।

বিএসসি চেয়ারম্যান শাজাহান খানের সভাপতিত্বে বার্ষিক সাধারণ সভায় প্রতিবেদন উপস্থাপন করেন বিএসসি’র ব্যবস্থাপনা পরিচালক কমোডর মকসুমুল কাদের, নৌ পরিবহণ মন্ত্রণালয়ের সচিব সৈয়দ মনজুরুল ইসলাম, যুগ্ম সচিব সোহরাব হোসেন।

সভাপতির বক্তব্যে শাজাহান খান বলেন, বিএসসির ঐতিহ্য ফিরিয়ে আনতে আমাদের সরকারের আমলে সাধ্যমতো চেষ্টা করেছি। শিপলেস কোন শিপিং কর্পোরেশন হতে পারে না। আমরা শিগগির শিপিং কর্পোরেশনের জন্য ৬টি জাহাজ কিনবো।
ctg_port_Marine_2
জয়েন্ট ভেঞ্চারে জাহাজ কেনা নিয়ে শেয়ার হোল্ডারদের আপত্তি প্রসঙ্গে মন্ত্রী বলেন, জয়েন্ট ভেঞ্চারে জাহাজ কেনার প্রক্রিয়ার বিপক্ষে আমিও ছিলাম। আমরা জয়েন্ট ভেঞ্চারে জাহাজ কিনবো না। ‍আপনাদের মনোবল আমাদের সাহস জুগিয়েছে।

নৌ পরিবহন সচিব বলেন, ২০০৮-০৯ সালের আগে বিএসসি একটি লোকসানি প্রতিষ্ঠান ছিল। ক্রমান্বয়ে এটি লাভের মুখ দেখছে। এটি পরিচালনা পর্ষদের কৃতিত্ব। পরিচালনা পর্ষদ বিনিয়োগকারিদের আস্থা ধরে রাখতে পেরেছে বলে বিএসসি ঘুরে দাড়াচ্ছে। বিএসসি পুরনো জাহাজের রক্তক্ষরণ কমিয়েছে। সরকার ১০কোটি টাকা দিয়ে বিএসসি’র ওয়ার্কশপ আধুনিকায়ন করেছে। যাতে নিজেদের জাহাজের পাশাপাশি অন্যদের জাহাজ মেরামত করে আয় বাড়াতে পারে।
বার্ষিক সাধারণ সভায় ২০১২-১৩ অর্থবছরের জন্য  ১০শতাংশ লভ্যাংশ অনুমোদন করা হয়।

প্রসঙ্গত ২০১২-১৩ অর্থবছরে বিএসসি মোট আয় করেছে ৩২৮ কোটি ৫৯ লাখ টাকা। মোট ব্যয় হয়েছে ৩২৬ কোটি ৯৬ লাখ টাকা। নীট মুনাফা করেছে ১কোটি ৬৩ লাখ টাকা।
ctg_port_Marine_3
এদিকে নৌ পরিবহন মন্ত্রী বিকালে চট্টগ্রাম বন্দরের ১২’শ টন ও ৫০ টন স্লিপওয়ের সংস্কার ও পুনর্বাসন এবং মেরিন ওয়ার্কশপের নবায়ন মেরামত্তোর শুভ উদ্বোধন অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে রাখেন।

চট্টগ্রাম বন্দর কর্তৃপক্ষের চেয়ারম্যান রিয়ার অ্যাডমিরাল নিজাম উদ্দিন আহমেদের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বক্তব্যে রাখেন সংসদ সদস্য এম আবদুল লতিফ,নৌ পরিবহণ মন্ত্রণালয়ের সচিব সৈয়দ মনজুরুল ইসলাম, ওয়েস্টার্ন মেরিন সার্ভিসেসের চেয়ারম্যান ক্যাপ্টেন সোহাইল হাসান, পরিচালক মোহাম্মদ আবদুল মুবিন।
মন্ত্রী বলেন, কর্ণফুলী নদী ও চট্টগ্রাম বন্দর বাংলাদেশের রক্তনালী। এজন্য চট্টগ্রাম বন্দরের ব্যাপক উন্নয়ন করা হয়েছে। ১২৪ বছরের মাথায় বন্দরে সিটিএমএস অটোমেশন চালু করা হয়েছে। ১২৫ বছর পর মোবাইল স্ক্যানিং ভেহিক্যাল চালু করেছি। ৩৫ বছর পর মাটির নিচে পড়ে থাকা স্লিপওয়ে সংস্কার করা হয়েছে।

নৌ পরিবহন মন্ত্রী শাজাহান খান বলেন, বন্দরের শ্রমিকদের জন্য চিকিৎসা ও প্রশিক্ষণের ব্যবস্থা করেছি। শ্রমিকদের ভাতা বৃদ্ধি করা হয়েছে। নতুন জেটি নির্মাণ করা হয়েছে এবং হচ্ছে। ফলে চট্টগ্রাম বন্দরের সক্ষমতা বৃদ্ধি পেয়েছে। চট্টগ্রাম বন্দরে দেশের সবোর্চ্চ ৪০তলা বিশিষ্ট টাওয়ার নির্মাণ করা হবে। চট্টগ্রাম বন্দরের অর্থায়নে বিশেষায়িত হাসপাতাল নির্মাণ করা হবে।
ctg_port_Marine_4
মন্ত্রী বলেন, ৬৪ বছর ধরে মংলা বন্দরকে অকেজো করে রাখা হয়েছিল। আমরা দুটি ড্রেজার নির্মাণ করেছি। ড্রেজিংয়ের মাধ্যমে নাব্যতা সৃষ্টি করে বড় বড় জাহাজ চলাচলের ব্যবস্থা করেছি।

শাজাহান খান বলেন, পানগাঁও টার্মিনাল নির্মাণ করা হয়েছে। তিনটি জাহাজ কিনেছি। ব্যক্তিমালিকানাধীন আরো ২টি জাহাজ চলাচলের অনুমোদন দেওয়া হয়েছে। জাহাজে পণ্য আনা নেওয়া হলে ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের উপর চাপ কমবে। যানজটও অনেকাংশে কমে যাবে।

মন্ত্রী বলেন, মুক্তিযুদ্ধ বিরোধী শক্তি কখনো মুক্তিযোদ্ধা হতে পারে না। খালেদা জিয়া জোর করে তাদের মুক্তিযোদ্ধা বানানোর চেষ্টা করছে।


বিএনপি’র সংলাপ প্রস্তাব প্রসঙ্গে মন্ত্রী বলেন, কার সঙ্গে সংলাপ। যারা বাংলাদেশে পাকিস্তানের ভাবধারা নিয়ে চলে তাদের সঙ্গে সংলাপ হতে পারে না। জামায়াতকে ছেড়ে এসরকারকে বৈধতা দিয়ে আসুন। তারপর সংলাপ হবে।

সংসদ সদস্য এম আবদুল লতিফ বলেন, চট্টগ্রাম বন্দরকে একটি আন্তর্জাতিক মানের বন্দর হিসেবে পরিচয় দিতে পারি। ৫বছরের আগের বন্দর আর এখনকার বন্দরের মধ্যে অনেক পার্থক্য রয়েছে। বন্দরের উৎপাদনশীলতা বেড়েছে। এর কৃতিত্ব বন্দরের শ্রমিক এবং পরিচালনা পর্ষদের। বন্দর দেশের অন্যতম রাষ্ট্রীয় গুরুত্বপূর্ণ স্থাপনা(কেপিআই)। দেশের ৯৫ শতাংশ আমদানি রফতানি এ বন্দর দিয়ে হয়। সুতরাং সরকারকে এর উন্নয়নের দিকে লক্ষ্য রাখতে হবে।
ctg_port_Marine_5_
তিনি বলেন, যখন প্রধানমন্ত্রী ডিজিটাল বাংলাদেশের কথা বলেছিলেন তখন অনেকে হাসাহাসি করেছিল। আজকের চিত্র কি? ১২’শ টাকায় মোবাইল সেট কিনে কথা বলছে সাধারণ মানুষ। এটা একমাত্র সম্ভব হয়েছে সাধারণ মানুষের শ্রম ও সফল নেতৃত্বের কারণে।

প্রসঙ্গত ১৯৬৬ সালে নিজেদের জাহাজ মেরামতের জন্য মেরিন ওয়ার্কশপ ও স্লিপওয়ে নির্মাণের উদ্যোগ নেয় চট্টগ্রাম বন্দর কর্তৃপক্ষ। পরবর্তীতে এটি নির্মাণ করা হয়। কিন্তু সচল হওয়ার আগেই ১৯৮৪ সালে কারিগরি ত্রুটিসহ বিভিন্ন কারণে এটি বন্ধ হয়ে যায়। ৩৫ বছর মাটির নিচে পরিত্যক্ত অবস্থায় পড়ে থাকে।

২০১২ সালের ডিসেম্বরে এটি সচল করার জন্য টেন্ডার আহবান করে বন্দর কর্তৃপক্ষ। ২০১৩ সালের ৩১ জানুয়ারি ওয়েস্টার্ন মেরিন সার্ভিসেসের সঙ্গে চুক্তি হয়। কাজ শেষে শনিবার ওয়ার্কশপ ও স্লিপওয়েটি মন্ত্রীর উপস্থিতিতে চট্টগ্রাম বন্দরকে বুঝিয়ে দেওয়া হয়।

বাংলাদেশ সময়: ২০২৫ঘণ্টা, জুন ২১, ২০১৪

নিরানন্দ ঈদের দিনগুলোতে ফাঁকা সাভারের বিনোদন কেন্দ্র
যুক্তরাষ্ট্রে মৃত্যু সংখ্যা লাখ ছুঁই ছুঁই
হেরোইনসহ গ্রেপ্তারের পর ক্রিকেট থেকে নিষিদ্ধ লঙ্কান পেসার
নদীর পাড়ে ঈদ বিনোদন
হবিগঞ্জে দু’পক্ষের সংঘর্ষে নিহত ১, আটক ৪


জেনারেল হাসপাতালে করোনায় আক্রান্ত রোগীর মৃত্যু
শুধু সাধারণ জীবাণু নয়, করোনা রুখতেও মাউথওয়াশ!
আনোয়ারা রাব্বীর মৃত্যুতে পররাষ্ট্রমন্ত্রীর শোক
পালানোর চেষ্টা করোনা রোগীর, ধরে হাসপাতালে পাঠালো পুলিশ
মঠবাড়িয়ায় তরুণীকে অপহরণ ও ধর্ষণ মামলায় যুবক গ্রেফতার