বসন্ত উদযাপনে শনিবার আইজিসিসির আয়োজন ‘মধুর বসন্ত’

নিউজ ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

আইজিসিসির আয়োজন ‘মধুর বসন্ত’

walton

ঢাকা: বসন্ত উদযাপনে ভারতীয় হাইকমিশন ঢাকার ইন্দিরা গান্ধী সাংস্কৃতিক কেন্দ্রের আয়োজনে ছায়ানট সংস্কৃতিক কেন্দ্রে অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে ‘মধুর বসন্ত’।

php glass

অনুষ্ঠানটি (১৬ ফেব্রুয়ারি) ধানমন্ডির ১৫/এ নম্বর সড়কের ৭২ নম্বর ভবনের ছায়ানট সংস্কৃতিক কেন্দ্রে সন্ধ্যা সাড়ে ৬টা থেকে শুরু হবে। অনুষ্ঠানে আবৃত্তি, সংগীত ও নৃত্য থাকবে। 

এতে ভারতীয় শিল্পী শ্রেয়া গুহ ঠাকুরতা সঙ্গীত, বাংলাদেশি অমিত চৌধুরী ও তার দল নৃত্য এবং সাইমুল ইসলাম পলক আবৃত্তি পরিবেশন করবেন।

বিখ্যাত সঙ্গীত পরিবারে জন্মগ্রহণ করেছেন শ্রেয়া গুহ ঠাকুরতা। চার বছর বয়সেই সঙ্গীতে তার হাতেখড়ি হয়। ছয় বছর বয়সেই ‘দীপার প্রেম’ নামে সিনেমায় প্লেব্যাক গায়িকা হিসেবে কাজ করেন তিনি। খুব অল্প বয়সেই প্রয়াত কণিকা বন্দ্যোপাধ্যায় থেকে তালিম পেয়েছিলেন শ্রেয়া। জাতীয় পুরস্কারপ্রাপ্ত সিনেমা ‘অন্তর্ধান’ এ তিনি প্লেব্যাক গায়িকা হিসেবে কাজ করেছেন। ১৯৯৪ সালে তিনি দক্ষিণা সঙ্গীতের উপর ডিপ্লোমা ডিগ্রি অর্জন করেন। রেডিও বিগ এফএম শ্রেয়াকে রবীন্দ্র সঙ্গীত বিভাগের সেরা গায়ক হিসেবে ভূষিত করে। সাম্প্রতিক সময়ে তিনি সিঙ্গাপুর, কানাডা, বাংলাদেশ, ইউ কে, প্যারিস, অস্ট্রেলিয়া, বার্লিন এবং আমেরিকায় অনুষ্ঠান করেছেন। শ্রেয়া ভারত ও বাংলাদেশের বিভিন্ন জনপ্রিয় টিভি চ্যানেলেরও নিয়মিত শিল্পী।

অমিত চৌধুরী একজন প্রতিভাবান তরুণ বাংলাদেশি ভারতনাট্যম শিল্পী। তিনি প্রথমে চট্টগ্রামের গুরু বিশ্বাস, পরে কৃষ্ণ বিশ্বাসের কাছে প্রশিক্ষণ নিয়েছিলেন। পরবর্তীতে শিল্পকলা একাডেমি থেকে কিছু কোর্স সম্পন্ন করে আইসিসিআর বৃত্তি নিয়ে কলকাতার রবীন্দ্রভারতী বিশ্ববিদ্যালয়ে গিয়ে ভারত নাট্যমের উপর এমএ সম্পন্ন। পাশাপাশি সৃজনশীল নৃত্যে বিশেষ প্রশিক্ষণ লাভ করেন তিনি। অমিতের কিছু বিখ্যাত পারফরমেন্সের মধ্যে উদয় শঙ্কর নৃত্য উৎসব, মুম্বাইয়ের ৪৯তম কালকি কালকার উৎসব, ‘হে অনন্ত পূর্ণ’ ও ‘স্টারস অব টুমরো’ অন্তর্ভুক্ত। তিনি বর্তমানে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের থিয়েটার ও পারফরম্যান্স স্টাডিজের শিক্ষক হিসেবেও কাজ করছেন।

অন্যদিকে খুব ছোটবেলা থেকেই বাচিকশিল্পে দক্ষতার পরিচয় দিয়ে আসছেন সাইমুল ইসলাম পলক। তিনি জাতীয় শিক্ষা সপ্তাহ থেকে ‘স্বর্ণপদক’ প্রাপ্ত এবং বাংলাদেশ টেলিভিশনের একজন নিয়মিত শিল্পী। জন্মস্থান ফরিদপুরের শিল্পকলা একাডেমি থেকেই তিনি চার বছরের ডিপ্লোমা কোর্স সম্পন্ন করেন। এরপর ঢাকার জাতীয় শিলাপকলা একাডেমি থেকে তিনি আবৃত্তিতে বিভিন্ন প্রশিক্ষণ নিয়েছেন। তার প্রথম একক অ্যালবাম ছিল ‘ইতি রবীন্দ্রনাথ’। একাত্তর টিভির ‘চেতনার ঝংকার’ এবং ‘চাতের হানসি’ এর মতো অন্য অ্যালবামও তিনিই করেছেন। তার সফল প্রোডাকশনগুলোর মধ্যে- করুণা ধারায় এসো, শ্রাবণ খেয়ালে, প্রাণের খেলা, রইল তাহার বাণী রইলো ভরা সুরে, তোমার অসীমে, রিমেম্বারিং ঠাকুর, মায়ার খেলা এবং সুরের প্রতিধ্বনি অন্তর্ভুক্ত।

অনুষ্ঠানটি সবার জন্যই উন্মুক্ত।

বাংলাদেশ সময়: ১২৫১ ঘণ্টা, ফেব্রুয়ারি ১৪, ২০১৯
এসএ/এএ

উত্তরায় পিস্তল-ইয়াবাসহ আটক ৩
নিজেকে নয়, আসগরকেই অধিনায়ক মানেন গুলবাদিন!
নাগেশ্বরীতে বিরল প্রজাতির প্রাণী বনরুই উদ্ধার
’৯২ বিশ্বকাপে খরা কাটাল পাকিস্তান
বেগমগঞ্জে সম্পত্তি বিরোধে গৃহবধূকে গণধর্ষণ, গ্রেফতার ৩


আন্তর্জাতিক সঙ্গীত সভায় বন্যা
বরিশালে বিদ্যুৎস্পৃষ্ট হয়ে যুবকের মৃত্যু
শেখ হাসিনার নামে চট্টগ্রাম কলেজে ছাত্রীহোস্টেল উদ্বোধন
দেড় লাখ পরিবারের মুখে হাসি ফোটাবে ভিজিএফ’র চাল
হবিগঞ্জে পৃথক বজ্রপাতে ৩ জনের মৃত্যু