দেশের স্বাস্থ্যখাতে সাফল্যের প্রশংসায় ডব্লিউএইচও

408 | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

walton
বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার (ডব্লিউএইচও) মহাপরিচালক ডা. মার্গারেট চ্যান বাংলাদেশের স্বাস্থ্য খাতের সাফল্যের ভূয়সী প্রশংসা করেছেন।

ঢাকা: বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার (ডব্লিউএইচও) মহাপরিচালক ডা. মার্গারেট চ্যান বাংলাদেশের স্বাস্থ্য খাতের সাফল্যের ভূয়সী প্রশংসা করেছেন।

মঙ্গলবার (১০ ফেব্রুয়ারি) সিঙ্গাপুরে ‘ইউনিভার্সাল হেলথ ক‍াভারেজ: দ্যা পোস্ট-২০১৫ চ্যালেঞ্জ’ বিষয়ক মন্ত্রী পর্যায়ের আন্তর্জাতিক সম্মেলনের উদ্বোধনী অধিবেশনে মূল প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন তিনি।

এ সময় স্বাস্থ্যখাতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বাংলাদেশ সরকারের কৃতিত্বের কথা তুলে ধরেন মার্গারেট চ্যান।

স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয়ের তথ্য অফিসার পরীক্ষিৎ চৌধুরীর পাঠানো এক বার্তায় এসব তথ্য জানা যায়।

মার্গারেট চ্যান উদ্বোধনী বক্তব্যে বলেন, অনূর্ধ্ব পাঁচ বছরের শিশুদের স্বাস্থ্য উন্নয়ন, টিকাদান কর্মসূচির সাফল্যসহ বিভিন্ন স্বাস্থ্য সূচকের অগ্রগতির ক্ষেত্রে বাংলাদেশের অর্জন অভাবনীয়। বাংলাদেশে সরকারি এবং বেসরকারি সংস্থাগুলোর সমন্বয়ে একটি বহুমাত্রিক স্বাস্থ্য ব্যবস্থা গড়ে উঠেছে, যেখানে নারীর ভূমিকাও চোখে পড়ার মতো। ফলে পরিবার পরিকল্পনা, টিকাদান, ডায়ারিয়া নিয়ন্ত্রণ, ভিটামিন-এ ক্যাপসুল খাওয়ানো কর্মসূচি ব্যাপক সাফল্য পাচ্ছে।

এ সময় বিশ্বখ্যাত ল্যানসেট সাময়িকীর দৃষ্টান্ত তুলে ধরে মার্গারেট চ্যান বলেন, দারিদ্র সংশ্লিষ্ট সংক্রামক রোগ, পুষ্টিহীনতা এবং প্রসূতিকালীন স্বাস্থ্য সেবায় বাংলাদেশের সফলতা অনেক দেশের জন্য উদাহরণ।

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার মহাপরিচালকের বক্তৃতার পরপরই স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণমন্ত্রী মোহাম্মদ নাসিম মঞ্চে উঠে আনুষ্ঠানিকভাবে কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন এবং স্বাস্থ্যখাতে বাংলাদেশে সহযোগিতা অব্যাহত রাখার জন্য বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার প্রতি অনুরোধ জানান।

সিঙ্গাপুরের প্রধানমন্ত্রী লি সিন লুং সম্মেলনের উদ্বোধন করেন। সম্মেলনে ফিনল্যান্ড, ইন্দোনেশিয়া, ব্রুনাই, থাইল্যান্ড, মায়নমার এবং ভিয়েতনামের স্বাস্থ্যমন্ত্রী এবং অস্ট্রেলিয়া, নিউজিল্যান্ড, ফিলিপাইন, সৌদি আরব এবং দক্ষিণ কোরিয়ার উচ্চ পদস্থ কর্মকর্তারা অংশ নেন।

সম্মেলনে সার্বজনীন স্বাস্থ্যসেবায় অর্থায়ন, ভৌত অবকাঠামো, জনবল, সামাজিক দায়বদ্ধতা এবং অসংক্রামক রোগের ক্ষেত্র ব্যবস্থাপনাসহ বিভিন্ন দিক নিয়ে মন্ত্রী পর্যায়ের গোলটেবিল বৈঠক অনুষ্ঠিত হবে।

স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণমন্ত্রী মোহাম্মদ নাসিম বুধবার (১০ ফেব্রুয়ারি) সম্মেলনে বাংলাদেশের সাফল্য ও অবস্থান সম্পর্কে বক্তৃতা করবেন।

মোহাম্মদ নাসিমের নেতৃত্বে বাংলাদেশের প্রতিনিধিদল মঙ্গলবার সকালে সিঙ্গাপুরের প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে সাক্ষাৎ করেন। এ সময় স্বাস্থ্যমন্ত্রী সিঙ্গাপুরের প্রধানমন্ত্রীকে বাংলাদেশের স্বাস্থ্য ব্যবস্থার উন্নয়নে সহযোগিতা করার জন্য অনুরোধ করেন।

বাংলাদেশ সময়: ২১৪৯ ঘণ্টা, ফেব্রুয়ারি ১০, ২০১৫

কোয়ারেন্টিন না মানায় সিলেটে প্রবাসীকে জরিমানা
শিগগিরই প্রস্তুত হচ্ছে বসুন্ধরার হাসপাতাল 
খোলা চিঠি: করোনা মোকাবিলায় বাংলাদেশের পাশে থাকবে চীন
করপোরেট কর হার ১০ শতাংশ চায় বিসিআই 
গজারিয়ায় শিশুর মৃত্যুতে করোনা আতঙ্ক


অজ্ঞাত রোগে দীঘিনালা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি আরো ৮ শিশু
করোনা: টোকিও অলিম্পিকের নতুন সূচি ঘোষণা
অসহায়-দিনমজুর ২০০ পরিবারে ডবলমুরিং থানার সহায়তা
ঈশ্বরদীতে স্কুল শিক্ষার্থীকে গণধর্ষণ, গ্রেফতার ১
করোনা স্ক্রিনিং কিট বিআইটিআইডিতে দিলেন নওফেল