ঢাকা, রবিবার, ১৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৭, ২৯ নভেম্বর ২০২০, ১২ রবিউস সানি ১৪৪২

ফুটবল

মেসির বিপক্ষে খেলা হচ্ছে না রোনালদোর

স্পোর্টস ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৬৩০ ঘণ্টা, অক্টোবর ২৮, ২০২০
মেসির বিপক্ষে খেলা হচ্ছে না রোনালদোর

একই লিগে খেলাকালীন এক সময় নিয়মিতই মাঠের লড়াইয়ে নামা হতো দু’জনের। তবে ক্রিস্টিয়ানো রোনালদো রিয়াল মাদ্রিদ থেকে জুভেন্টাসে চলে যাওয়ায় মেসির সঙ্গে প্রতিদ্বন্দ্বিতা অনেক কমে এসেছে।

কিন্তু চ্যাম্পিয়নস লিগ ফের সেই সুযোগ করে দিলেও, করোনা ভাইরাসে সংক্রমিত থাকার কারণে আপাতত দু’জনের সাক্ষাৎ হচ্ছে না।

বুধবার রাতে উয়েফা চ্যাম্পিয়নস লিগের ম্যাচে ‘জি’ গ্রুপ থেকে মুখোমুখি হবে বার্সেলোনা ও জুভেন্টাস। এ ম্যাচে স্বাগতিক হিসেবে আলিয়াঞ্জ স্টেডিয়ামে মেসিদের আমন্ত্রণ জানাবে তুরিনের বুড়িরা। তবে করোনা পরীক্ষা করিয়ে পজিটিভ হওয়া সিআর সেভেন এ ম্যাচে মাঠে নামতে পারছেন না।

৩৫ বছর বয়সী রোনালদো জাতীয় দল পর্তুগালের হয়ে খেলতে গিয়েই করোনা পজিটিভ হন। পরবর্তীতে এখন পর্যন্ত জাতীয় দলের একটি ও জুভেন্টাসের হয়ে দুটি ম্যাচে মাঠে নামতে পারেননি।

এর আগে স্প্যানিশ লা লিগায় দুই চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী দলের হয়ে খেলে রোনালদো ও মেসি নিজেদের অন্য উচ্চতায় নিয়ে গেছেন। সেসময় দু’জন মিলে ১১টি ব্যালন ডি’অর ট্রফি জেতেন।

ইউরোপিয়ান ফুটবল সংস্থা উয়েফার নিয়ম অনুযায়ী, চ্যাম্পিয়নস লিগ বা ইউরোপা লিগের ম্যাচে খেলতে হলে একজন খেলোয়াড়কে ম্যাচের ৭ দিন আগে করোনা ‘নেগেটিভ’ প্রমাণিত হতে হয়। সে ক্ষেত্রে রোনালদো যদি বার্সেলোনার বিপক্ষে আজ রাতে অনুষ্ঠিত হতে যাওয়া ম্যাচটা খেলতে চান, তাকে করোনা নেগেটিভ প্রমাণিত হতে হতো ২১ অক্টোবরের মধ্যে।

১৩ অক্টোবর করোনা পজিটিভ হওয়া দ্বিতীয় পরীক্ষাতেও নেগেটিভ হননি। তাও ক্ষীণ একটা আশা ছিল, ম্যাচ শুরুর অন্তত ৪৮ ঘণ্টা আগে হয়তো করোনা পরীক্ষায় উতরে যাবেন রোনালদো, উয়েফার অনুমতি সাপেক্ষে মেসির বিপক্ষে খেলতেও পারবেন। সেটি হয়নি। ফলে মেসি-রোনালদো দ্বৈরথ দেখার অপেক্ষা আরও বাড়ল। গ্রুপ পর্বে দ্বিতীয় লেগে আরও একবার মুখোমুখি হবে দুদল। তাই সমর্থকরা এখন সেই ম্যাচের দিকে তাকিয়ে থাকবেন।

বাংলাদেশ সময়: ১৬২৮ ঘণ্টা, অক্টোবর ২৮, ২০২০
এমএমএস

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa