অভিনয় আর করা হবে না: রুনা লায়লা

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

রুনা লায়লা/ ছবি: রাজীন চৌধুরী-বাংলানিউজ

walton

উপমহাদেশের প্রখ্যাত সংগীতশিল্পী রুনা লায়লা। অর্ধশত বছরেরও বেশি সময় ধরে তিনি বহু হৃদয়গ্রাহী গান উপহার দিয়ে চলেছেন। দেশ-বিদেশে রয়েছে তার অসংখ্য ভক্ত। গান করেছেন প্রায় ১৮টি ভাষায়।



বাংলাদেশের কিংবদন্তি এই সংগীতশিল্পী একটি চলচ্চিত্রেও অভিনয় করেছিলেন। চাষী নজরুল ইসলাম পরিচালিত ‘শিল্পী’ চলচ্চিত্রটি ১৯৯৭ সালে মুক্তি পায়। এরপর আর কোনো চলচ্চিত্রে অভিনয় করতে দেখা যায়নি তাকে।

রুনা লায়লা/ ছবি: রাজীন চৌধুরী-বাংলানিউজবৃহস্পতিবার (১১ এপ্রিল) রুনা লায়লার স্বামী ও অভিনেতা আলমগীরের নতুন ছবি ‘একটি সিনেমার গল্প’র সংবাদ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়। যেখানে হাজির হয়েছিলেন ১০ হাজারেরও বেশি গানে কণ্ঠ দেওয়া এই গুণী সংগীতশিল্পী।

সেখানে রুনা লায়লাকে প্রশ্ন করা হয়, আপনাকে আর অভিনয়ে পাওয়া যাবে? উত্তরে তিনি বাংলানিউজকে বলেন, আর না। অভিনয় আর করা হবে না।

দীর্ঘ সংগীত জীবনে রুনা লায়লাকে কখনও সুরকার হিসেবে পাওয়া যায়নি। এবারই প্রথম তাকে কোনো গানে সুর করতে দেখা যাবে। বরেণ্য গীতিকার গাজী মাজহারুল আনোয়ারের লেখা ‘গল্প কথার ঐ কল্পলোকে জানি/ একদিন চলে যাবো, কোথায় শুরু আর শেষ হবে কোথায়/ সে কথা বলে যাবো’ এমন জীবন ঘনিষ্ঠ গানটির সুর করেছেন তিনি।


গানটিতে কণ্ঠ দিয়েছেন আঁখি আলমগীর। গানটি শুক্রবার (১৩ এপ্রিল) মুক্তির প্রতীক্ষায় থাকা ‘একটি সিনেমার গল্প’ ছবিতে ব্যবহৃত হয়েছে।


সুর করা প্রসঙ্গে রুনা লায়লা বলেন, কখনো ভাবিনি গানে সুর করবো। আঁখির অনুরোধে গানটিতে সুর করেছি। তবে গানটি যখন করি তখন জানতাম না এটি সিনেমায় ব্যবহার করা হবে। আলমগীর সাহেব গানটি শুনে পরে ‘একটি সিনেমার গল্প’-এ গানটি দিলেন।

বাংলাদেশ সময়: ১৫০০ ঘণ্টা, এপ্রিল ১২, ২০১৮
জেআইএম/বিএসকে

বাংলাদেশের পর্যটক টানতে চায় ত্রিপুরা
রাজনৈতিক কারণে খালেদা জিয়ার জামিন হচ্ছে না: মওদুদ
ভোলার ১৯০ কিলোমিটার জলসীমায় ২ মাস ইলিশ ধরায় নিষেধাজ্ঞা
শিশুপ্রহরে শিশুদের উপচে পড়া ভিড়
চাকরিতে প্রবেশের বয়স ৩৫ করার দাবি


পাপিয়ার সঙ্গে জড়িত সবাইকে আইনের আওতায় আনা হবে
বইমেলায় হাতে হাতে বইয়ের ব্যাগ
ফেনীতে ‘বঙ্গবন্ধু হ্যান্ডবল লীগ’ শুরু শনিবার
‘ফুটবল যদি ধর্ম হতো, মেসি হতো ঈশ্বর’
গ্রুপিং রাজনীতির ইতি ঘটানোর বার্তা তৃণমূলে