পরের ঘর সাজাতে ব্যস্ত তারকাদের স্ত্রীরা

বৃষ্টি শেখ, নিউজরুম এডিটর | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

শুধু তারকা স্বামীর পরিচয়ে ঢাকা পড়ে থাকেন না তারা। তাদের নিজেদেরও আলাদা পরিচিতি আছে। স্বামীরা এক একজন ডাকসাইটে অভিনেতা হলেও স্ত্রীরা কিন্তু কম যান না। অন্যদের ঘরবাড়ি সাজানোর কাজে ব্যস্ত এই সফল নারীরা পেশায় ইন্টেরিয়র ডিজাইনার।

শুধু তারকা স্বামীর পরিচয়ে ঢাকা পড়ে থাকেন না তারা। তাদের নিজেদেরও আলাদা পরিচিতি আছে। স্বামীরা এক একজন ডাকসাইটে অভিনেতা হলেও স্ত্রীরা কিন্তু কম যান না। অন্যদের ঘরবাড়ি সাজানোর কাজে ব্যস্ত এই সফল নারীরা পেশায় ইন্টেরিয়র ডিজাইনার। নিজের সংসার সামলে পরের ঘর দৃষ্টিনন্দন ও ছিমছাম করে সাজিয়ে তোলার দায়িত্ব পালনে সময় কাটে তাদের। একঝলকে দেখে নিই কোন কোন বলিউড তারকার স্ত্রী ইন্টেরিয়র ডিজাইনার।

গৌরি খান
বলিউড বাদশা শাহরুখ খানের অর্ধাঙ্গিনী গৌরি খান স্ত্রী ও মা হিসেবে অনেকের আদর্শ। নিজেদের বাড়ি মান্নতকে নিজের হাতে সাজিয়ে ইন্টেরিয়র জগতে পা রাখেন তিনি। তার এই শখ এখন পরিণত হয়েছে পেশায়। ছোটবেলা স্কুলে থাকাকালীন ডিজাইনের প্রতি আগ্রহ ছিলো গৌরির। পুনেতে একটি বিশাল ডিজাইনার শপ আছে তার। সম্প্রতি অভিনেতা রণবীর কাপুরের নতুন ফ্ল্যাট সাজানোর দায়িত্ব পালন করেন তিনি।

টুইংকেল খান্না
বলিউডের প্রথম ‘সুপারস্টার’ রাজেশ খান্নার কন্যা টুইংকেল খান্না সংসার করছেন ‘খিলাড়ি’ তারকা অক্ষয় কুমারের সঙ্গে। চাইলে তারকা বাবার সন্তান আর তারকার স্ত্রী হিসেবে আয়েশ করে দিন কাটাতে পারতেন তিনি। কিন্তু তিনি চলচ্চিত্রে অভিনয় করেছেন, এরপর নিজের অনুরাগের বিষয় ইন্টেরিয়র ডিজাইনকে বেছে নিয়েছেন পেশা হিসেবে। ‘দ্য হোয়াইট উইন্ডো’ নামে তার একটি ডেকর স্টোর আছে। নিজের সাফল্যের গল্প লিখে বইও বের করেছেন ৪২ বছর বয়সী এই অভিনেত্রী।

সুজানে খান
বলিউড সুপারস্টার হৃতিক রোশনের প্রাক্তন স্ত্রী সুজানো খান। ক্যালিফোর্নিয়ার লং বিচে ব্রুকস কলেজ থেকে ইন্টেরিয়র ডিজাইনিংয়ে অ্যাসোসিয়েটস অব আর্টস ডিগ্রি আছে তার। মায়ের ইন্টেরিয়র প্রতিষ্ঠানে কাজ করে হাত পাকিয়েছেন তিনি। রানী মুখার্জি ও প্রিয়াঙ্কা চোপড়ার মতো তারকাদের ঘর সাজিয়েছেন সুজানে। শাহরুখপত্নী গৌরি খানের সঙ্গে তার নিজের ইন্টেরিয়র ব্র্যান্ড আছে।

মানা
অভিনেতা সুনীল শেঠির সহধর্মিণী মানা একাধিক সফল কাজের সঙ্গে যুক্ত আছেন। শুধু ইন্টেরিয়র স্টোরই চালাচ্ছেন না; ঘর ডিজাইন, সেভ দ্য চিলড্রেন ইন্ডিয়া নামের বেসরকারি সংগঠন চালানো ও দরিদ্রসেবার লক্ষ্যে তহবিল সংগ্রহের প্রদর্শনীও আয়োজন করেছেন তিনি।

১৫ বছর বয়সে ডিজাইনিং জগতে পা রাখেন মানা। ছোটবেলার ভালোলাগাকেই পেশা হিসেবে বেছে নিয়েছেন তিনি। ২০১০ সালে এক সাক্ষাৎকারে মানা বলেন, ‘আমি সবসময় মানা শেঠি নই। আমি কেবল মানা। আমার নিজের স্বতন্ত্র পরিচয় রয়েছে। এটা আমি মনেপ্রাণে বিশ্বাস করি। এ কারণে নিজে থেকে অনেক কিছু করে থাকি। এটাও ঠিক যে, সুনীল আমার শতভাগ জুড়ে আছে। তবে নিজের চেষ্টায় কিছু করলে তারকার স্ত্রী পরিচয়টি ছাপিয়ে যেতে পারি।’

তানিয়া দেওল
অভিনেতা ববি দেওলের স্ত্রী তানিয়া দেওল ইতিমধ্যে ইন্টেরিয়র ডিজাইনার হিসেবে সুনাম কুড়িয়েছেন। তার ডিজাইনে প্রাচ্য ও পাশ্চাত্যের মেলবন্ধন লক্ষণীয়।

বাংলাদেশ সময়: ১৪৪০ ঘণ্টা, আগস্ট ০৩, ২০১৬
বিএসকে/জেএইচ

তিন সপ্তাহের জন্য ছিটকে গেলেন মেসি
আড়াইহাজারে গুলিবিদ্ধ ৪ মরদেহ উদ্ধার
দ্বিতীয় গণভোটের দাবিতে লন্ডনের রাজপথে লাখো মানুষ
ভালুকায় অসাবধানতায় প্রাণ গেলো শ্রমিকের 
মধুপুরে ইয়াবাসহ পৌর কাউন্সিলর ও ২ সহোদর আটক
সালাহ’র নৈপুণ্যে লিভারপুলের জয় 
অদ্ভুত ইন্টারনেট চ্যালেঞ্জ!
নেইমার ছাড়া দাপুটে জয় পিএসজি’র
বিএনপি-ঐক্যফ্রন্টের চমক সুলতান মনসুর!
সিলেট চেম্বারের চ্যাম্পিয়নশিপ অ্যাওয়ার্ড লাভ