ঢাকা, বুধবার, ২৮ শ্রাবণ ১৪২৭, ১২ আগস্ট ২০২০, ২১ জিলহজ ১৪৪১

নির্বাচন ও ইসি

ইভিএমে জাল ভোট দিতে পারে না, তাই ভোটের হার কম: ইসি সচিব

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৮৪৮ ঘণ্টা, মার্চ ২১, ২০২০
ইভিএমে জাল ভোট দিতে পারে না, তাই ভোটের হার কম: ইসি সচিব

ঢাকা: ঢাকা-১০ আসনের উপ-নির্বাচনে ভোটের হার কম হওয়ার বিষয়ে নির্বাচন কমিশন (ইসি) সচিব মো. আলমগীর বলেছেন, ইলেকট্রনিক ভোটিং মেশিনে (ইভিএম) জাল ভোট দেওয়ার সুযোগ নেই। সেজন্য ভোট পড়ার হার কমে যায়।

রাজধানীর আগারগাঁওয়ে নির্বাচন ভবনে শনিবার (২১ মার্চ) আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে তিনি এ কথা বলেন।

কেএম নূরুল হুদার নেতৃত্বাধীন বর্তমান কমিশনের আমলে ব্যালট পেপারে ভোটগ্রহণ হলে ৬০ থেকে ৭০ শতাংশ ভোট পড়ে।

কিন্তু ইভিএমে ভোট হলে ১২ থেকে ১৫ শতাংশ ভোট পড়ে-এর কারণ জানতে চাইলে ইসি সচিব আলমগীর বলেন, ‘এটা কমিশনের সঙ্গে সম্পর্কিত নয়। ইভিএমে ভোট দিলে যেহেতু জাল ভোট দেওয়ার সুযোগ নাই, সেজন্য ভোট কমে যায়।

পড়ুন>> দেশে সব ধরনের নির্বাচন স্থগিত

ব্যালট পেপারে জাল ভোট ঠেকাতে পারছেন না কেন-এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, ‘আপনাকে ধরতে হবে। জাল ভোট ধরে যদি কমিশনের কাছে অভিযোগ না করেন বা না ধরিয়ে দেন, জাল হয়েছে কি না, কীভাবে বুঝবো। কারণ, প্রিজাইডিং কর্মকর্তা তো সবাইকে চেনেন না। ’

মো. আলমগীর বলেন, উপ-নির্বাচনে ঢাকা-১০ আসনে বিকেল ৩টা নাগাদ ৫ শতাংশ ভোট পড়েছে। আর গাইবান্ধা-৩ আসনে ৪০ শতাংশের উপরে এবং বাগেরহাট-৪ আসনে ৪০ শতাংশের মতো ভোট পড়েছে।

ইভিএমে এতো কম ভোট পড়ার কারণে নির্বাচন কমিশন বিব্রত কিনা- এ প্রশ্ন করা হলে ইসি সচিব বলেন, আমরা বিব্রত নই। কেননা আমাদের সব আয়োজন ছিল। যদি বলেন, সেটা ছিল না তাহলে আমাদের বিব্রত হওয়ার বিষয়। ভোটকেন্দ্রে গিয়ে ভোট দেওয়া ভোটারের দায়িত্ব।

কম ভোট পড়ায় ঢাকা-১০ আসনের উপ-নির্বাচনটা অংশগ্রহণমূলক হলো কি না-এ প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, অংশগ্রহণমূলক বলতে কী বোঝানো হয়, জানি না। যারা প্রার্থী তারা যদি অংশগ্রহণ করেন, তাহলেই অংশগ্রহণমূলক নির্বাচন। ভোটাররা ভোট দিতে যাবেন কি-না, সেটা তাদের বিষয়। ভোটারদের বাধ্য করা যাবে না। আইনেও নাই। বিধানেও নাই।

বাংলাদেশ সময়: ১৮৪২ ঘণ্টা, মার্চ ২১, ২০২০
ইইউডি/এমএ 

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa