ইচ্ছা থাকলে দুই বছরেও নগরবাসীর সেবা করা যায়

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

গণসংযোগে আরিফ ও দলের নেতাকর্মীরা

walton

সিলেট: ১৭ বছর নয়, দুই বছরেও মানুষের সেবায় পরিপূর্ণ নিয়োজিত রাখা সম্ভব বলে মন্তব্য করেছেন বিএনপি মনোনীত ২০ দলীয় জোট সমর্থিত মেয়র প্রার্থী আরিফুল হক চৌধুরী।

তিনি বলেন, নগরীর উন্নয়নের জন্যই মেয়র নির্বাচিত হয়েছিলাম। কিন্তু পাঁচটি বছরের তিনটি বছরই আমার থেকে কেড়ে নেওয়া হলো। যার কারণে নগরীর সার্বিক উন্নয়ন পুরোপুরি নিশ্চিৎ করা যায়নি। তবুও যেটুকু সময় পেয়েছি নগরীর উন্নয়ন করেছি। আমি আমার কাজের মাধ্যমে প্রমাণ করেছি, প্রবল ইচ্ছা ও আন্তরিকতা থাকলে ২ বছরেও উন্নয়ন করা যায়, ১৭ বছর লাগে না।

বুধবার (২৫ জুলাই) নগরীর আরামবাগে আমান উল্লাহ কনভেনশন সেন্টার হয়ে খরাদিপাড়া, মণিপুরীপাড়া, শিবগঞ্জস্থ লামাপাড়া, গোলাপবাগ, সবুজবাগ, টিলাগড়স্থ শাপলাবাগ, রাজপাড়া, বোরহান উদ্দিন রোর্ড এবং গোপাল টিলায় গণসংযোগের সময় তিনি এ কথা বলেন।

গণসংযোগে অংশ নেন বিএনপির কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক ডা. সাখাওয়াত হাসান জীবন, জমিয়তে উলামায়ে ইসলামের যুগ্ম মহাসচিব মাওলানা আব্দুল মালিক চৌধুরী, মহানগর সভাপতি মাওলানা খলিরুর রহমান, সহ-সভাপতি প্রিন্সিপাল মাওলানা মাহমুদুল হাসান, মহানগর খেলাফত মজলিশের সহ-সভাপতি আব্দুল হান্নান তাপাদার, সিলেট মহানগর বিএনপির সহ সভাপতি সুদীপ রঞ্জন সেন বাপ্পু, মানবাধিকার বিষয়ক সম্পাদক মুফতি নেহাল উদ্দিন, সিলেট চেম্বার অব কমার্স অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রির পরিচালক আমিরুজ্জামান চৌধুরী।

এছাড়া রাজপাড়ায় এবং গোপালটিলায় গণসংযোগের সময় আরিফুল হক চৌধুরী’র সঙ্গে জাতীয়তাবাদী সামাজিক সাংস্কৃতিক সংস্থা (জাসাস)-এর কেন্দ্রীয় নেতারা অংশগ্রহণ করেন। ধানের শীষের সমর্থনে মাঠে নামেন বিশিষ্ট চিত্র পরিচালক ও বিএনপি চেয়ারপার্সনের উপদেষ্টা গাজী মাজহারুল আনোয়ার, জাসাস’র সাধারণ সম্পাদক চিত্রনায়ক হেলাল খান, সিনিয়র যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক জাকির হোসেন রোকন, সহ-সভাপতি চিত্রনায়িকা শাহরিয়ার ইসলাম শায়লা, চিত্রনায়িকা শাহিনূর, শেখ রুনা, মহানগর জাসাস’র সাধারণ সম্পাদক তাজউদ্দিন মাসুম, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক হারুনুর রশীদ হারুন, এ এস এম আব্দুল্লাহ আরিফ, জহির হোসেন, সাংগঠনিক সম্পাদক রায়হান এইচ খান, জেলা সেক্রেটারি জয়নাল আহমদ রানু প্রমুখ। 

গণসংযোগে অন্যদের মধ্যে অংশ নেন জমিয়তে উলামায়ে ইসলাম সিলেট মহানগর’র সেক্রেটারি আবু বকর সিদ্দিক সরকার,  জেলা ছাত্রদলের সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক এখলাসুর রহমান মুন্না, জেলা ছাত্র জমিয়তের আহ্বায়ক কায়সান মাহমুদ আকবরী, যুব জমিয়ত নেতা মুশতাক ফুরকানী, সদর জমিয়ত সেক্রেটারি মাওলানা হেলাল আহমদ প্রমুখ।

এছাড়া গণসংযোগে বিএনপি, ২০ দলীয় জোট এবং তাদের অঙ্গ সংগটনের সব পর্যায়ের নেতাকর্মীসহ বিপুল সংখ্যক সাধারণ জনগণ অংশগ্রহণ করেন।

বাংলাদেশ সময়:১৮৪৫ ঘণ্টা, জুলাই ২৫, ২০১৮
এনইউ/জেডএস

ক্লিক করুন, আরো পড়ুন: সিলেট সিলেট সিটি নির্বাচন
আ খ ম হাসানের ‘বউ নিখোঁজ’
কাস্টম হাউসে করোনার থাবা, শারীরিক দূরত্ব নিশ্চিতের দাবি
করোনায় দিশেহারা বোয়িং, ১২ হাজার কর্মী ছাঁটাই
কাঁঠালবাড়ী ঘাটে যাত্রীদের উপচে পড়া ভিড় 
কমেছে মাছ-মুরগি-সবজির দাম


সোশ্যাল মিডিয়ার বিরুদ্ধে নির্বাহী আদেশে ট্রাম্পের স্বাক্ষর
চিকিৎসাধীন চট্টগ্রামের শীর্ষ তিন করোনাযোদ্ধা
শনির দশা কাটছে না রাজশাহীর আমের
লিবিয়ায় বেঁচে যাওয়া বাংলাদেশি যে লোমহর্ষক বর্ণনা দিলেন
স্বাস্থ্যবিধি মানছেন না পরিচ্ছন্নতা কর্মীরা