শাবিপ্রবিতে সমাবর্তনের উপহার সামগ্রী বিতরণ শুরু

শাবিপ্রবি করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

সমাবর্তনের উপহার সামগ্রী বিতরণ করা হচ্ছে। ছবি: বাংলানিউজ

walton

শাবিপ্রবি (সিলেট): শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের (শাবিপ্রবি) তৃতীয় সমাবর্তনে গ্র্যাজুয়েটদের কস্টিউম, গিফট ও আমন্ত্রণপত্র বিতরণ শুরু হয়েছে।

সোমবার (৬ জানুয়ারি) সকাল থেকে এ কার্যক্রম শুরু হয়েছে। চলবে বিকেল ৫টা পর্যন্ত। পরের দিন মঙ্গলবার (৭ জানুয়ারি) সকাল ৯টা থেকে সন্ধ্যা ৭টা পর্যন্ত এ উপহার সামগ্রী বিতরণ করা হবে।

একাডেমিক ভবন ‘এ’ এর ১২২ নম্বর কক্ষে পদার্থবিজ্ঞান, জিওগ্রাফি অ্যান্ড এনভায়রনমেন্ট ও বায়োকেমিস্ট্রি অ্যান্ড মলিকুলার বায়োলজি বিভাগের শিক্ষার্থীদের কস্টিউম, গিফট ও আমন্ত্রণপত্র বিতরণ করা হচ্ছে।

এছাড়া রসায়ন, বাংলা ও কেমিক্যাল ইঞ্জিনিয়ারিং অ্যান্ড পলিমার সায়েন্স বিভাগের শিক্ষার্থীদের একাডেমিক ভবন ‘বি’ এর ২০১ নম্বর কক্ষে। গণিত, পরিসংখ্যান, সিভিল অ্যান্ড এনভায়রনমেন্টাল ইঞ্জিনিয়ারিং ও ইন্ডাস্ট্রিয়াল অ্যান্ড প্রোডাক্শন ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের শিক্ষার্থীদের একাডেমিক ভবনের ‘সি’ এর ৪০৯ নম্বর কক্ষে। নৃবিজ্ঞান, অর্থনীতি, সমাজকর্ম বিভাগের শিক্ষার্থীদের একাডেমিক ভবন ‘ডি’ এর ২০০৬ নম্বর কক্ষে। সমাজবিজ্ঞান, পলিটিক্যাল স্টাডিজ ও লোকপ্রশাসন বিভাগের একাডেমিক ভবন ‘ডি’ এর ৪০২২ নম্বর কক্ষে। জালালাবাদ রাগীব রাবেয়া মেডিক্যাল কলেজের শিক্ষার্থীদের একাডেমিক ভবন ‘ডি’ এর ২০২৪ নম্বর কক্ষে। সিলেট এম এ জি ওসমানী মেডিক্যাল কলেজের শিক্ষার্থীদের একাডেমিক ভবন ‘ডি’ এর ২০২৫ নম্বর কক্ষে। নর্থ ইস্ট মেডিক্যাল কলেজ, সিলেট উইমেন্স মেডিক্যাল কলেজ, সিলেট ইঞ্জিনিয়ারিং কলেজ, রাবেয়া খাতুন নার্সিং কলেজ, সিলেট নার্সিং কলেজ এবং নর্থ ইস্ট নার্সিং কলেজের শিক্ষার্থীদের একাডেমিক ভবন ‘ডি’ এর ২০১২ নম্বর কক্ষে। ইংরেজি, পেট্রোলিয়াম অ্যান্ড মাইনিং ইঞ্জিনিয়ারিং, ফুড ইঞ্জিনিয়ারিং অ্যান্ড টেকনোলজি, আর্কিটেকচার, জেনেটিক ইঞ্জিনিয়ারিং অ্যান্ড বায়োটেকনোলজি, ফরেস্ট্রি অ্যান্ড এনভায়রনমেন্টাল সায়েন্স ও ব্যবসায় প্রশাসন বিভাগের শিক্ষার্থীদের একাডেমিক ভবন ‘ই’ এর ১২২ নম্বর কক্ষ থেকে এবং কম্পিউটার সায়েন্স অ্যান্ড ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগ ও ইলেকট্রিক্যাল অ্যান্ড ইলেকট্রনিক ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের শিক্ষার্থীদের কস্টিউম, গিফট ও আমন্ত্রণপত্র আইআইসিটি ভবনের ১০৪ নম্বর কক্ষ থেকে বিতরণ করা হচ্ছে।

সমাবর্তনে গ্র্যাজুয়েটদের কস্টিউম, গিফট ও আমন্ত্রণপত্র সংগ্রহের সময় অবশ্যই সমাবর্তন নিবন্ধন নিশ্চিতকরণ কপি নিয়ে আসতে হবে। সমাবর্তন নিবন্ধন নিশ্চিতকরণ কপি সমাবর্তনের ওয়েবসাইট (sustconvocation.edu) থেকেও সংগ্রহ করা যাবে।

কোনো গ্র্যাজুয়েট নিজে গিয়ে উপহার সামগ্রী নিতে না পারলে নমিনিকে সমাবর্তনে নিবন্ধন নিশ্চিতকরণ কপিসহ তার বাবা/মা, স্বামী-স্ত্রী অথবা বিভাগীয় শিক্ষক (শুধুমাত্র শাবিপ্রবির বিভাগসমূহের শিক্ষক, অধিভুক্ত কলেজ নয়) তার পক্ষে গ্র্যাজুয়েট প্রদত্ত লিখিতপত্র ও নমিনির জাতীয় পরিচয়পত্র/পাসপোর্টের ফটোকপি নিয়ে আসতে হবে।

সমাবর্তন গ্র্যাজুয়েটদের কস্টিউম, গিফট ও আমন্ত্রণপত্র কোনো কিছুই ফেরত দিতে হবে না। তবে গ্র্যাজুয়েট ছাড়া অংশগ্রহণকারী শিক্ষক, একাডেমিক কাউন্সিল সদস্য, সিন্ডিকেট সদস্যদের গাউন ও হুড ফেরত দিতে হবে এবং হ্যাট গিফটের অর্ন্তভুক্ত হবে।

সমাবর্তনে অংশগ্রহণের জন্য আমন্ত্রণপত্র সঙ্গে আনতে হবে। ৮ জানুয়ারি বেলা সাড়ে ১১টায় প্রধান গেট খুলে দেওয়া হবে এবং দুপুর আড়াইটার মধ্যে সমাবর্তন স্থলে ঢুকতে হবে। এছাড়া মোবাইল ফোন, হাত ব্যাগ, ছাতা, পানির বোতল, ব্রিফকেস, ক্যামেরা বা অন্য কোনো ইলেকট্রনিক ডিভাইস সঙ্গে নিয়ে অনুষ্ঠানে ঢুকা যাবে না। মূল সনদপত্র সমাবর্তনের দিন সন্ধ্যা ৬টা থেকে রাত ৯টা পর্যন্ত এবং পরের দিন ৯ জানুয়ারি সারাদিন নির্ধারিত কাউন্টার থেকে বিতরণ করা হবে।

বাংলাদেশ সময়: ১৫৫৯ ঘণ্টা, জানুয়ারি ০৬, ২০২০
আরবি/

মেয়ের কাছে যৌতুক চেয়ে উল্টো যৌতুক দিতে হলো ছেলেকে
করোনা: ফরজ নামাজের পরেই বন্ধ মসজিদের দরজা
চমেক হাসপাতালে পিপিই দিলো সানশাইন চ্যারিটি
চট্টগ্রামে আরও ১০৪ জনের করোনা পরীক্ষা, আক্রান্ত নেই
করোনা: বাংলাদেশে শুধু বয়স্ক নয়, ঝুঁকিতে সব বয়সীরাই


পুলিশ প্রধান হিসেবে আমি অত্যন্ত গর্বিত ও আনন্দিত: আইজিপি
জাতীয় অধ্যাপক সুফিয়া আহমেদের ইন্তেকাল
কোয়ারেন্টিনে থাকা ব্যক্তিকে অ্যাপে নজরদারি করবে পুলিশ
মসজিদে মুসল্লি নিয়ন্ত্রণে ভ্রাম্যমাণ আদালতের নজরদারি
করোনার মধ্যে বিয়ে: সেই সরকারি কর্মকর্তা চাকরি থেকে বরখাস্ত