বুয়েটে দলীয় ছাত্ররাজনীতি বন্ধের দাবি আন্দোলনরতদের

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

বুয়েট শহিদ মিনারের সামনে আন্দোলনরত শিক্ষার্থীরা। ছবি: ডি এইচ বাদল 

walton

ঢাকা: বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ে (বুয়েটে) কোনো দল বা সংগঠনের ব্যানারে ছাত্ররাজনীতি বন্ধের দাবি তুলেছেন আবরার হত্যাকাণ্ডে আন্দোলনরত শিক্ষার্থীরা। 

বৃহস্পতিবার (১০ অক্টোবর) দুপুর পৌনে ২টায় বুয়েটের শহীদ মিনার সংলগ্ন সড়কে অবস্থান নিয়ে তারা এ দাবি জানান।

বুধবার (৯ অক্টোবর) প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ছাত্ররাজনীতি বন্ধের প্রসঙ্গে বলেন, ছাত্ররাজনীতি পুরোপুরি নিষিদ্ধের বিপক্ষে তিনি। তবে, বুয়েট বা যে কোনো প্রতিষ্ঠান ছাত্ররাজনীতি নিষিদ্ধ করলে তাতে সরকার হস্তক্ষেপ করবে না। প্রশাসন চাইলে তা বন্ধ করতে পারে। প্রধানমন্ত্রীর এমন বক্তব্যে ধন্যবাদ জানিয়ে  আন্দোলনকারীরা বলেন, আমাদের আন্দোলন ছাত্ররাজনীতি নিষিদ্ধ করার বিরুদ্ধে নয়। এ দেশে ছাত্ররাজনীতির অনেক গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রয়েছে। এর প্রয়োজন আছে। কিন্তু, বুয়েটে যে নষ্ট রাজনীতি চলছে, এর কারণে আমাদের বেঁচে থাকা দায় হয়ে পড়েছে। আমাদের আন্দোলন সেই নষ্ট রাজনীতির বিরুদ্ধে। আমাদের আন্দোলন ক্যাম্পাসে বিভিন্ন রাজনৈতিক দল ও সংগঠনের ব্যানারে যে আন্দোলন তার বিরুদ্ধে। 

‘তাই আমাদের অনুরোধ, ভিসি স্যার আমাদের সঙ্গে এসে কথা বলবেন। আমাদের দাবিদাওয়ার সঙ্গে একাত্মতা ঘোষণা করবেন। দাবিগুলোর বাস্তবায়ন যেন সুনিশ্চিত করা হয়। বুয়েটে সংগঠিত ছাত্ররাজনীতি নিষিদ্ধ করা হয়। আবরার ফাহাদের হত্যাকাণ্ডে জড়িত খুনিদের যেন দ্রুত বিচার করে ফাঁসি দেওয়া হয় আমরা সেই আহ্বান জানাচ্ছি। আমরা আশা করব প্রধানমন্ত্রীর বক্তব্যের পর প্রশাসন পিছিয়ে থাকবে না।’ 

বাংলাদেশ সময়: ১৫৩৬ ঘণ্টা, অক্টোবর ১০, ২০১৯
আরকেআর/এইচজে 

আরও পড়ুন>>> ফাহাদ হত্যা: খুনিদের বিচারের দাবিতে ক্যাম্পাসে গ্রাফিতি

Nagad
ডিএমপিতে সহকারী পুলিশ কমিশনারের বদলি
ভিকটিমকে ধরে আনতে পুলিশ পাঠালেন এসআই নাছির!
দিনাজপুরে নিম্নাঞ্চল প্লাবিত, পানিবন্দি দেড় হাজার মানুষ
কমলাপুরে অজ্ঞাত ব্যক্তির মরদেহ উদ্ধার
সুগন্ধি চাল রপ্তানির অনুমোদন বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের


করোনা কেড়ে নিল আরও এক চিকিৎসকের প্রাণ
করোনা রোগীর সহায়তায় বিমান বাহিনীর পরিবহন সেবা
রেল যাত্রী সেবার মান বাড়াচ্ছে: রেলপথ মন্ত্রী
স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় ঘেরাও কর্মসূচিতে পুলিশের বাধা
হেলিকপ্টারে ঢাকায় আনা হয়েছে পবিপ্রবি উপাচার্যকে