এক যুগ ধরে রাবিতে সমাবর্তন হয় না

| বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

walton

নিয়ম অনুয়ায়ী প্রতিবছর সমাবর্তন আয়োজনের কথা থাকলেও একযুগেরও বেশি সময় ধরে সমাবর্তন বঞ্চিত রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের (রাবি) শিক্ষার্থীরা।

রাবি:  নিয়ম অনুয়ায়ী প্রতিবছর সমাবর্তন আয়োজনের কথা থাকলেও একযুগেরও বেশি সময় ধরে সমাবর্তন বঞ্চিত রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের (রাবি) শিক্ষার্থীরা।

এ বিশ্ববিদ্যালয়ে সর্বশেষ সমাবর্তন হয়েছিল ১৯৯৮ সালের ২৯ নভেম্বর। এরপর কেটে গেছে ১৩ বছর। সামনে ঠিক কবে সমাবর্তন হবে তাও নিশ্চিত করে বলতে পারছে না বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন।

বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন সূত্রে জানা গেছে, ১৯৭১ সালের স্বাধীনতা যুদ্ধে ফ্রান্স বাংলাদেশের পক্ষে কাজ করায় সে দেশের দার্শনিক আন্দ্রে মালরোকে সম্মান সূচক ডিলিট ডিগ্রি প্রদান করতে ১৯৭৩ সালের ২৩ এপ্রিল একটি বিশেষ সমাবর্তন আয়োজন করা হয়েছিল।

১৯৫৩ সালে বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিষ্ঠা হবার পর থেকে বিভিন্ন সময়ে মাত্র ৬ বার সমাবর্তন হয়েছে।  

গত বছর ১৬ সেপ্টেম্বর বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন সাংবাদিকদের জানিয়েছিল, ২০১২ সালের মার্চ মাসে অষ্টম সমাবর্তন অনুষ্ঠিত হবে। কিন্তু এখনও পর্যন্ত এ ব্যাপারে প্রশাসনের কোনো উদ্যোগ চোখে পড়েনি।

সমাবর্তন  আয়োজন বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষা ও সংস্কৃতির একটা অংশ উল্লেখ করে রাবির হিসাব বিজ্ঞান ও তথ্য ব্যবস্থা বিভাগের সাবেক শিক্ষার্থী  আব্দুল কুদ্দুস বাংলানিউজকে জানান, নিয়মিত সমাবর্তন না হলে ঐ বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার গুণগত মান নিয়ে প্রশ্ন ওঠে। তাই খুব বেশি জাঁকজমক করে না পারলেও অন্তত নিয়মিত সমাবর্তন করা জরুরি।

বিশ্ববিদ্যালয়ের ইসলামিক স্টাডিজ বিভাগের মাস্টার্সের শিক্ষার্থী আজাহার আলী বাংলানিউজকে বলেন, অনেক প্রতিযোগিতা করে বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি হয়েছিলাম। এখন পড়ালেখা শেষ। সার্টিফিকেট নিয়ে কর্মক্ষেত্রে প্রবেশ করতে হবে। ভেবেছিলাম বিশ্ববিদ্যালয়ের সমার্তন অনুষ্ঠানে রাষ্ট্রপতির কাছ থেকে সার্টিফিকেট গ্রহণ করবো। কিন্তু সেই আশা বুঝি আর বাস্তবায়ন হবে না।

বিশ্ববিদ্যালয়ের এমন অনেক শিক্ষার্থী বাংলানিউজের কাছে তাদের শিক্ষাজীবনের শেষ অর্জনটা সমাবর্তন অনুষ্ঠানের মাধ্যমে গ্রহণের ইচ্ছার কথা জানান। অবিলম্বে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনের কাছে তারা সমাবর্তন অনুষ্ঠানের দাবি জানান।    

এ ব্যাপারে বিশ্ববিদ্যালয়ের উপ-উপাচার্য প্রফেসর মুহম্মদ নূরুল্লাহর সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে তিনি বাংলানিউজকে জানান, অষ্টম সমাবর্তন আয়োজনের জন্য মাননীয় আচার্যের কাছে চিঠি পাঠানো হয়েছে। চিঠিটি শিক্ষা মন্ত্রালয় থেকে প্রধানমন্ত্রীর দপ্তর হয়ে মহামাণ্য রাষ্ট্রপতির কাছে যাওয়ার কথা।

কিন্তু চিঠিটা এখনও শিক্ষা মন্ত্রণালয়েই রয়ে গেছে। তাই মার্চে সমাবর্তন করা সম্ভব হয়নি। তবে আগামী নভেম্বরের মধ্যেই সমাবর্তন করা সম্ভব হবে বলে তিনি আশা প্রকাশ করেন।

বাংলাদেশ সময়: ১৭৪৪ ঘণ্টা, জুলাই ২৬, ২০১২
সম্পাদনা: শামীম হোসেন/রোকনুল ইসলাম কাফী, নিউজরুম এডিটর

ফায়ার সার্ভিসের ল্যান্ড ফোন বিকল
মিরপুর ও নারায়ণগঞ্জে করোনা পরিস্থিতি ভয়ংকর
ঢাকার বাইরে করোনা রোগী বেড়েছে
এটিএম বুথগুলোর সামনে ‘সামাজিক দূরত্ব’ মানা হচ্ছে না!
ফেনীতে করোনা উপসর্গ নিয়ে একজনের মৃত্যু


বগুড়ায় হতদরিদ্রদের ৫০ বস্তা চালসহ কৃষক লীগ নেতা আটক
সাহায্যের জন্য নগদ অর্থ সংগ্রহ করবেন না: মুখ্যমন্ত্রী
সিলেটে প্রবাস ফেরত যুবককে কুপিয়ে খুন
নারায়ণগঞ্জে বিভিন্ন বাসার ছাদে সারারাত জামাতে নামাজ আদায়
রাজশাহীতে ৩৩৭ জনের নমুনা সংগ্রহ