ঢাকা, বুধবার, ২৮ শ্রাবণ ১৪২৭, ১২ আগস্ট ২০২০, ২১ জিলহজ ১৪৪১

শেয়ার

শেষ কার্যদিবসেও সূচকের পতন

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২৩১৭ ঘণ্টা, জানুয়ারী ৯, ২০২০
শেষ কার্যদিবসেও সূচকের পতন

ঢাকা: সপ্তাহের শেষ কার্যদিবস বৃহস্পতিবারও (৯ জানুয়ারি) দেশের পুঁজিবাজারে সূচকের পতন হয়েছে। এদিন প্রধান শেয়ারবাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই) ডিএসইএক্স ৩০ পয়েন্ট ও অপর শেয়ারবাজার চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জে (সিএসই) সিএএসপিআই সূচক ১১৮ পয়েন্ট কমেছে। এ নিয়ে টানা পাঁচ কার্যদিবস সূচকের পতন হয়েছে পুঁজিবাজারে।

ডিএসই ও সিএসই সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে।

জানা যায়, বৃহস্পতিবার ডিএসইর প্রধান সূচক ডিএসইএক্স ৩০ পয়েন্ট কমে দাঁড়িয়েছে ৪ হাজার ১৯৭ পয়েন্টে।

ডিএসইর অপর দুই সূচকের মধ্যে শরিয়াহ সূচক ৭ পয়েন্ট ও ডিএসই-৩০ সূচক ১৫ পয়েন্ট কমে দাঁড়িয়েছে যথাক্রমে ৯৪৫ ও ১৪০৬ পয়েন্টে।  

ডিএসইতে এদিন টাকার পরিমাণে লেনদেন হয়েছে ৩০১ কোটি ৪১ লাখ টাকার শেয়ার ও ইউনিট। যা আগের দিন থেকে ২৩ কোটি টাকা বেশি। আগের দিন লেনদেন হয়েছিল ২৭৯ কোটি টাকার।

ডিএসইতে বৃহস্পতিবার ৩৫২টি প্রতিষ্ঠান শেয়ার ও ইউনিট লেনদেনে অংশ নিয়েছে। এসব প্রতিষ্ঠানের মধ্যে ১২৬টির শেয়ার ও ইউনিট দর বেড়েছে, দর কমেছে ১৭৩টির এবং ৫৩টি প্রতিষ্ঠানের শেয়ার ও ইউনিট দর অপরিবর্তিত রয়েছে।

টাকার অংকে ডিএসইতে সবচেয়ে বেশি লেনদেন হওয়া শীর্ষ ১০ কোম্পানি হলো-খুলনা পাওয়ার, লাফার্জহোলসিম সিমেন্ট, এডিএন টেলিকম, ব্রাক ব্যাংক, স্ট্যান্ডার্ড সিরামিক, জিপি, বিকন ফার্মা, স্কয়ার ফার্মা, ইউনাইটেড পাওয়ার ও আইপিডিসি।

অপর শেয়ারবাজার চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জের (সিএসই) সার্বিক সূচক সিএএসপিআই এদিন ১১৮ পয়েন্ট কমে দাঁড়িয়েছে ১২ হাজার ৭৬৮ পয়েন্টে। এদিন সিএসইতে হাত বদল হওয়া ২৪০টি প্রতিষ্ঠানের মধ্যে শেয়ার দর বেড়েছে ৭৭টির, কমেছে ১২৬টির এবং অপরিবর্তিত রয়েছে ৩৭টির দর। সিএসইতে ১০ কোটি ৭২ লাখ টাকার শেয়ার ও ইউনিট লেনদেন হয়েছে। আগের দিনের চেয়ে ৪ কোটি টাকা কম। আগের দিন সিএসইতে লেনদেন হয়েছিল ১৪ কোটি টাকার।

বাংলাদেশ সময়: ১৮১২ ঘণ্টা, জানুয়ারি ০৯, ২০২০
এসএমএকে/ওএইচ/

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa