ঢাকা, শনিবার, ২৪ শ্রাবণ ১৪২৭, ০৮ আগস্ট ২০২০, ১৭ জিলহজ ১৪৪১

কৃষি

উৎপাদন মৌসুমে একই ধরনের ফসল আমদানিতে নিষেধাজ্ঞা আসছে

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২৩৩৫ ঘণ্টা, অক্টোবর ২৩, ২০১৯
উৎপাদন মৌসুমে একই ধরনের ফসল আমদানিতে নিষেধাজ্ঞা আসছে কৃষি সচিব নাসিরুজ্জামান। ছবি: বাংলানিউজ

ঢাকা: সরকার ফসল উৎপাদন মৌসুমে আমদানিকারকদের একই ধরনের ফসল আমদানিতে নিষেধাজ্ঞা দিতে যাচ্ছে বলে জানিয়েছেন কৃষি সচিব নাসিরুজ্জামান। তিনি বলেন, আমরা বাণিজ্য মন্ত্রণালয়কে চিঠি দিয়ে জানিয়ে দেবো কোন মৌসুমে কোন ফসল হয়। তখন যেন বাণিজ্য মন্ত্রণালয় একই ধরনের ফসল বিদেশ থেকে আমদানির অনুমতি না দেয়। তবে, বাজারে ঘাটতি থাকলে পরিস্থিতি বুঝে প্রয়োজনীয় ফসল আমদানির অনুমোদন দেওয়া যাবে।

বুধবার (২৩ অক্টোবর) সচিবালয়ে কৃষি মন্ত্রণালয়ের সম্মেলন কক্ষে দেশের উৎপাদিত শস্য বাজারজাতকরণের জন্য উৎপাদন ও আমদানির সামঞ্জস্যতা নির্ধারণ বিষয়ক সভায় তিনি এসব কথা বলেন।  

কৃষি সচিব বলেন, কৃষকরা উৎপাদন করে বাজারে যে পণ্য নিয়ে আসে, বিদেশ থেকেও সেই পণ্য আমদানি হয়।

এই আমদানির ফলে আমাদের কৃষকরা ক্ষতিগ্রস্ত হয়। তারা ফসল উৎপাদন করে বাজারে এনে দাম কম পায়। একই সঙ্গে সবাই একই পণ্য উৎপাদন করে, ফলে পণ্যের দাম কমে যায়। এজন্য আমরা বাণিজ্য মন্ত্রণালয়কে সঙ্গে নিয়ে এধরনের একটি অবস্থা তৈরি করতে যাচ্ছি, কৃষকের ঘরে যখন ফসল উৎপাদন হবে, তখন যেন আমদানিকারকরা বিদেশ থেকে একই ধরনের ফসল বা পণ্য আমদানি না করে।

তিনি বলেন, কীটনাশকের প্রভাব কীভাবে কমানো যায়, সে বিষয়ে একটা পরিকল্পনা তৈরির চিন্তাভাবনা চলছে। আমরা কয়েকটি পদ্ধতি নিয়ে আলোচনা করেছি। যেমন, উৎপাদন প্রক্রিয়া ও ভোক্তা পর্যায়- এই দু’ভাবে আমরা কাজ করতে চাই। কৃষক যখন কীটনাশক ব্যবহার করবে, তখন তারা যেন কৃষি অফিসারের নির্দেশনা মেনে ব্যবহার করে। তাদের পরামর্শ ছাড়া কোনো ধরনের কীটনাশক যেন ব্যবহার না করা হয়।  

নাসিরুজ্জামান বলেন, আমারা প্রথমে কৃষকদের সচেতনতা বাড়াতে কাজ করবো। পাশাপাশি, আমাদের কৃষি কর্মকর্তাদের বলবো, তারা যেন কৃষকদের এমন কোনো কীটনাশক ব্যবহার করতে পরামর্শ না দেন, যা ফসলের কোনো উপকারে আসে না। একই সঙ্গে অতিরিক্ত ব্যবহার যেন না করা হয়, সে বিষয়ে সচেতনতা বাড়াতে হবে।  

বাংলাদেশ সময়: ১৯৩৫ ঘণ্টা, অক্টোবর ২৩, ২০১৯ 
জিসিজি/একে

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa