php glass

হাঁড়িভাঙা আমে লোকসানে চাষি, লাভ হচ্ছে পাইকারদের

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

হাঁড়িভাঙা আম। ছবি: বাংলানিউজ

walton

নীলফামারী: সারি সারি আমের বাগান। ঘ্রাণে ঘ্রাণে মাতোয়ারা পথঘাট। আমের রঙে ভিন্নতা—ওপরে সবুজ-সজীব। কিন্তু ভেতরে উজ্জ্বল কমলা রঙের আভা। স্বাদে, রসে ও ঘ্রাণে অনন্য। এ আম সবাই চিনে এক নামে ‘হাঁড়িভাঙা’।

হাঁড়িভাঙা এখন পাকতে শুরু করেছে। গাছ থেকে আমচাষিরা নিয়ে যাচ্ছেন বাজার-ঘাটে। হাড়িভাঙার চাহিদা ও বিক্রি অনেক ভালো। কিন্তু বিক্রি করেও অনেক চাষি লোকসান গুনছেন। অন্যদিকে আগাম আমের বাগান কিনে নেওয়ায় লাভবান হচ্ছেন পাইকাররা। এ যেন অনেকটা ‘পরের ধনে পোদ্দারি’র মতো।

হাঁড়িভাঙা আমের বিশাল হাট বসে রংপুরের বদরগঞ্জের পদাগঞ্জে। তবে সৈয়দপুর থেকে লালদীঘি হয়ে বদরগঞ্জ যাওয়ার পথে চোখে পড়ে হাঁড়িভাঙা আমের সারি সারি বাগান। বাগানের থোকায় থোকায় ঝুলে আছে ছোট-বড় অসংখ্য আম। সেখানে সারাক্ষণ পাহারায় রয়েছেন পাইকারদের লোকজন। 

সরেজমিনে বদরগঞ্জের রামনাথপুর ইউনিয়নের বাংলারহাট এলাকায় গিয়ে দেখা যায়, রাজু ও সাগর নামে দুই ভাই প্রায় ২ বিঘা জমিতে হাঁড়িভাঙা আমের চারাগাছ রোপণ করেন বছর দুয়েক আগে। সেখানে ৪১২টির মতো গাছ রয়েছে। প্রতিটি গাছে ২০ কেজি থেকে এক মণের মতো আম ধরেছে।

গাছে আম আসার সঙ্গে সঙ্গে তারা সেটি বিক্রি করেন মাত্র ৪২ হাজার টাকায়। সেই বাগান কিনে নেন হায়দার আলী নামের একজন। তিনি ৮০ হাজার টাকায় বিক্রি করেন পাইকারের কাছে। অন্যদিকে বর্তমানে বাজারে হাঁড়িভাঙা আম রকমভেদে ৬০-৮০ টাকা কেজিতে বিক্রি হচ্ছে। ফলে ওই আম বিক্রি করে পাইকাররা দ্বিগুণের বেশি আয় করছেন।

এ অঞ্চলে হাঁড়িভাঙা গাছ থেকে পাড়া শুরু হয়েছে। ফলে পাইকাররা স্থানীয় বাজারের চাহিদা মিটিয়ে দেশের নানা প্রান্তে পাঠাচ্ছেন। এতে করে আমচাষিরা ক্ষতিগ্রস্ত হলেও লাভবান হচ্ছেন পাইকাররা।

বাংলাদেশ সময়: ০৮০০ ঘণ্টা, জুন ৩০, ২০১৯
এমএমইউ/এসএইচ

ক্লিক করুন, আরো পড়ুন: নীলফামারী
মাদক থেকে শিক্ষার্থীদের দূরে থাকার আহ্বান বিজিবি ডিজির
প্রিয়া সাহার অভিযোগে দেশের ভাবমূর্তি ক্ষুণ্ন হয়েছে
মহাকবি কায়কোবাদের প্রয়াণ
ইতিহাসের এই দিনে

মহাকবি কায়কোবাদের প্রয়াণ

প্রিয়া সাহার অভিযোগ সম্পূর্ণ অসত্য: বিপ্লব বড়ুয়া
ছেলেধরা সন্দেহে নারী হত্যা, ৫০০ জনের বিরুদ্ধে মামলা


জামালপুরে বন্যায় ২ শিশুসহ ৫ জনের মৃত্যু
ব্যাডমিন্টন খেলোয়াড়দের ক্রীড়া সামগ্রী দিলেন তথ্যসচিব
সাভারে ছেলেধরা সন্দেহে গণপিটুনিতে নারীর মৃত্যু
মাছ ধরতে গিয়ে বিদ্যুৎস্পৃষ্ট হয়ে বাবা-দুই ছেলের মৃত্যু
প্রিয়নবী (সা.)-এর শহরের দর্শনীয় ১২টি স্থান