php glass

সিএসআর ব্যয়ের শীর্ষে ইসলামী ব্যাংক

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

...

walton

ঢাকা: সামাজিক দায়বদ্ধতা (সিএসআর) কর্মসূচির আওতায় ২০১৮ সালে সবচেয়ে বেশি অর্থ ব্যয় করেছে বেসরকারি খাতের ইসলামী ব্যাংক বাংলাদেশ লিমিটেড। পরের অবস্থানে রয়েছে ডাচ বাংলা ব্যাংক ও প্রাইম ব্যাংক।

২০১৮ সালে ব্যাংকগুলো মোট ৯০৪ কোটি টাকা ব্যয় করেছে সিএসআর খাতে। সবচেয়ে বেশি ৩৯০ কোটি টাকা ব্যয় হয়েছে শিক্ষাখাতে, তার পরের অবস্থানে দুযোর্গ ব্যবস্থাপনা খাতে ব্যয় হয়েছে ৩৩১ কোটি টাকা।

দেশের ব্যাংকগুলোর সিএসআর ব্যয় নিয়ে বাংলাদেশ ব্যাংক প্রকাশিত প্রতিবেদনে এসব তথ্য পাওয়া গেছে।

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ২০১৮ সালে সবচেয়ে বেশি অর্থ ব্যয় করেছে ইসলামী ব্যাংক। ব্যাংকটির ব্যয়ের পরিমাণ ২৮১ কোটি টাকা। পরের অবস্থানে থাকা ডাচ বাংলা ব্যাংক ব্যয় করেছে ৮৩ কোটি টাকা, প্রাইম ব্যাংক ব্যয় করেছে ৭০ কোটি টাকা। এক্সিম ব্যাংক ৬১ কোটি টাকা ও ন্যাশনাল ব্যাংক ৪৩ কোটি টাকা।

দীর্ঘদিন ধরে ব্যাংকগুলো সিএসআর খাতে অর্থ ব্যয় করলেও মানছে না বাংলাদেশ ব্যাংকের নির্দেশনা। কেন্দ্রীয় ব্যাংক সিএসআর ব্যয়ে মোট অর্থের ৩০ শতাংশ শিক্ষা, ২০ শতাংশ চিকিৎসা খাতে, দুযোর্গ ব্যবস্থাপনা খাতে ১০ শতাংশ ব্যয় করার নির্দেশ দিয়েছে। যদিও ব্যাংকগুলোর সিএসআর কার্যক্রমের অংশ হিসেবে দুযোর্গ ব্যবস্থাপনা খাতে ৩০ দশমিক ২৮ শতাংশ ও স্বাস্থ্য খাতে ১০ দশমিক ৮৬ শতাংশ ব্যয় করেছে। তবে একমাত্র শিক্ষাবৃত্তি ছাড়া ব্যাংকগুলোর অন্য কোনো  সিএসআর কর্মসূচি চোখে পড়ে না।

এ বিষয়ে ব্যাংক এমডিদের সংগঠন অ্যাসোসিয়েশন অব ব্যাংকার্স বাংলাদেশ (এবিবি) চেয়ারম্যান ও ঢাকা ব্যাংকের ব্যবস্থাপনা পরিচালক সৈয়দ মাহবুবুর রহমান বলেন, দেশে দুযোর্গের ঝুঁকি বেশি থাকায় সরকার এই খাতে সহায়তায় আহ্বান জানায়। তবে শিক্ষা ও স্বাস্থ্য খাতেও সিএসআরের অনেক অর্থ ব্যয় করছে ব্যাংকগুলো।

কেন্দ্র্রীয় ব্যাংকের প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, জানুয়ারি-জুন প্রান্তিকে ব্যাংকগুলো সিএসআর খাতে ৬২৭ কোটি টাকা ব্যয় করেছে। এরমধ্যে শিক্ষাখাতে ব্যয় করেছে ২৭২ কোটি টাকা। এরমধ্যে ইসলামী ব্যাংক একাই ব্যয় করেছে ২০৭ কোটি টাকা, ডাচ বাংলা ব্যাংক ২৮ কোটি টাকা।

একই সময়ে দুযোর্গ ব্যবস্থাপনা খাতে ব্যয় হয়েছে ২৪৬ কোটি টাকা। এ খাতে ব্যয়ে ইসলামী ব্যাংক ৬৫ কোটি টাকা, এক্সিম ব্যাংক ২৫ কোটি টাকা ও ন্যাশনাল ব্যাংক ১৮ কোটি টাকা ব্যয় করেছে। বছরের প্রথম ছয়মাসে সংস্কৃতি খাতে ব্যাংকগুলো ব্যয় করেছে মাত্র ১৫ কোটি টাকা।

কেন্দ্রীয় ব্যাংকের প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, জুলাই-ডিসেম্বর প্রান্তিকে ব্যাংকগুলো সিএসআর খাতে ব্যয় করা ২৭৭ কোটি টাকার মধ্যে শিক্ষা খাতে ১০৭ কোটি, দুযোর্গ ব্যবস্থাপনা খাতে ৮৪ কোটি ও স্বাস্থ্য খাতে ৩০ কোটি টাকা ব্যয় করেছে।

এই সময়ে শিক্ষাখাতে প্রাইম ব্যাংক ব্যয় করেছে ৫০ কোটি টাকা, ডাচ বাংলা ব্যাংক ব্যয় করেছে ২৬ কোটি টাকা। দুযোর্গ ব্যবস্থাপনা খাতে এক্সিম ব্যাংক ১৯ কোটি টাকা, ফার্স্ট সিকিউরিটি ইসলামী ব্যাংক ৯ কোটি টাকা ও প্রিমিয়ার ব্যাংক ৭ কোটি টাকা ব্যয় করেছে। সংস্কৃতি খাতে ন্যাশনাল ব্যাংক ১০ কোটি টাকা ব্যয় করেছে।

এ বিষয়ে বাংলাদেশ ব্যাংকের নির্বাহী পরিচালক ও মুখপাত্র সিরাজুল ইসলাম বলেন, সামাজিক দায়বদ্ধতা কর্মসূচির আওতায় অর্থ ব্যয়ের জন্য ব্যাংকগুলোকে খাত উল্লেখ করে বরাদ্দ নির্ধারণ করে দেওয়া হয়েছে। তারপরও অনেক ক্ষেত্রে কেন্দ্রীয় ব্যাংকের নির্দেশনা উপেক্ষিত হওয়া অত্যন্ত দুঃখজনক।

বাংলাদেশ সময়: ১২৫৩ ঘণ্টা, ফেব্রুয়ারি ২০, ২০১৯
এসই/এমজেএফ

মায়ের ওপর অভিমান, রাজধানীতে স্কুলছাত্রীর আত্মহত্যা
নোয়াখালীতে ট্রাক-অটোরিকশা সংঘর্ষে প্রাণ গেলো দু’জনের
প্রণব মুখার্জি-খান আতার জন্ম
খালেদার মুক্তির জন্য স্বেচ্ছায় কারাভোগে রাজি ফেনী বিএনপি
‘মাথাপিছু আয় ৬০০০ ডলারের আগেই সবার কাছে গাড়ি থাকবে’


দলের জন্য সবটুকু অভিজ্ঞতা ঢেলে দেবেন গিবস
কর দিতে হয়রানি হলে তাৎক্ষণিক ব্যবস্থা: অর্থমন্ত্রী
মিয়ানমারে গণহত্যার বিচার শুরু, সন্তুষ্ট রোহিঙ্গারা
বিশ্বসভ্যতার ইতিহাসই মানবাধিকার অর্জনের ইতিহাস
প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে নানা আয়োজন সিএমপির