ফেব্রুয়ারিকে ঘিরে ব্যস্ত পঞ্চগড়ের ফুলচাষিরা

সোহাগ হায়দার, ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

ফুলের বাগান

walton

পঞ্চগড়: ‘ফেব্রুয়ারি’ বাঙ্গালি জাতির গর্বের ও ভাষার মাস। জাতীয় শহীদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবসসহ (২১শে ফেব্রুয়ারি) বিভিন্ন দিবস উপলক্ষে এখন ব্যস্ত হয়ে পড়েছে পঞ্চগড় জেলার ফুলচাষি ও বিক্রেতারা।

ফেব্রুয়ারি মাসে বাজারে বিভিন্ন ধরনের ফুলের চাহিদা মাথায় রেখে পরিচর্যার পাশাপাশি পুরোদমে ব্যস্ত সময় পার করছেন দেশের সর্ব উত্তরের প্রান্তিক জেলা পঞ্চগড়ের ফুলচাষিরা। 

স্থানীয় ফুলচাষি ও বিক্রেতাদের সঙ্গে কথা বলে জানা যায়, জাতীয় শহীদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবসকে ঘিরে পুরোদমে ব্যস্ত সময় পার করছেন তারা। শুধু তাই নয় ফেব্রুয়ারি মাসে ২১শে ফেব্রুয়ারির পাশাপাশি ১৩ ফেব্রুয়ারি ‘পহেলা ফাল্গুন’ ও ১৪ ফেব্রুয়ারি ‘বিশ্ব ভালোবাসা দিবস’ হওয়ায় অন্য সময়ের তুলনায় এ মাসে প্রচুর ফুলের চাহিদা থাকে।

সরেজমিনে জেলার বিভিন্ন এলাকা ঘুরে দেখা যায়, ফুল ও ফুলের বাগার পরিচর্যায় ব্যস্ত সময় পার করছেন ফুলচাষিরা। ‘মরিয়ম নার্সারি’র স্বত্বাধিকারী আবুল কালাম আজাদ বাংলানিউজকে বলেন, ফেব্রুয়ারি মাসের তিনটি দিবসে গোলাপ, গ্ল্যাডিওলাস, গাঁদাসহ বিভিন্ন জাতের ফুলের অনেক চাহিদা বেড়ে যায়। তাই ফেব্রুয়ারি মাস মাথায় রেখে চাহিদা মতো ফুল সরবরাহ করতে এখন জমি পরিচর্যায় ব্যস্ত সময় পার করছি।

জমি পরিচর্যা কর্মী সোনিয়া বাংলানিউজকে বলেন, কম পরিশ্রমে ফুলের জমিতে কাজ করতে আমাদের অনেক ভালো লাগে। আর মাত্র কয়েকদিন, তাই ভালোভাবে পরিচর্যা করছি ফুল ও বাগানের। এ বছর আগাম ফুল আসায় নির্বাচনের সময় অনেক ফুল বেচাবিক্রি হয়েছে। আশা করছি, আগামী তিনটি দিবসে প্রচুর পরিমাণ ফুল বিক্রি হবে।

ফুল বিক্রেতা লিমা বাংলানিউজকে বলেন, জেলায় তেমনভাবে ফুলচাষ না হওয়ায় আমরা পঞ্চগড়ের বাইরে থেকে ফুল এনে বিক্রি করছি। বিভিন্ন দিবস ছাড়া তেমন ফুলের চাহিদা থাকে না। আশা করছি ফেব্রুয়ারি মাসের তিনটি দিবসে ফুল বিক্রি করে ভালো আয় করা যাবে।

পঞ্চগড় জেলা কৃষি অধিদফতরের ভারপ্রাপ্ত উপ-পরিচালক ও প্রশিক্ষক আবু হোসেন বাংলানিউজকে বলেন, পঞ্চগড় জেলায় তেমনভাবে ফুলচাষ হয় না। তবে যে কয়েক জায়গায় ফুলচাষ করা হচ্ছে, তা চাষিরা নিজ উদ্যোগে করছেন। তাতে চাহিদা পূরণ না হওয়ায় জেলার বাইরে থেকে ফুল কিনে নিয়ে এসে বিক্রি করা হচ্ছে।

পঞ্চগড়ে ফুলচাষ বৃদ্ধি ও ফুলচাষের ওপর কৃষকদের আকৃষ্ট করতে কৃষি অধিদফতরের পক্ষ থেকে বিভিন্ন সহযোগিতা দেওয়া হচ্ছে বলেও জানান এ কৃষি কর্মকর্তা।

এদিকে ১৩ ফেব্রুয়ারি পহেলা ফাল্গুন, ১৪ ফেব্রুয়ারি বিশ্ব ভালোবাসা দিবস ও ২১ ফেব্রুয়ারি আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস উপলক্ষে এবারও ফুল বিক্রি করে ভালো আয়ের স্বপ্ন দেখছেন জেলার সব ফুলচাষিসহ বিক্রেতারা।

বাংলাদেশ সময়: ১৬৩০ ঘণ্টা, ফেব্রুয়ারি ০৭, ২০১৯
জিপি

ক্লিক করুন, আরো পড়ুন: পঞ্চগড় কৃষি
চৌগাছায় সড়ক দুর্ঘটনায় স্কুলছাত্র নিহত
রাঙামাটি জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি-সম্পাদককে অবাঞ্চিত ঘোষণা
সাঙ্গ হলো সাগরদাঁড়ির ৭ দিনের মধুমেলা 
আবারও শাবিপ্রবি অফিসার্স অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি মোর্শেদ
ঢাকার ভোটে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে ব্যবস্থা নেবে সেনা


অচিন্ত্যকুমার সেনগুপ্তের প্রয়াণ
প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের মহাপরিচালক হলেন মুনীরা সুলতানা
ফের বাংলা একাডেমির সভাপতি আনিসুজ্জামান
ঢাকার পিতা নির্বাচনে প্রভাব ফেলবে নারী-তরুণ ভোটার
শুরু হলো ৪৪তম কলকাতা আন্তর্জাতিক বইমেলা