শেয়ার ও মিউচ্যুয়াল ফান্ড ইউনিটের ফেসভ্যালু ১০ টাকা করার সিদ্ধান্ত

| বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

walton

পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত সকল কোম্পানির শেয়ার ও মিউচ্যুয়াল ফান্ডের ইউনিটের অভিহিত মূল্য (ফেসভ্যালু) ১০ টাকা করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশন (এসইসি)।

ঢাকা: পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত সকল কোম্পানির শেয়ার ও মিউচ্যুয়াল ফান্ডের ইউনিটের অভিহিত মূল্য (ফেসভ্যালু) ১০ টাকা করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশন (এসইসি)।

আগামী ১ ডিসেম্বরের মধ্যে এ নির্দেশ কার্যকর করতে হবে।

এ সময়ের মধ্যে যেসব কোম্পানি ও মিউচ্যুয়াল ফান্ড এ নির্দেশ কার্যকর করবে না, সেগুলোর লেনদেন স্থগিত করা হবে।

অভিহিত মূল্য পরিবর্তনের জন্য বর্তমানে ১০০ টাকা ও ১ টাকা মূল্যের সকল কোম্পানি ও মিউচ্যুয়াল ফান্ডের জন্য আগামী ৩০ নভেম্বরকে অভিন্ন রেকর্ডের তারিখ নির্ধারণ করা হয়েছে।  

খুব শিগগিরই এ বিষয়ে একটি প্রজ্ঞাপন জারি করবেন বলে জানিয়েছেন এসইসির নির্বাহী পরিচালক সাইফুর রহমান।

মঙ্গলবার  এসইসির ৩৯৬তম কমিশন সভা শেষে তিনি সাংবাদিকদের এ তথ্য জানান।

কমিশন সভা শেষে এসইসির মুখপাত্রের দায়িত্বপ্রাপ্ত নির্বাহী পরিচালক সাইফুর রহমান সাংবাদিকদের জানান, বর্তমানে ১০০ টাকা ও ১ টাকা অভিহিত মূল্যের সকল শেয়ারের অভিহিত মূল্য আগামী ১ ডিসেম্বর থেকে ১০ টাকায় রূপান্তরিত হবে।

কমিশনের এই সিদ্ধান্ত কোন কোম্পানির মূল্য সংবেদনশীল তথ্য হিসেবে বিবেচিত হবে না।

এখন থেকে পুঁজিবাজারে নতুন তালিকাভুক্ত কোম্পানির ক্ষেত্রেও শেয়ারের অভিহিত মূল্য ১০ টাকা হবে।

এ বিষয়ে কমিশন গিগগিরই একটি প্রজ্ঞাপন জারি করবে।

এর ভিত্তিতে কোম্পানিগুলোকে অভিহিত মূল্য পরিবর্তনের আনুষ্ঠানিক কার্যক্রম শুরু করতে হবে।

অভিহিত মূল্য পরিবর্তনকে ঘিরে গত কিছু দিন ধরে শেয়ারবাজারে নানা ধরনের নেতিবাচক প্রবণতা শুরু হয়।

অভিহিত মূল্য পরিবর্তনের ফলে কোম্পানির মৌলভিত্তিতে কোন প্রভাব না পড়লেও একের পর এক কোম্পানি এই সুযোগ গ্রহণ করতে থাকে।

এর ফলে বাজারে শেয়ার দরে ব্যাপক প্রভাব পড়ে।

শেয়ারবাজারের অতি মূল্যায়নের পেছনে এই ইস্যুটিও গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রেখেছে বলে বিশ্লেষকরা মনে করেন।

গত ডিসেম্বরের দ্বিতীয় সপ্তাহ থেকে শেয়ারবাজারে বড় ধরনের বিপর্যয় নেমে আসার পর অন্য অনেক বিষয়ের সঙ্গে অভিহিত মূল্য পরিবর্তনের প্রবণতাও ব্যাপকভাবে সমালোচিত হয়।

এর পরিপ্রেক্ষিতেই চলতি বছরের ২ মার্চ পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত কোম্পানির শেয়ারের অভিহিত মূল্য পরিবর্তনের সকল কার্যক্রম স্থগিত করে দেয়।

পুঁজিবাজারে বিপর্যয়ের কারণ অনুসন্ধানে খোন্দকার ইব্রাহিম খালেদের নেতৃত্বে গঠিত তদন্ত কমিটির প্রতিবেদনে তালিকাভুক্ত সকল কোম্পানির শেয়ারের অভিন্ন (ইউনিফর্ম) অভিহিত মূল্য নির্ধারণের সুপারিশ করা হয়।

তদন্ত প্রতিবেদন প্রকাশ করে অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত এসইসি পুনর্গঠনের এক মাস পর স্বল্পমেয়াদে যেসব পদক্ষেপ গ্রহণের ঘোষণা দিয়েছিলেন তার মধ্যে স্টেক হোল্ডারদের সঙ্গে আলোচনা করে শেয়ারের ফেসভ্যালু ইউনিফর্ম করার বিষয়টিও ছিল।

প্রয়োজনীয় প্রক্রিয়া শেষে মঙ্গলবার অনুষ্ঠিত কমিশন সভায় সকল শেয়ারের অভিহিত মূল্য ১০ টাকয় রূপান্তরের সময়সীমা নির্ধারণ করা হয়।

বাংলাদেশ সময়: ১৭৫৬ ঘণ্টা, আগস্ট ২৩, ২০১১

স্বাস্থ্যবিধি মানছেন না পরিচ্ছন্নতা কর্মীরা
পত্নীতলায় সড়ক দুর্ঘটনায় ২ ভাইয়ের মৃত্যু
দৌলতদিয়া ঘাটে বাড়ছে যাত্রীদের চাপ
ফতুল্লায় করোনা আক্রান্ত হয়ে আ’লীগ নেতার মৃত্যু
ঠাকুরগাঁওয়ে প্রথম করোনার উপসর্গ নিয়ে এক যুবকের মৃত্যু


চাষিদের স্বপ্ন হাঁড়িভাঙা আমে
নীলফামারীতে অতিবৃষ্টির কারণে ধান নিয়ে বিপাকে কৃষক
কিশোরগঞ্জে করোনা উপসর্গ নিয়ে এক ব্যক্তির মৃত্যু
ফরিদপুরে করোনায় আরও একজনের মৃত্যু
মিষ্টি কুমড়ার ভেতরে মিললো ১৯ কেজি গাঁজা!