ঢাকা, বুধবার, ১৫ আশ্বিন ১৪২৭, ৩০ সেপ্টেম্বর ২০২০, ১১ সফর ১৪৪২

চট্টগ্রাম প্রতিদিন

অবশেষে ইতি টানলো ‘করোনা আইসোলেশন সেন্টার’

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২১৩২ ঘণ্টা, সেপ্টেম্বর ১৫, ২০২০
অবশেষে ইতি টানলো ‘করোনা আইসোলেশন সেন্টার’ ইতি টানলো ‘করোনা আইসোলেশন সেন্টার’

চট্টগ্রাম: করোনা পরিস্থিতিতে যখন মুখ ফিরিয়ে নিয়ে ছিল বেসরকারি হাসপাতাল। অসুস্থ রোগীদের আত্মচিৎকারে যখন ভারি হয়ে ওঠে হাসপাতলের বাতাস।

তখন সাহস করে রোগীদের পাশে দাঁড়িয়ে ছিলেন কিছু তরুণ। মাত্র তিন মাসেই আস্থা অর্জন করেছিলেন জনসাধারণের।  

গল্পটি করোনাকালীন সময়ে চালু হওয়া ‘করোনা আইসোলেশন সেন্টার চট্টগ্রাম’র। প্রতিষ্ঠানটি দীর্ঘ তিন মাসের পথচলা শেষে অবশেষে ইতি টানলেন মঙ্গলবার। চিকিৎসকদের সেবায় ও আয়োজকদের সম্মিলিত প্রচেষ্টায় আইসোলেশন সেন্টারটি থেকে সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছেন ৭৬৫ জন।  

মঙ্গলবার (১৫ সেপ্টেম্বর) করোনা আইসোলেশন সেন্টার চট্টগ্রামের সমাপনী অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়। এতে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন চট্টগ্রামের অতিরিক্ত বিভাগীয় কমিশনার মিজানুর রহমান। বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন চট্টগ্রামের বিভাগীয় স্বাস্থ্য পরিচালক ডা. হাসান শাহরিয়ার কবির, স্বাচিপের সাংগঠনিক সম্পাদক আ ম ম মিনহাজুর রহমান, আইএমএস গ্রুপের চেয়ারম্যান আবুল বশর আবু, মহানগর আওয়ামী লীগের আইন বিষয়ক সম্পাদক শেখ ইফতেখার সাইমুল চৌধুরী, হালিশহর থানার অফিসার ইনচার্জ রফিকুল ইসলাম।

সমাপনী অনুষ্ঠানে বক্তারা বলেন, এই আইসোলেশন সেন্টারটি দীর্ঘ তিন মাস সফলতার সঙ্গে কাজ করেছে। এই সফলতা আমাদের একটি শিক্ষা দিয়ে যাচ্ছে। আমি আশা করবো এ শিক্ষা স্বাস্থ্য বিভাগে গুণগতমান রক্ষায় কাজে আসবে। করোনাকালের শুরুতে প্রতিদিন ক্রমবর্ধমান রোগীর চাপ সামালাতে যখন চট্টগ্রামের সরকারি হাসপাতালগুলো মানুষের আহাজারিতে ভরে উঠেছিল। তখন সেই দুর্বিসহ আঁধারকালে করোনা আইসোলেশন সেন্টার বেসরকারি স্বাস্থ্যসেবায় আলো হাতে পথ দেখিয়েছে। তারা প্রমাণ করেছেন শুধু মানুষের জন্য কিছু করার অদম্য ইচ্ছাকে পুঁজি করে কোন পূর্ব প্রশিক্ষণ ছাড়াই কিভাবে স্বাস্থ্যসেবায় মানুষের পাশে থাকা যায়।

আইসোলেশন সেন্টারের প্রধান উদ্যোক্তা সাজ্জাদ হোসেনের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠান পরিচালনা করেন প্রধান সমন্বয়ক নুরুল আজিম রনি। এসময় আইসোলেশন সেন্টারের অনুদান ও আয় ব্যয়ের হিসাব তুলে ধরেন মূখপাত্র জিনাত সোহানা চৌধুরী।  

এতে আরও বক্তব্য রাখেন, নাজিমুদ্দিন শিমুল, গোলাম সামদানি জনি, জাওইদ চৌধুরী, নুরুজ্জামান, সাদ শাহরিয়ার, সুমন চৌধুরী, মিজানুর রহমান, ডা. খন্দকার এনামুল নাইম।  

বাংলাদেশ সময়: ২১২৯ ঘণ্টা, সেপ্টেম্বর ১৫, ২০২০
এমএম/এসকে/টিসি

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa