চট্টগ্রামে ঈদের আগে খুলছে না বেশিরভাগ শপিং সেন্টার

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

ছবি: বাংলানিউজ

walton

চট্টগ্রাম: করোনাভাইরাস সংক্রমণ রোধে নগরের বেশিরভাগ শপিং সেন্টার (মার্কেট) ঈদের আগে না খোলার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন ব্যবসায়ী সমিতিগুলো।

শুক্রবার (৮ মে) বিকেলে নগরের বিভিন্ন শপিং সেন্টারের দোকান মালিক সমিতি এবং ব্যবসায়ী সমিতির সম্মিলিত বৈঠকে এ সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়। 

সম্মিলিত সিদ্ধান্তের প্রেক্ষিতে ঈদ উপলক্ষে রোববার (১০ মে) থেকে দোকান বা মার্কেট খোলার অনুমতি থাকলেও জনস্বার্থে ব্যবসায়ীরা মার্কেট বা শপিং মল খুলবেন না।

জিইসির সানমার ওশান সিটি ও নাসিরাবাদের ফিনলে স্কয়ার দোকান মালিক সমিতির সভাপতি আসাদ ইফতেখার বাংলানিউজকে জানান, শুক্রবার বিভিন্ন মার্কেট ও শপিং মল ব্যবসায়ী সমিতির নেতারা সম্মিলিত বৈঠকে ঈদের আগে ৯টি শপিং সেন্টার ও মার্কেট বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন। এগুলো হচ্ছে- সানমার ওশান সিটি, মিমি সুপার মার্কেট, ফিনলে স্কয়ার, আফমি প্লাজা, চিটাগাং শপিং কমপ্লেক্স, কল্লোল সুপার মার্কেট, আমিন সেন্টার, সেন্ট্রাল প্লাজা, খুলশী কনকর্ড টাউন সেন্টার। 

শনিবার (১১ মে) বিপণি বিতান বা নিউ মার্কেট, আখতারুজ্জামান সেন্টার, ইউনেস্কো সিটি সেন্টার, সিঙ্গাপুর-ব্যাংকক মার্কেট ও লাকি প্লাজার বিষয়ে সিদ্ধান্ত হবে।

তিনি বলেন, প্রথমত আমাদের প্রস্তুতি নেই। দ্বিতীয়ত করোনা প্রতিরোধে সামাজিক দূরত্ব বা স্বাস্থ্য সুরক্ষা ঈদ বাজারে মেনে চলা অসম্ভব। নিজেদের ও কর্মীদের জীবন, সামাজিক দায়বদ্ধতা থেকে এ সিদ্ধান্ত নিয়েছি আমরা।

এদিকে বাংলাদেশ দোকান মালিক সমিতি চট্টগ্রাম শাখার সভাপতি সালেহ আহমদ সোলেমান বাংলানিউজকে বলেন, শুক্রবার বিভিন্ন  মার্কেটের মালিক সমিতির সঙ্গে বৈঠক হয়েছে। বৈঠকে ৩১ মে পর্যন্ত দোকান বন্ধ রাখার সিদ্ধান্তে সবাই একমত হয়েছেন। তবে এখনো টেরিবাজার, রিয়াজউদ্দিন বাজার-তামাকুমণ্ডি লেইনসহ আরও কয়েকটি মার্কেটের দোকান মালিকদের সঙ্গে আলোচনা হয়নি। তাদের সঙ্গে আলাদা বৈঠকে পরবর্তী সিদ্ধান্ত জানা যাবে।

মিমি সুপার মার্কেট ব্যবসায়ী সমিতির সভাপতি মোহাম্মদ জাকির হোসেনের সভাপতিত্বে সভায় উপস্থিত ছিলেন- স্যানমার ওশান সিটি ওনার্স অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি আসাদ ইফতেখার, সাধারণ সম্পাদক মো. হাসান, চিটাগাং শপিং কমপ্লেক্স ব্যবসায়ী সমিতির সভাপতি শহিদুল আলম চৌধুরী, সাধারণ সম্পাদক গোলাম মোস্তফা, ফিনলে স্কয়ারের সাধারণ সম্পাদক মো. জুয়েল, সেন্ট্রাল প্লাজার সভাপতি মোস্তাক আহমদ চৌধুরী, সিনিয়র সহ-সভাপতি মো. আকতার খান, আমিন সেন্টারের সভাপতি সাহেদ আলী, সাধারণ সম্পাদক সাহেদুল আলম, আফমী প্লাজার পরিচালক স্বপন মুহুরী, কায়সার মো. ইব্রাহিম, আখতারুজ্জামান সেন্টারের সভাপতি আজিজুল আজিজুল হক, সিনিয়র সহ-সভাপতি ইকবাল হোসেন, সাধারণ সম্পাদক শরীফ চৌধুরী, সিঙ্গাপুর ব্যাংকক মার্কেটের নুরুল আলম, নাজিম উদ্দিন, কল্লোল সুপার মার্কেটের সহ-সভাপতি হুমায়ুন কবির, মিমি সুপারের সাধারণ সম্পাদক একেএম আবদুল হান্নান আকবর, সহ-সভাপতি দিলীপ কুমার ধর প্রমুখ।

বিপণি বিতান, লাকি প্লাজাও খুলবে না ঈদের আগে

এছাড়া নগরের রিয়াজউদ্দিন বাজার সংলগ্ন বিপণি বিতান (নিউ মার্কেট) ঈদের আগে না খোলার সিদ্ধান্ত হয়েছে।

সন্ধ্যায় বিপণি বিতানের তত্ত্বাবধায়ক পরিষদের আহ্বায়ক সমাজসেবা অধিদফতরের উপ-পরিচালক হাসান মাসুদ বাংলানিউজকে বন্ধ রাখার বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

তিনি বলেন, আমরা অনলাইনে বিপণি বিতান তত্ত্বাবধায়ক পরিষদের সঙ্গে কথা বলে ঈদের আগে না খোলার সিদ্ধান্ত নিয়েছি। ইতিমধ্যে নগরের বড় বড় সব শপিং সেন্টার বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত মিডিয়ায় এসেছে। তারই ধারাবাহিকতায় আমরাও বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত নিয়েছি। ইতিমধ্যে চট্টগ্রামে করোনা শনাক্তের হার বাড়ায় জনমনে উদ্বেগ দেখা দিয়েছে।

'প্রজন্মধারা বিপণি বিতান' সংগঠনের মুখপাত্র শারুদ নিজাম বাংলানিউজকে বলেন, তত্ত্বাবধায়ক পরিষদের আহ্বায়ক বন্ধের বিষয়টি জানিয়ে দিয়েছেন। সবার আগে করোনা প্রতিরোধ এবং নিজের, সহকর্মী ও পরিবারের সদস্যদের জীবন বাঁচানো।

এদিকে মিমি সুপার মার্কেট ব্যবসায়ী সমিতির সভাপতি মোহাম্মদ জাকির হোসেন বাংলানিউজকে জানান, আগ্রাবাদের লাকী প্লাজা, জুবিলি রোডের আমতলী মোড়ের শাহ আমানত সিটি করপপোরেশন সুপার মার্কেটও ঈদের আগে না খোলার সিদ্ধান্ত হয়েছে।

বাংলাদেশ সময়: ১৮৫০ ঘণ্টা, মে ০৮, ২০২০
এআর/টিসি

Nagad
সৌদি থেকে ফিরলেন আটকে পড়া ৪১৮ বাংলাদেশি
সিলেট জেলাতেই আক্রান্ত ৩ হাজার ছাড়াল
খুলনার তেরখাদায় সন্ত্রাসী জিলু মুন্সি গ্রেফতার
ডাকাতি মামলায় দীর্ঘদিন পলাতক, অবশেষে গ্রেফতার
পদ্মায় নৌকা ডুবি: সংসারে আর রইল না কেউ উপার্জনের


ইয়াবা আনতে ঢাকা থেকে ট্রাক যায় কক্সবাজার
সবুজ গালিচায় ঢাবি
ঘরোয়া খেলাধুলা চালু করতে চান ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী রাসেল
আমদানি-রফতানি পণ্যের মান পরীক্ষার ল্যাবে চুরি
খুবির শিক্ষক শামীম আখতার আর নেই