ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২২ শ্রাবণ ১৪২৭, ০৬ আগস্ট ২০২০, ১৫ জিলহজ ১৪৪১

চট্টগ্রাম প্রতিদিন

চসিককে ৩০ কোটি ৫৫ লাখ টাকা দিলো বন্দর কর্তৃপক্ষ

| বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২২৪১ ঘণ্টা, সেপ্টেম্বর ২৭, ২০১৯
চসিককে ৩০ কোটি ৫৫ লাখ টাকা দিলো বন্দর কর্তৃপক্ষ বন্দরের প্রধান অর্থ ও হিসাবরক্ষণ কর্মকর্তা মো. হাবিবুর রহমান চেক তুলে দেন চসিকের কর কর্মকর্তার হাতে

চট্টগ্রাম: সিটি করপোরেশনের হোল্ডিং ট্যাক্স বাবদ এবার ৩০ কোটি ৫৫ লাখ টাকার চেক দিয়েছে চট্টগ্রাম বন্দর কর্তৃপক্ষ।

বৃহস্পতিবার (২৬ সেপ্টেম্বর) বন্দরের প্রধান অর্থ ও হিসাবরক্ষণ কর্মকর্তা মো. হাবিবুর রহমান বন্দর ভবনে চেকটি হস্তান্তর করেন।

মেয়র আ জ ম নাছির উদ্দীনের পক্ষে চেকটি গ্রহণ করেন চসিকের রাজস্ব সার্কেল-৮ এর কর কর্মকর্তা মো. সারেক উল্লাহ।

এ সময় চসিকের উপ-কর কর্মকর্তা মো. হাসান আহমেদসহ অন্যরা উপস্থিত ছিলেন।

বন্দর কর্তৃপক্ষ সূত্রে জানা গেছে, ২০০২-০৩ অর্থবছরে চসিকের পৌরকরের ধার্য করা হয় ১৫ কোটি টাকা। কিন্তু পরিশোধ করা হয়েছিল ৭ কোটি। এরপর ২ অর্থবছরে ৭ কোটি করে, ৩ অর্থবছরে ১০ কোটি করে এবং ২০০৮-০৯ অর্থবছরে ২ কিস্তিতে ৩৬ কোটি, পরের ৩ বছর ২৪ কোটি টাকা করে, ২০১২-১৩ অর্থবছরে আগের বকেয়াসহ ১১৪ কোটি টাকা, ২০১৩-১৪ অর্থবছর থেকে ৩ অর্থবছর রিবেট বাদে ৩৫ কোটি ৫৫ লাখ টাকা মিলে মোট ৩৭৯ কোটি ৬৭ লাখ টাকা পরিশোধ করা হয়। এরপর থেকে প্রতিবছর নিয়মিত হোল্ডিং ট্যাক্স পরিশোধ করে আসছে বন্দর কর্তৃপক্ষ।   

মো. হাবিবুর রহমান বাংলানিউজকে জানান, ৩০ সেপ্টেম্বরের মধ্যে সিটি করপোরেশনের হোল্ডিং ট্যাক্স পরিশোধ করলে ১২ শতাংশ রিবেট পাওয়া যায়। তাই আমরা নির্ধারিত সময়ের মধ্যেই চেক দিয়েছি।

বাংলাদেশ সময়: ১৮৩৪ ঘণ্টা, সেপ্টেম্বর ২৭, ২০১৯
এআর/টিসি

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa