php glass

জামায়াত নেতার জানাজা ঘিরে উত্তপ্ত চট্টগ্রাম কলেজ

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

জামায়াত নেতার জানাজা ঘিরে উত্তপ্ত চট্টগ্রাম কলেজ। ছবি: উজ্জ্বল ধর

walton

চট্টগ্রাম: চট্টগ্রাম কলেজ মাঠে (প্যারেড ময়দান) জামায়াতে ইসলামীর কেন্দ্রীয় কর্মপরিষদ সদস্য মুমিনুল হক চৌধুরীর জানাজাকে ঘিরে ব্যাপক বিক্ষোভ করেছে কলেজ ছাত্রলীগ।

শনিবার (২২ জুন) দুপুরে জানাজার প্রস্তুতি শুরু হলে কলেজ ক্যাম্পাস থেকে মিছিল নিয়ে প্যারেড ময়দানের দিকে যান ছাত্রলীগ নেতা-কর্মীরা। তবে কলেজ ছাত্রলীগ সভাপতি মাহমুদুল করিম ও সাধারণ সম্পাদক সুভাষ মল্লিকের নেতৃত্বে বের হওয়া এ মিছিল প্যারেড ময়দানে ঢুকতে দেয়নি পুলিশ।

প্যারেড ময়দানে মারমুখী জামায়াত-শিবিরের নেতা-কর্মীরা। ছবি: উজ্জ্বল ধর

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, শুক্রবার (২১ জুন) রাতে নগরের একটি বেসরকারি হাসপাতালে মৃত্যুবরণ করা জামায়াত নেতা মুমিনুল হক চৌধুরীর জানাজা শনিবার জোহরের নামাজের পর প্যারেড ময়দানে আয়োজনের সিদ্ধান্ত নেন তার পরিবারের সদস্যরা। কিন্তু জানাজায় জামায়াত-শিবিরের বিপুল সংখ্যক নেতা-কর্মী অংশ নিতে প্যারেড ময়দানে এলে কলেজ ক্যাম্পাসে বিক্ষোভ শুরু করে ছাত্রলীগ।

ছাত্রলীগের বিক্ষোভ মিছিল শেরে বাংলা হোস্টেলের সামনে এলে দুপক্ষের মধ্যে ইট-পাটকেল নিক্ষেপ ও উত্তপ্ত বাক্যবিনিময় চলে। এসময় আহত হন কয়েকজন। পরে পুলিশ গিয়ে দুই পক্ষের মধ্যে অবস্থান নেয়। পুলিশী হস্তক্ষেপে পরিস্থিতি কিছুটা শান্ত হলে জানাজা অনুষ্ঠিত হয়।

ছাত্রলীগ নেতা-কর্মীদের বিক্ষোভ। ছবি: উজ্জ্বল ধর

চকবাজার থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) নিজাম উদ্দিন বাংলানিউজকে জানান, সংসদ সদস্য আবু রেজা নদভীর শ্বশুর জামায়াত নেতা মুমিনুল হক চৌধুরীর জানাজাকে কেন্দ্র করে কলেজ ক্যাম্পাস থেকে বিক্ষোভ মিছিল নিয়ে প্যারেড ময়দানের দিকে যাওয়ার চেষ্টা করে ছাত্রলীগ নেতা-কর্মীরা। এ সময় জানাজায় আসা জামায়াত-শিবির নেতা-কর্মীদের সঙ্গে তাদের কথা কাটাকাটিও হয়।

তিনি বলেন, বিশৃঙ্খল পরিস্থিতি এড়াতে পুলিশ দুই পক্ষের মাঝখানে অবস্থান নেয়। ছাত্রলীগ নেতা-কর্মীদের শেরে বাংলা হোস্টেলের সামনে এবং জানাজায় আসা জামায়াত-শিবির নেতা-কর্মীদের প্যারেড ময়দানে ব্যারিকেডে রেখে জানাজা শেষ করা হয়।

‘জানাজা শেষে জামায়াত-শিবির নেতা-কর্মীরা চলে গেছে। এখন পরিস্থিতি শান্ত রয়েছে’ বলেন এ পুলিশ কর্মকর্তা।

শিবির কর্মীকে মারধর করছেন ছাত্রলীগ কর্মীরা। ছবি: উজ্জ্বল ধর

চট্টগ্রাম কলেজ ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক সুভাষ মল্লিক বাংলানিউজকে জানান, চট্টগ্রাম কলেজ মাঠে একজন জামায়াত নেতার জানাজা পড়াতে অনুমতি দিয়েছে প্রশাসন। কিন্তু এ বিষয়ে কলেজ ছাত্রলীগকে কিছুই জানানো হয়নি। এর সুযোগ নিয়ে জামায়াত-শিবিরের নেতা-কর্মীরা কলেজ দখলের চেষ্টা চালায়। ছাত্রলীগ নেতা-কর্মীরা তাদের প্রতিহত করে।

তিনি বলেন, চট্টগ্রাম কলেজ এখন প্রগতির তীর্থস্থান। এ কলেজকে ঘিরে জামায়াত-শিবিরের কোনো ষড়যন্ত্র মেনে নেবো না আমরা। সব নেতা-কর্মীকে সঙ্গে নিয়ে স্বাধীনতা বিরোধীদের প্রতিহত করা হবে। যারা জানাজায় এসে ছাত্রলীগ নেতা-কর্মীদের ওপর হামলা চালিয়েছে, আহত করেছে তাদের দ্রুত গ্রেফতার করতে হবে।

বাংলাদেশ সময়: ১৪৫৩ ঘণ্টা, জুন ২২, ২০১৯
এমআর/এসি/টিসি

ক্লিক করুন, আরো পড়ুন: চট্টগ্রাম ছাত্রলীগ পুলিশ
মহাসড়কে পশুর হাট বসতে না দিতে ডিসিদের নির্দেশনা
খালেদা জিয়ার ১১ মামলার শুনানি ফের পেছালো
জিপিএ-৫ ও পাসের হারে এগিয়ে মেয়েরা
শাহবাগ ছেড়েছেন আন্দোলনকারীরা
মৎস্য সম্পদে ঘাটতি নয়, উদ্বৃত্ত থাকবে: খসরু


দালাইলামার জন্মদিন: ভারতে ঢুকে শাসিয়ে গেলো চীনা সৈন্যরা
 মেসি ফুটবলের আদর্শ: গ্রিজম্যান
গণতন্ত্র পুনরুদ্ধারে খালেদার মুক্তির বিকল্প নেই
তীব্র স্রোতে ফেরি চলাচলে বাধা
‘গণমাধ্যমের সমস্যা সমাধানে কাজ করছে সরকার’