php glass

দেশের সমৃদ্ধির জন্য মাদক ও জঙ্গিবাদ রুখতে হবে

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

বক্তব্য দেন মেয়র আ জ ম নাছির উদ্দীন

walton

চট্টগ্রাম: দেশের সমৃদ্ধি বজায় রাখতে মাদক ও জঙ্গিবাদ রুখতে হবে মন্তব্য করে চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশনের (চসিক) মেয়র আ জ ম নাছির উদ্দীন বলেছেন, তরুণদের ধ্বংস করছে মাদক, বিপথগামী করছে জঙ্গিবাদ। এভাবে আগামী প্রজন্ম ধ্বংস হতে থাকলে দেশের উন্নয়নে বড় শূন্যতা সৃষ্টি হবে।

রোববার (১০ মার্চ) সকালে উত্তর মধ্যম হালিশহর ওয়ার্ডের উদ্যোগে আয়োজিত সন্ত্রাস, মাদক, জঙ্গিবাদ ও দুনীতিবিরোধী সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্যে মেয়র এসব কথা বলেন।

কাউন্সিলর শফিউল আলমের সভাপতিত্বে সমাবেশে চসিক আইনশৃঙ্খলা স্ট্যান্ডিং কমিটির সভাপতি কাউন্সিলর এইচএম সোহেল, কাউন্সিলর আফরোজা কালাম, নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট আফিয়া আকতার, স্পেশাল জজ জাহানারা ফেরদৌস ও মাদকদ্রব্য অধিদফতরের সহকারী পরিচালক এমদাদুল ইসলাম বিশেষ অতিথি ছিলেন।

বক্তব্য দেন হোসেন মুরাদ, এমএ মান্নান, এমএ বকর, সৈয়্যদ এনামুল হক মুনিরী, মুক্তিযোদ্ধা মোহাম্মদ আলী, মুসা আল নুরী, এজহারুল হক, মো. ইদ্রিস, প্রিন্সিপাল হাজেরা খাতুন, মাওলানা তানভীর হোসাইন, ছাত্রনেতা মো. নওশাদ, যুবনেতা নুরুনবী প্রমুখ। সঞ্চালনায় ছিলেন শিপুল কুমার দে ও ইসরাত জাহান মিলি। 

মেয়র বলেন,  মাদক ও জঙ্গিবাদ দুটিই অভিন্ন শত্রু। জঙ্গিবাদ ও মাদকের ভয়াবহতা আজ জাতীয় সমৃদ্ধির প্রধান অন্তরায় হয়ে দাঁড়িয়েছে। যে পরিবারে একজন মাদকসেবী থাকে সেই পরিবারের দুঃখের সীমা থাকে না । জাতির এ মরণব্যাধি থেকে আমাদের প্রজম্মকে বেরিয়ে আনতে হবে ।

তিনি বলেন, সন্তান যখন বড় হতে থাকবে তখন মা-বাবা ও অভিভাবকদের গুরুত্বপূর্ণ কাজ হচ্ছে তারা কোথায় যায় এবং কাদের সঙ্গে মিশে সেদিকে নজর রাখা। মাদকাসক্তি বা জঙ্গি মানসিকতার মানুষের সঙ্গে যদি কেউ মেলামেশা করছে বলে জানা যায় তবে তা বন্ধে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিতে হবে এবং নিজেদের দ্বারা তা সম্ভব না  হলে সমাজপতি, শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান প্রধান, সন্ত্রাসবিরোধী ওয়ার্ড কমিটিকে অবহিতকরণ, প্রয়োজনে সরকারি সংস্থাকে জানাতে হবে।

বাংলাদেশ সময়: ২০৩২ ঘণ্টা, মার্চ ১০, ২০১৮
এআর/টিসি

বাবর-হাফিজের ব্যাটে এগোচ্ছে পাকিস্তান
ভারতের জয়রথ কি থামাতে পারবে উইন্ডিজ?
লাকসামে পাওনা টাকা চাওয়ায় যুবককে ছুরিকাঘাতে হত্যা
‘দেশে আর যেনো প্রতিহিংসামূলক নির্বাচন না হয়’
কোহলি আধুনিক যুগের যীশু!


সাড়ে চার হাজার নকল পাঠ্যবই জব্দ, আটক ২
ডিসেম্বরে উৎপাদনে যাবে পায়রা তাপবিদ্যুতের প্রথম ইউনিট
চট্টগ্রামে মাইক্রোবাসের এসি বিস্ফোরণে দগ্ধ ১৬, ঢামেকে ৪
মাদকবিরোধী যুদ্ধের ফলাফল বিচারের সময় আসেনি
ঢাবিকে নান্দনিক করতে মাস্টারপ্ল্যান তৈরির কাজ চলছে