চবিতে বৈশাখ উদযাপনের জোর প্রস্তুতি

332 | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

ছবি: বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

walton
প্রতিবারের মতো এবারও বাংলা নতুন বছরকে স্বাগত জানাতে দিনব্যাপী লোকজ মেলা ও বর্ণাঢ্য উৎসবের আয়োজন করেছে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় (চবি) কর্তৃপক্ষ। আর এ উপলক্ষে জোর প্রস্তুতি চলছে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে। ইতোমধ্যে, বর্ণিল সাজে সাজানো হয়েছে অনুষ্ঠানের কেন্দ্রস্থল কেন্দ্রীয় খেলার মাঠসহ পুরো ক্যাম্পাস।
php glass

চট্টগ্রাম: প্রতিবারের মতো এবারও বাংলা নতুন বছরকে স্বাগত জানাতে দিনব্যাপী লোকজ মেলা ও বর্ণাঢ্য উৎসবের আয়োজন করেছে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় (চবি) কর্তৃপক্ষ।

আর এ উপলক্ষে জোর প্রস্তুতি চলছে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে। ইতোমধ্যে, বর্ণিল সাজে সাজানো হয়েছে অনুষ্ঠানের কেন্দ্রস্থল কেন্দ্রীয় খেলার মাঠসহ পুরো ক্যাম্পাস।

বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর ও মেলা কমিটির সদস্য সচিব  সিরাজ উদ দৌলাহ বাংলানিউজকে বলেন, ‘বর্ষবরণ অনুষ্ঠানে সঙ্গীত, নৃত্য, আদিবাসী ঐতিহ্য উপস্থাপন, ফ্যাশন শো, মুকাভিনয়, ঐতিহ্যবাহী বলীখেলা, লাঠিখেলা, কাবাডি, বউচি খেলা, পুতুলনাচসহ নানা আয়োজনের পাশাপাশি থাকবে দিনব্যাপী লোকজ মেলা। 

সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানে বিশেষ আকর্ষণ হিসেবে সঙ্গীত পরিবেশন করবেন লোকসঙ্গীত শিল্পী ফকির সাহাবুদ্দিন ও বাংলাদেশের খ্যাতনামা ব্যান্ডদল সোলস।

নাট্যকলা বিভাগের ছাত্রী সনুপমা দাশগুপ্ত বাংলানিউজকে বলেন, বাঙালি জাতিসত্তার প্রাণের উৎসব বৈশাখী উৎসব। পুরনোকে বিদায় দিয়ে নতুনকে স্বাগত জানাতে আমরা অধীর আগ্রহে অপেক্ষা করছি।

বিশ্ববিদ্যালয়ে নববর্ষ উদযাপন উপলক্ষে শিক্ষার্থীদের মধ্যে ব্যাপক উদ্দীপনা বিরাজ করছে। চারুকলা বিভাগের শিক্ষার্থীরা দিনরাত পরিশ্রম করে তৈরি করছেন রং-বেরংয়ে মুখোশ, বাঁশি, প্ল্যাকার্ড, বাঘ, হাতি, মাছ, ফেস্টুন ইত্যাদি। সবুজ ক্যাম্পাসকে  সাজানোর নানা উদ্যোগও চলছে সমানতালে।

চারুকলা ইনস্টিটিউটের পরিচালক নাসিমা আক্তার বাংলানিউজকে বলেন, সাজসজ্জার সার্বিক কাজই চারুকলার শিক্ষার্থীরা করছে। তবে বিশেষ করে র‌্যালির সৌন্দর্য বৃদ্ধিকে বিশেষ করে গুরুত্ব দেওয়া হচ্ছে।

আয়োজনের প্রধান সমন্বয়ক বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক আনোয়ারুল আজিম আরিফ বাংলানিউজকে বলেন, বাঙালি সংস্কৃতি ও ঐতিহ্যকে টিকিয়ে রাখতে অতীতের ধারাবাহিকতায় এবারও আমরা পহেলা বৈশাখ ১৪২১ উদযাপনের সার্বিক প্রস্তুতি প্রায় সম্পন্ন করেছি। শিক্ষার্থীদের কাছে উৎসবকে আনন্দোচ্ছ্বল করার দিকে বিশেষভাবে নজর দেওয়া হচ্ছে।

এদিকে, বৈশাখী উৎসব উপলক্ষে বিশ্ববিদ্যালয়কে কেন্দ্র করে নেওয়া হয়েছে তিন স্তরের নিরাপত্তা ব্যবস্থা। পহেলা বৈশাখের আগে থেকেই ক্যাম্পাসে বাড়ানো হয়েছে আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীর নজরদারি।

এ বিষয়ে হাটহাজারী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. ইসমাইল হোসেন বাংলানিউজকে বলেন, অনুষ্ঠানে যে কোনো ধরনের অপ্রীতিকর ঘটনা এড়াতে আইন-শৃঙ্খলা বাহিনী তৎপর রয়েছে।

অপরদিকে, বিশ্ববিদ্যালয় সূত্র জানায়, পহেলা বৈশাখে সকাল নয়টায় বিশ্ববিদ্যালয় রেলস্টেশন থেকে শুরু হবে বর্ণাঢ্য শোভাযাত্রা। পরে বিশ্ববিদ্যালয় খেলার মাঠে আনুষ্ঠানিকভাবে উদ্বোধন করা হবে দিনব্যাপী কর্মসূচির।

উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক আনোয়ারুল আজিম আরিফ, উপউপাচার্য অধ্যাপক ড. ইফতেখার উদ্দিন চৌধুরীসহ বিশিষ্টজনেরা উপস্থিত থাকবেন।

বাংলাদেশ সময়: ১৯০৪ ঘণ্টা, এপ্রিল ০৭, ২০১৪

ঝিনাইদহে দু’পক্ষের সংঘর্ষে আহত ১৫
ছোটপর্দায় আজকের খেলা
দৃশ্যমান হলো পদ্মাসেতুর ১৯৫০ মিটার
সরগরম খ্যাতির ‘চিকন সেমাইপল্লি’
সিলেটে মহাসড়কে খানাখন্দ, আঞ্চলিক সড়কের বেহাল দশা


‘কবি নজরুলের ইচ্ছা পূরণ হয়েছিল বঙ্গবন্ধুর মাধ্যমে’
চতুর্থ দিনের মতো ট্রেনের টিকিট বিক্রি শুরু
পুরনো রূপে কমলাপুর রেলস্টেশন, টিকিটপ্রত্যাশীদের স্রোত
নদীপাড়ের বাণিজ্যকেন্দ্র ঐতিহ্যবাহী উৎরাইল হাট!
বরিশালের সড়কে প্রথমবার থ্রিডি জেব্রা ক্রসিং