চট্টগ্রামে ১৪ লাখ শিশুকে খাওয়ানো হলো ভিটামিন ‘এ’ ক্যাপসুল

152 | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

ছবি: বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

walton
জাতীয় ভিটামিন ‘এ’ প্লাস ক্যাম্পেইনের মাধ্যমে শনিবার চট্টগ্রামে ১৪ লাখ শিশুকে খাওয়ানো হলো ভিটামিন ‘এ’ ক্যাপসুল। সকালে নগরীর ছালেহ জহুর কিন্ডার গার্টেনে শিশুদের ভিটামিন ‘এ’ ক্যাপসুল খাইয়ে আনুষ্ঠানিকভাবে এ ক্যাম্পেইনের উদ্বোধন করেন সিটি কর্পোরেশন মেয়র এম মনজুর আলম।
php glass

চট্টগ্রাম: জাতীয় ভিটামিন ‘এ’ প্লাস ক্যাম্পেইনের মাধ্যমে শনিবার চট্টগ্রামে ১৪ লাখ শিশুকে খাওয়ানো হলো ভিটামিন ‘এ’ ক্যাপসুল। সকালে নগরীর ছালেহ জহুর কিন্ডার গার্টেনে শিশুদের ভিটামিন ‘এ’ ক্যাপসুল খাইয়ে আনুষ্ঠানিকভাবে এ ক্যাম্পেইনের উদ্বোধন করেন সিটি কর্পোরেশন মেয়র এম মনজুর আলম।
সকাল আটটা থেকে বিকাল চারটা পর্যন্ত নগর ও উপজেলায় চট্টগ্রাম মহানগর ও ১৪ উপজেলার ৬১০৩টি কেন্দ্রে দুই ক্যাটাগরিতে মোট ১৩ লাখ ৯১ হাজার ৬৬০শিশুকে ভিটামিন এ ক্যাপসুল খাওয়ানো হয়েছে।

চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশন এবং চট্টগ্রাম সিভিল সার্জন কার্যালয় পৃথকভাবে জাতীয় এ ক্যাম্পেইন বাস্তবায়ন করেছে।

সিটি করপোরেশন সুত্র জানায়, নগরীর ৪১টি ওয়ার্ডে ১২৮৮টি টিকাদান কেন্দ্রে ৬ থেকে ১১ মাস বয়সী প্রায় ১ লাখ ৫ হাজার শিশুকে একটি করে নীল রঙের ভিটামিন ‘এ’ ক্যাপসুল খাওয়ানো হয়েছে। ১২ থেকে ৫৯ মাস বয়সী প্রায় ৫ লাখ শিশুকে একটি করে লাল রঙের ভিটামিন ‘এ’ ক্যাপসুল খাওয়ানো হয়। এছাড়া বাদ পড়া শিশুদের ৪দিন পর্যন্ত চাইল্ড টু চাইল্ড কার্যক্রমের মাধ্যমে ভিটামিন ‘এ’ ক্যাপসুল খাওয়ানো হবে।

সিভিল সার্জন কার্যালয় সুত্র জানায়, চট্টগ্রামের ১৪টি উপজেলায় ২০০ ইউনিয়নের ৬০০ ওয়ার্ডে মোট ৪৮১৫টি টিকাদান কেন্দ্রে ৬ থেকে ১১ মাস বয়সী ৭৯ হাজার ৭৬১ জন শিশুকে একটি করে নীল রঙের ভিটামিন এ ক্যাপসুল খাওয়ানো হয়েছে। ১২ থেকে ৫৯ মাস বয়সী ছয় লাখ ৬১হাজার ৮৯৯ জন শিশুকে খাওয়ানো হয় লাল রঙের ভিটামিন এ ক্যাপসুল। এ কার্যক্রম সফল করতে দুই হাজার ৯ জন স্বাস্থ্যকর্মী নিয়োজিত ছিলেন।

জাতীয় এ কর্মসুচি উপলক্ষে সকালে নগরীর ছালে জহুর কিন্ডার গার্টেন প্রাঙ্গনে সুধী সমাবেশের আয়োজন করা হয়। চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনের প্রধান স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডা. সেলিম আকতার চৌধুরীর সভাপতিত্বে সমাবেশে বক্তব্য রাখেন মেয়র এম মনজুর আলম। এসময় উপস্থিত ছিলেন কাউন্সিলর প্রকৌশলী বিজয় কুমার চৌধুরী কিষান, নিয়াজ মোহাম্মদ খান, মনোয়ারা বেগম মণি, প্রধান শিক্ষা কর্মকর্তা অধ্যাপক মুহাম্মদ শহীদুল্লাহ, মুক্তিযোদ্ধা সানোয়ার আলী সানু, ডা. মোহাম্মদ আলী, ডা. ইমাম হোসেন রানা।

সিটি মেয়র এম মনজুর আলম বলেন, স্বাস্থ্য মন্ত্রনালয়ের স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের অধীনে জনস্বাস্থ্য পুষ্টি প্রতিষ্ঠান দেশ থেকে অপুষ্টিজনিত অন্ধত্ব দুর করার অভিপ্রায়ে দেশব্যাপী ভিটামিন ‘এ’ ক্যাপসুল খাওয়ানোর কর্মসুচি বাস্তবায়ন করছে। অন্ধত্বের মত অভিশাপ আর কিছু নেই। নিজেদের অজ্ঞতার কারনে জন্মের পর শিশুরা অন্ধ হয়ে যায়। শিশুদের ভিটামিন ‘এ’র অভাব যেন না হয় অভিভাবক বিশেষ করে মা ও বাবাকে সচেতন হতে হবে।

বাংলাদেশ সময়: ২০০০ঘণ্টা, এপ্রিল ০৫, ২০১৪

অস্ত্রসহ গ্রেফতার ছিনতাইকারী
প্রস্ততি ম্যাচে আফগানদের কাছে হারলো পাকিস্তান
তিন গুণ দামে কাপড় বিক্রি মিমিতে, লাখ টাকা জরিমানা
আশুলিয়ায় মলমপার্টির সদস্য আটক
৫৪ রোহিঙ্গাকে ক্যাম্পে ফেরত পাঠালো পুলিশ


৩ জেলায় বজ্রপাতে নিহত ৫
বৃষ্টিতে ডুবলো চট্টগ্রাম
উদ্বোধনের অপেক্ষায় ‘পঞ্চগড় এক্সপ্রেস’ 
কাউকে ভুল প্রমাণ করার সুযোগ খুঁজি না: মাশরাফি
নরসিংদীতে টয়লেট থেকে কিশোরী ও শিশুর মরদেহ উদ্ধার