php glass

সিইপিজেডে পোশাক কারখানায় উত্তেজনা, ভাংচুর

95 | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

ছবি: বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

walton

নতুন স্কেলে মজুরি নিয়ে চট্টগ্রাম রপ্তানি প্রক্রিয়াজাতকরণ অঞ্চলে (সিইপিজেড) সেকশন-সেভেন নামে দু’টি তৈরি পোশাক কারখানার শ্রমিকদের মধ্যে উত্তেজনার সৃষ্টি হয়েছে।

চট্টগ্রাম: নতুন স্কেলে মজুরি নিয়ে চট্টগ্রাম রপ্তানি প্রক্রিয়াজাতকরণ অঞ্চলে (সিইপিজেড) সেকশন-সেভেন নামে দু’টি তৈরি পোশাক কারখানার শ্রমিকদের মধ্যে উত্তেজনার সৃষ্টি হয়েছে। শ্রমিকরা বেরিয়ে কারখানা দু’টিতে ব্যাপক ভাংচুর চালিয়েছে।

এসময় পুলিশের সঙ্গে শ্রমিকদের দফায় দফায় ধাওয়া পাল্টা ধাওয়ার ঘটনা ঘটেছে। এসময় পুলিশ কয়েক রাউণ্ড ফাঁকা গুলি ছুঁড়েছে।

শনিবার সকাল ৯টার দিকে সিইপিজেডের চার নম্র সড়কে গার্মেণ্টস কারখানা দু’টিতে একইসঙ্গে উত্তেজনা দেখা দেয়। পুলিশ গিয়ে ঘণ্টাখানেকের মধ্যেই পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। এরপর শ্রমিকরা খণ্ড খণ্ডভাবে বিভিন্ন স্থানে জড়ো হয়ে পুলিশকে লক্ষ্য করে ইট-পাটকেল ছুঁড়ছে।

শিল্প পুলিশের গোয়েন্দা শাখার পরিদর্শক আরিফুর রহমান বাংলানিউজকে জানান, জানুয়ারিতেও পুরনো স্কেলে বেতন দেয়া হবে জানতে পেরে সেকশন-সেভেন গার্মেণ্টসের একটি কারখানার শ্রমিকদের মধ্যে উত্তেজনার সৃষ্টি হয়। এসময় শ্রমিকরা কর্মকর্তাদের কাছে মজুরির নতুন তালিকা দেখতে চান। এ নিয়ে কর্মকর্তাদের সঙ্গে কথা কাটাকাটির এক পর্যায়ে শ্রমিকরা কারখানা ছেড়ে বেরিয়ে যান। এ খবর সেকশন-সেভেনের আরেকটি কারখানায় ছড়িয়ে পড়লে সেখানকার শ্রমিকরাও বেরিয়ে যান।

আরিফুর রহমান বাংলানিউজকে বলেন, প্রায় ৮-১০ হাজার শ্রমিক একসঙ্গে বেরিয়ে রাস্তায় অবস্থান নেয়। এসময় ভেতর থেকে ফটক বন্ধ করে দেয়া হয়। উত্তেজিত শ্রমিকরা ইট, পাটকেল ছুঁড়ে কারখানার দু’টির সামনের কাঁচ ভাংচুর করে। এরপর শ্রমিকরা কারখানার ভেতরে ঢুকতে চাইলেও আমাদের বাধায় ঢুকতে পারেনি।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, কারখানায় ঢুকতে বাধা পেয়ে একটি কারখানার সামনে শ্রমিকরা পুলিশকে লক্ষ্য করে ইট, পাটকেল ছুঁড়তে থাকে। এসময় সিইপিজেডের ভেতরে থাকা যানবাহন লক্ষ্য করেও তারা বড় বড় ইটের টুকরা ছুঁড়তে থাকে। পরে সেখানে যানবাহন চলাচল বন্ধ করে দেয়া হয়।

নগর পুলিশের উপ-কমিশনার (বন্দর) সাইফুল করিম বাংলানিউজকে বলেন, উত্তেজিত শ্রমিকরা পুলিশকে লক্ষ্য করে ইট, পাটকেল ছুঁড়তে থাকলে পুলিশ শটগানের কয়েক রাউণ্ড গুলি ছুঁড়ে তাদের ছত্রভঙ্গ করে দিয়েছে।

পরিদর্শক আরিফুর রহমান বাংলানিউজকে বলেন, আমরা প্রথম দফায় ঘণ্টাখানেকের মধ্যেই পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে এনেছিলাম। কিন্তু শ্রমিকরা আধাঘণ্টার মধ্যেই আবারও বহিরাগত নিয়ে জড়ো হয়ে পুলিশের উপর হামলার চেষ্টা করছে। শিল্প পুলিশ অরাজকতা ঠেকাতে যথাসাধ্য চেষ্টা করছে।

শ্রমিকদের হামলায় শিল্প পুলিশের সাত সদস্য আহত হয়েছে বলেও আরিফুর রহমান দাবি করেছেন।

এদিকে ইপিজেড থানার ওসি আবুল মনসুর বাংলানিউজকে জানান, সেকশন-সেভেন এর যে কারখানায় অসন্তোষের সূত্রপাত হয়েছে, সেখানেই শ্রমিকরা বেশি উত্তেজিত হয়ে কারখানা ও পুলিশের উপর হামলা করছে। পুলিশ দুই কারখানার সামনে অবস্থান নিয়ে শ্রমিকদের শান্ত করার চেষ্টা করছে।

শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত সেকশন-সেভেন এর কারখানা দু’টিতে এবং আশপাশের সড়কে পুলিশের সঙ্গে শ্রমিকদের ধাওয়া পাল্টা ধাওয়া চলছিল। এর ফাঁকে শ্রমিকরা বাইরে থেকে ইট, পাটকেল ছুঁড়ে কারখানায় ভাংচুর চালাচ্ছে।

বাংলাদেশ সময়: ১০২০ ঘণ্টা, জানুয়ারি ০৪,২০১৪
সম্পাদনা: তপন চক্রবর্তী, ব্যুরো এডিটর।

রেলের ১ লাখ হাজার কোটি টাকার জমি বেদখল
কাপ্তাই হ্রদে সেকেন্ডে ছাড়া হচ্ছে ৩৩ হাজার কিউসেক পানি
এইচএসসির ফল জানা যাবে যেভাবে
সিরাজগঞ্জ চরাঞ্চলের সাড়ে ৯০০ গ্রাম প্লাবিত
কুড়িগ্রামে পানিবন্দি সাড়ে ৩ লাখ মানুষ


মেঘনার ভাঙন রোধে ১৬ কিলোমিটার বাঁধ হবে
বন্যাকবলিতদের জন্য রেডক্রিসেন্টের বিশেষ সহায়তা
অসাম্প্রদায়িক চেতনায় বিশ্বাসী বিরোধীদল দরকার
তৃণমূল থেকে দলকে সুসংগঠিত করার নির্দেশ আ’লীগ নেতাদের 
শ্রীপুরে বজ্রপাতে এক ব্যক্তির মৃত্যু