নির্বাচনের মাঠে বাবলু, এড়িয়ে চলছেন সাংবাদিকদের

39 | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

নির্বাচনে যাওয়া-না যাওয়া নিয়ে অনিশ্চয়তার মধ্যে চট্টগ্রাম-৯ (কোতয়ালী-বাকলিয়া) আসনে নির্বাচনী গণসংযোগে নেমেছেন জাতীয় পার্টির প্রেসিডিয়াম সদস্য জিয়াউদ্দিন আহমেদ বাবলু। তবে যথাসম্ভব সাংবাদিকদের এড়িয়ে চলছেন বাবলু।

চট্টগ্রাম: নির্বাচনে যাওয়া-না যাওয়া নিয়ে অনিশ্চয়তার মধ্যে চট্টগ্রাম-৯ (কোতয়ালী-বাকলিয়া) আসনে নির্বাচনী গণসংযোগে নেমেছেন জাতীয় পার্টির প্রেসিডিয়াম সদস্য জিয়াউদ্দিন আহমেদ বাবলু। তবে যথাসম্ভব সাংবাদিকদের এড়িয়ে চলছেন বাবলু। আর তাকে মহাজোটের প্রার্থী হিসেবে ঘোষণা করা না হলেও তার পক্ষে গণসংযোগে নেমেছেন আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরাও।

এদিকে চট্টগ্রামের বিভিন্ন আসনে সমান তালে নির্বাচনী প্রচারণা চালিয়ে যাচ্ছেন অন্যান্য প্রার্থীরাও। সব মিলিয়ে আস্তে আস্তে নির্বাচনে কিছুটা আমেজ তৈরি হচ্ছে বন্দরনগরীতে।

প্রতীক বরাদ্দের প্রায় এক সপ্তাহ পর শনিবার জিয়াউদ্দিন আহমেদ বাবলু চট্টগ্রামে এসে গণসংযোগে নামেন। শনিবার তিনি চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল এলাকায় গণসংযোগ করেন। এসময় তার সঙ্গে ছিলেন নগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আ জ ম নাছির উদ্দিন।

গণসংযোগের সময় তিনি চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের শিক্ষক-শিক্ষিকা, ছাত্র-ছাত্রীসহ সংশ্লিষ্টদের কাছে লাঙল মার্কায় ভোট চান। এসময় আওয়ামী লীগপন্থী বিএমএ নেতারাও তার সঙ্গে ছিলেন।

আওয়ামী লীগ নেতাদের নিয়ে গণসংযোগসহ সার্বিক বিষয়ে বক্তব্য জানতে বেশ কয়েকবার বাবলু’র মোবাইলে ফোন করা হলেও তিনি মাত্র একবার রিসিভ করেন কিন্তু কথা না বলে লাইন কেটে দেন। এরপর তিনি মিটিংয়ে আছেন বলে একটি ক্ষুদেবার্তা পাঠান।

এদিকে চট্টগ্রাম-৯ আসনে বাবলু’র মূল প্রতিদ্বন্দ্বী ওয়ার্কার্স পার্টির চট্টগ্রাম জেলা সম্পাদক অ্যাডভোকেট আবু হানিফ গত ৪-৫ দিন ধরে গণসংযোগে নেমেছেন। নগরীর বিভিন্ন এলাকায় তার পোস্টারও চোখে পড়ছে।

শনিবার আবু হানিফ নগরীর সদরঘাট ও আলকরণ এলাকায় গণসংযোগ করেছেন। এসময় তিনি হাতুড়ি মার্কায় ভোট দেয়ার জন্য জনসাধারণের প্রতি আহ্বান জানান।

এ আসনের আরেক প্রার্থী বিএনএফ’র অধ্যাপক আরিফ মইনুদ্দিনের কার্যক্রম শুধুমাত্র পোস্টার লাগানোর মধ্যেই সীমাবদ্ধ আছে। তিনি এখনও গণসংযোগ করেননি বলে জানা গেছে।

এদিকে চট্টগ্রাম-১১ (বন্দর-পতেঙ্গা) আসনে আওয়ামী লীগের প্রার্থী এম এ লতিফের পক্ষে গণসংযোগে নেমেছেন সাবেক মেয়র ও নগর আওয়ামী লীগের সভাপতি এবিএম মহিউদ্দিন চৌধুরী। শুক্রবার রাতে নগরীর চশমা হিলে মহিউদ্দিনের বাসভবনে নির্বাচনী কৌশল নির্ধারণে লতিফের সঙ্গে বৈঠক করেন আওয়ামী লীগ নেতারা। এসময় মহিউদ্দিন চৌধুরী সবাইকে নৌকা মার্কার পক্ষে কাজ করে এম এ লতিফকে আবারও বিজয়ী করার আহ্বান জানান।

একই আসনে লতিফের প্রতিদ্বন্দ্বী জাসদ নগর শাখার সাধারণ সম্পাদক জসীম উদ্দিন বাবুলও শনিবার সকালে সল্টগোলা, ক্রসিং এলাকায় গণসংযোগ করেছেন। এসময় জাসদ নেতারা এম এ লতিফের সমালোচনা করে বাবুলকে মশাল মার্কায় ভোট দেয়ার আহ্বান জানান।

গত এক সপ্তাহ ধরে সীতাকুণ্ডের বিভিন্ন এলাকায় অবিরাম গণসংযোগ করছেন চট্টগ্রাম-৪ আসনে আওয়ামী লীগের প্রার্থী দিদারুল আলম। শুক্রবার তার পক্ষে নির্বাচনী পথসভা করেন এবিএম মহিউদ্দিন চৌধুরী। শনিবার ‍দিদারুল আলম সীতাকুণ্ডে মুক্তিযোদ্ধা সমাবেশ করেন।

একই আসনে ওয়ার্কার্স পার্টির প্রার্থী দিদারুল আলম চৌধুরী শনিবার সীতাকুণ্ডের সোনাইছড়িসহ বিভিন্ন এলাকায় গণসংযোগ করেন। এসময় তিনি হাতুড়ি মার্কায় ভোট দেয়ার আহ্বান জানান।

এদিকে চট্টগ্রাম-২ (ফটিকছড়ি) আসনে নৌকা প্রতীকে প্রার্থী হওয়া তরিকত ফেডারেশনের চেয়ারম্যান নজিবুল বশর মাইজভান্ডারি উপজেলা আওয়ামী লীগের সঙ্গে বর্ধিত সভায় যোগ দিয়েছেন। সভায় আওয়ামী লীগের সর্বস্তরের নেতারা যোগ দেন।

সভায় নজিবুল বশর মাইজভান্ডারী জামায়াত-শিবিরকে প্রতিহত করতে প্রশাসনকে কঠোর হওয়ার আহ্বান জানান। অন্যথায় নিজেই তাদের প্রতিরোধে মাঠে নামবেন বলে হুমকি দেন।

বাংলাদেশ সময়: ১৯০০ঘণ্ট‍া, ডিসেম্বর ২১,২০১৩
সম্প‍াদনা: তপন চক্রবর্তী, ব্যুরো এডিটর।

ভিয়েতনাম মিশনে আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস পালন 
ময়মনসিংহে ডিবির সঙ্গে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ মাদকবিক্রেতা নিহত
চকবাজারে এখনও ফায়ার সার্ভিসের সদস্যদের সতর্ক অবস্থান
টিভি ব্যক্তিত্ব স্টিভ আরউইনের জন্ম
চকবাজার ট্র্যাজিডি তদন্তে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের কমিটি


চকবাজার ট্র্যাজিডিতে যুক্তরাষ্ট্রের শোক       
ফেরত এলো ভারতে পাচার ২৭ নারী-শিশু
চকবাজারের অগ্নিকাণ্ডে রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট পুতিনের শোক
অগ্নিকাণ্ডের ঘটনাস্থল পরিদর্শন করলেন ড. কামাল
পুরান ঢাকায় হয় কারখানা থাকবে নয় বাড়িঘর