ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২৯ শ্রাবণ ১৪২৭, ১৩ আগস্ট ২০২০, ২২ জিলহজ ১৪৪১

জলবায়ু ও পরিবেশ

আম্পানের তাণ্ডবে চুয়াডাঙ্গায় বাড়িঘর ও ফসলের ক্ষতি

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৪৪৯ ঘণ্টা, মে ২১, ২০২০
আম্পানের তাণ্ডবে চুয়াডাঙ্গায় বাড়িঘর ও ফসলের ক্ষতি

চুয়াডাঙ্গা: ঘূর্ণিঝড় আম্পানের তাণ্ডবে চুয়াডাঙ্গায় বৃষ্টি ও ঝড়ে ঘরবাড়ি-গাছপালা ও ফসলের ব্যাপক ক্ষতি হয়েছে। বাড়িঘর ও গাছপালা ভেঙে পড়ে ব্যাহত হয়েছে স্বাভাবিক জীবনযাত্রা। তবে কোনো হতাহতের খবর পাওয়া যায়নি।

বুধবার (২০ মে) রাত ১০টা থেকে প্রচণ্ড গতিতে আম্পান আঘাত হানে এ জেলায়। রাত বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে ঝড়ের গতিবেগ ও বৃষ্টিপাত বাড়তে থাকে।

প্রায় তিন ঘণ্টা চলে আম্পানের তাণ্ডব। আম্পানের কারণে চুয়াডাঙ্গা ও মেহেরপুর জেলা বিদ্যুৎ বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়ে।

স্থানীয় কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর সূত্র জানায়, চলতি মৌসুমে বোরো ধান, পানবরজ, ভুট্টাক্ষেত, আম ও কলাসহ উঠতি ফসলাদি বেশি ক্ষতির সম্মুখীন হয়েছে। এরমধ্যে জেলায় আম ও কলা প্রায় ৪০ শতাংশ ক্ষতির মুখে পড়েছে। এখনো ক্ষতি নিরূপণের কাজ চলছে।

চুয়াডাঙ্গা আবহাওয়া পর্যবেক্ষণাগারের পর্যবেক্ষক সামাদুল হক বাংলানিউজকে জানান, জেলায় ঝড়ের সর্বোচ্চ গতিবেগ ছিল ঘণ্টায় ৮২ কিলোমিটার। বৃষ্টিপাত রেকর্ড করা হয়েছে ১৪৮ মিলিমিটার।

এদিকে, বৃহস্পতিবার সকালে জেলার ঝুঁকিপূর্ণ ও ক্ষয়ক্ষতির শিকার এলাকাগুলো পরিদর্শন করেছেন জেলা প্রশাসক নজরুল ইসলাম সরকার। এসময় তিনি ক্ষতিগ্রস্ত পরিবারকে খাদ্য সহায়তা দেন। তিনি সাংবাদিকদের জানান, কোনো হতাহতের ঘটনা না ঘটলেও ক্ষতির পরিমাণ কম নয়। ক্ষয়ক্ষতি নিরূপণে কাজ চলছে। তবে জেলা প্রশাসন পূর্ব প্রস্তুতি নেওয়ায় ক্ষতি অনেকটা কমেছে।

বাংলাদেশ সময়: ১৪৪২ ঘণ্টা, মে ২১, ২০২০
এনটি

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa