ঢাকা, শুক্রবার, ২৯ শ্রাবণ ১৪২৭, ১৪ আগস্ট ২০২০, ২৩ জিলহজ ১৪৪১

ক্রিকেট

সাউদাম্পটন টেস্টে চালকের আসনে উইন্ডিজ

স্পোর্টস ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১২০১ ঘণ্টা, জুলাই ১১, ২০২০
সাউদাম্পটন টেস্টে চালকের আসনে উইন্ডিজ ছবি: সংগৃহীত

ইংল্যান্ডের বিপক্ষে সাউদাম্পটন টেস্টে ৯৯ রানের লিড নিয়ে চালকের আসনে বসেছে ওয়েস্ট ইন্ডিজ। 

শুক্রবার (১০ জুলাই) সিরিজের প্রথম টেস্টের তৃতীয় দিনে ৩১৮ রানে অল আউট হয়েছে ক্যারিবীয়রা। জবাব দিতে নেমে শ্যানন গ্যাব্রিয়েল ও কেমার রোচের দুর্দান্ত গতি আর বাউন্স সামলে দিন শেষে বিনা উইকেটে ১৫ রান সংগ্রহ করেছে ইংল্যান্ড।

এর আগে দলকে রোস্টন চেজ ও শেন ডরউইচের ৮১ রানের জুটিতে ম্যাচের নিয়ন্ত্রণ নেয় উইন্ডিজ। জেমস অ্যান্ডারসনের বলে লেগ বিফোরের ফাঁদে পড়ার আগে চেজের ব্যাট থেকে আসে ৪৭ রান।  

ইংলিশদের প্রথম ইনিংসে একাই ৬ উইকেট তুলে নেওয়া ক্যারিবীয় অধিনায়ক জেসন হোল্ডারকে মাত্র ৫ রানে বিদায় করেন স্টোকস। এরপর আলঝারি জোসেফকে ১৮ রানে বোল্ড করে নিজের ১৫০তম টেস্ট উইকেট তুলে নেন ইংলিশ অধিনায়ক।  

টেস্ট ক্রিকেটে ১৫০ উইকেট ও ৪ হাজার রানের ক্লাবে নতুন সদস্য এখন স্টোকস। এর আগে এই কীর্তিতে নাম লিখেছিলেন কপিল দেন, জ্যাক ক্যালিস, ইয়ান বোথাম, স্যার গারফিল্ড সোবার্স। এই তালিকায় দ্বিতীয় দ্রুততম হিসেবে নাম লেখিয়েছেন স্টোকস (৬৪ টেস্ট)। এক ম্যাচ কম খেলে দ্রুততম সোবার্স (৬৩ টেস্ট)।

অলরাউন্ডারদের বনেদি তালিকায় নাম লেখানোর পর ডরউইচের উইকেটও শিকার করেন স্টোকস। জস বাটলারের হাতে ক্যাচ তুলে দেওয়ার আগে ডরউইচের ব্যাট থেকে আসে ৬১ রানের ঝলমলে এক ইনিংস। আর উইন্ডিজের শেষ উইকেৎ গ্যাব্রিয়েলকে (৪) বিদায় করে ইনিংস গুটিয়ে দেন মার্ক উড।

ইংলিশদের হয়ে বল হাতে স্টোকস ছিলেন দুর্দান্ত। ১৪ ওভার বল করে ৪ উইকেট তুলে নিতে এই পেস অলরাউন্ডার খরচ করেছেন ৪৯ রান। ৩ উইকেট ঝুলিতে পুরেছেন জেমস অ্যান্ডারসন। ২ উইকেট গেছে ডম বেসের দখলে, বাকি উইকেট উডের।

এর আগে দিনের প্রথম ভাগে ব্যাথওয়েটের ৬৫ রানের ইনিংস ক্যারিবীয়দের বড় সংগ্রহের ভিত গড়ে দেয়। ১ উইকেটে ৫৭ রান নিয়ে দিন শুরু করা উইন্ডিজ ব্র্যাথওয়েট ও শাই হোপের ব্যাটে ভালোভাবেই এগিয়ে যাচ্ছিল। তবে ব্যক্তিগত ১৬ রানের মাথায় ডম বেসের স্পিনে ফার্স্ট স্লিপে দাঁড়ানো স্টোকসের হাতে ক্যাচ তুলে দিয়ে বিদায় নেন তিনি।

ব্র্যাথওয়েটের উইকেট শিকার করেন স্টোকস। যদিও আম্পায়েরের সিদ্ধান্ত চ্যালেঞ্জ করেছিলন ক্যারিবীয় ওপেনার। কিন্তু রিভিও’র পর আম্পায়েরে সিদ্ধান্ত বহাল থাকে। ৭১ বলে ৩৯ করা শামারাহ ব্রুকস বিদায় নে অ্যান্ডারসনের বলে। তিনিও রিভিও নিয়েছিলেন, কিন্তু কাজ হয়নি।

জারমেইন ব্ল্যাকউড ১২ রানের মাথায় বেসের বলে মিড-অফে থাকা অ্যান্ডারসনের হাতে ক্যাচ তুলে দেন। ১৮৬ রানে ৫ উইকেট হারানো উইন্ডিজকে এরপর টেনে নেন ডরউইচ ও চেজ।

এর আগে বৃহস্পতিবার (১০ জুলাই) নিজেদের প্রথম ইনিংসে ২০৪ রানেই গুটিয়ে যায় ইংল্যান্ড। ৪২ রানে ৬ উইকেট তুলে নিয়ে ক্যারিয়ার সেরা বোলিং করেন ক্যারিবীয় অধিনায়ক হোল্ডার। বাকি ৪ উইকেট যায় গ্যাব্রিয়েলের দখলে।

করোনা মহামারির কারণে স্থগিত থাকার ১১৭ দিন পর এই টেস্ট দিয়েই আন্তর্জাতিক ক্রিকেট ফিরেছে। তিন ম্যাচের সিরিজ পুরোটাই দর্শকবিহীন মাঠে খেলা হচ্ছে। আর খেলোয়াড় ও ম্যাচ অফিসিয়ালদের স্বাস্থ্য ঝুঁকির কথা বিবেচনা করে জীবাণুমুক্ত পরিবেশে আয়োজন করা হচ্ছে ম্যাচ, যেখানে নিয়মিত সংশ্লিষ্টদের স্বাস্থ্য পরীক্ষা করার পাশাপাশি থাকছে হোম আম্পায়ারের ব্যবস্থা এবং নিষিদ্ধ করা হয়েছে বলে থুতু বা লালার ব্যবহার।  

বাংলাদেশ সময়: ১২০১ ঘণ্টা, জুলাই ১১, ২০২০
এমএইচএম

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

ক্রিকেট এর সর্বশেষ

Alexa