php glass

আমরা ভারতীয়দের হারাতে চাই: জামাল ভূঁইয়া 

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

চট্টগ্রাম আবাহনীর সংবাদ সম্মেলন/ছবি- সোহেল সরওয়ার

walton

শেখ কামাল ক্লাব কাপে টানা দ্বিতীয় জয় তুলে নিয়ে সেমিফাইনালের পথে একধাপ এগিয়ে গেছে শিরোপা পুনরুদ্ধারে নামা স্বাগতিক দল চট্টগ্রাম আবাহনী লিমিটেড।

বুধবার (২৩ অক্টোবর) টুর্নামেন্টের একমাত্র ভেন্যু চট্টগ্রাম এম এ আজিজ স্টেডিয়ামে মারুফুল হকের দল ৪-২ ব্যবধানে হারিয়েছে লাওসের ক্লাব ইয়ং এলিফেন্টসকে। 

দুর্দান্ত খেলে ম্যাচটিতে ম্যান অব দ্য ম্যাচের পুরস্কার এক হাজার ডলার জিতেছেন অধিনায়ক জামাল ভূঁইয়া। এই নিয়ে টানা দ্বিতীয়বার ম্যাচ সেরা হয়েছেন জাতীয় দলের অধিনায়ক। এলিফেন্টদের বিপক্ষে এক গোল করার পাশাপাশি আরেকটি গোলেও অ্যাসিস্ট করেছেন তিনি। আগামী ম্যাচেও এভাবে খেলে দলকে জয় এনে দেওয়ার ব্যাপারে আত্মপ্রত্যয়ী জামাল ভূঁইয়া। এলিফেন্টদের বিপক্ষে ম্যাচে কৌশলগত পরিবর্তনের জন্য কোচ মারুফুল হককে ক্রেডিট দিয়ে তিনি বলেন, ‘আমরা প্রথমার্ধে ভাল খেলিনি তবে দ্বিতীয়ার্ধে এসেই আমরা দুই গোল দিয়েছি। দ্বিতীয়ার্ধে কোচ কিছু কৌশলগত পরিবর্তন আনে এবং আমরা ভাল খেলেছি। এরপর আমরা সফল হয়েছি। জয় পাওয়ায় আমি আনন্দিত।’

ভুটানের বিপক্ষে দু’টি প্রীতি ম্যাচের পর কাতারের বিপক্ষে বিশ্বকাপ বাছাইপর্বের ম্যাচে জাতীয় দলের জার্সিতে স্বরূপে দেখা গিয়েছিল জামাল ভূঁইয়াকে। সল্টলেকে ভারতের বিপক্ষেও অসাধারণ খেলেছেন বাংলাদেশের এই ড্যানিশ ফুটবলার। এই সাফল্যের মন্ত্রকাঠি কী? এমন প্রশ্নের জবাবে জামাল বলেন, ‘আসলে আমি খুব অবস্থায় আছি। শেষ ৩৫ দিন আমি আমি টানা অনুশীলন করে যাচ্ছি। সফলতা পাওয়ার পেছনে এটাও একটি কারণ। আমি আমার কাজ করছি। আমি তা করে যেতে চাই।’

জামাল খেলেন ৬ নাম্বার জার্সি পরে। মাঠে তার ভূমিকা ডিফেন্সিভ মিডফিল্ডারের। তবে এলিফেন্টদের বিপক্ষে প্রথমার্ধে ডিফেন্সিভ মিডফিল্ডার হিসেবে খেললেও বিরতির আক্রমণ ভাগে ওঠে গোল করেছেন তিনি। ভূমিকা বদল করে সফলও তিনি। পেয়েছেন গোল। সেই ব্যাপারে সাবেক ইংল্যান্ডের চেলসি মিডফিল্ডার ফ্রাঙ্ক ল্যাম্পার্ডের সঙ্গে নিজের তুলনাটা টানলেন জামাল ভূঁইয়া, ‘মাঝেমধ্যে ডিফেন্ডার-মিডফিল্ডারও গোল করে। দ্বিতীয়ার্ধে আমি আট নাম্বারের ভূমিকায় খেলেছি। নাম্বার এইট বক্স-টু-বক্স প্লেয়ার। এই ভূমিকায় ফ্রাঙ্ক ল্যাম্পার্ড খেলতেন। তিনিও অনেক গোল পেয়েছেন যখন খেলতেন। আমি মনে করি এটা স্বাভাবিক বিষয়। সাধারণত আমি অনেক গোল করিনা তবে আজ সুযোগ পেয়েছি এবং গোল করলাম।’ 

সামনে মোহনবাগনের বিপক্ষে ম্যাচ। কলকাতার এই ঐতিহ্যবাহী ক্লাবটিতে খেলেন অনেক ভারতীয় ফুটবলার। কিছুদিন আগে মোহনবাগানের মাঠ সল্টলেকে ভারতের বিপক্ষে প্রায় জেতা ম্যাচটা হাতছাড়া হয়ে যায় বাংলাদেশের। এবার মোহনবাগানকে হারিয়ে দুধের স্বাধ ঘোলে মেটাতে চান জামাল। সল্টলেকে খেলার অভিজ্ঞতা নিয়ে মোহনবাগানকে হারানোর ব্যাপারে আত্মবিশ্বাসী চট্টগ্রাম আবাহনী অধিনায়ক বলেন, ‘আমি আসলে মোহনবাগানের বিপক্ষে ম্যাচ নিয়ে তেমন কিছু ভাবছি না। তবে অবশ্যই এটা ভারতের দল এবং আমরা ভারতীয়দের হারাতে চাই। আমরা তাদের বিপক্ষে ৩ পয়েন্ট পেতে চাই।’ 

বাংলাদেশ সময়: ০০৩৮ ঘণ্টা, অক্টোবর ২৪, ২০১৯
ইউবি

ক্লিক করুন, আরো পড়ুন: ফুটবল
খুলনায় পেঁয়াজ ক্রয়-গুজব প্রতিরোধের দাবি
চট্টগ্রামে কর্মকর্তাদের জন্য সরকারের ২৪৯৬ ফ্ল্যাট
পাবনায় ধর্ষণের পর হত্যার দায়ে ২ জনের ফাঁসি
বরিশালে দিনে দুপুরে বাসায় চুরি
আগুন নিয়ন্ত্রণের পর চলছে ডাম্পিং


আসছে ‘মিশন এক্সট্রিম’র প্রথম পোস্টার
কুষ্টিয়ায় পৃথক মামলায় একজনের ফাঁসি, তিনজনের যাবজ্জীবন
দেড় লাখ টাকা পর্যন্ত রেমিট্যান্সে কাগজপত্র ছাড়াই প্রণোদনা
সাক্ষী নিয়ে হাইকোর্টে ওসি মোয়াজ্জেমের আবেদন খারিজ
‘মাদকদ্রব্য অধিদপ্তরের ব্যবস্থাপনায় দুর্বলতা রয়েছে’