php glass

চুক্তির তথ্য জানতে প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ে বিএনপির চিঠি

স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

বিএনপির দুই নেতার হাত থেকে চিঠি গ্রহণ করেন প্রধানমন্ত্রীর বিশেষ সহকারী ব্যারিস্টার বিপ্লব বড়ুয়া। ছবি: প্রধানমন্ত্রীর প্রেস উইং

walton

ঢাকা: প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সাম্প্রতিক দিল্লি সফরে ভারতের সঙ্গে বাংলাদেশ সরকারের সম্পাদিত বিভিন্ন চুক্তির বিষয়ে জানতে প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ে চিঠি দিয়েছে বিএনপি।

রোববার (১৭ নভেম্বর) দুপুর সাড়ে ১২টায় বিএনপির যুগ্ম-মহাসচিব সৈয়দ মোয়াজ্জেম হোসেন আলাল ও খায়রুল কবির খোকন তেজগাঁওয়ে প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ে গিয়ে চিঠিটি পৌঁছে দেন।

বিএনপি চেয়ারপারসনের প্রেস উইংয়ের সদস্য শামসুদ্দিন দিদার বাংলানিউজকে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

দিদার বলেন, সোয়া ১২টার দিকে চিঠি নিয়ে প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ে প্রবেশ করেন দুই নেতা। তারা প্রধানমন্ত্রীর বিশেষ সহকারী ব্যারিস্টার বিপ্লব বড়ুয়ার হাতে চিঠি পৌঁছে দিয়ে পৌনে ১টার দিকে বের হয়ে আসেন। এসময় প্রধানমন্ত্রীর একান্ত সচিব-২ ওয়াহিদা আক্তার, উপ-প্রেস সচিব হাসান জাহিদ তুষার এবং প্রধানমন্ত্রীর সহকারী প্রেস সচিব এম. এম. ইমরুল কায়েস উপস্থিত ছিলেন।  

চিঠি পৌঁছে দিয়ে বিএনপির যুগ্ম-মহাসচিব সৈয়দ মোয়াজ্জেম হোসেন আলাল প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের সামনে সাংবাদিকদের বলেন, প্রধানমন্ত্রী বরাবর বিএনপি মহাসচিব স্বাক্ষরিত একটি চিঠি নিয়ে এসেছিলাম। ওই চিঠিতে বলা আছে, অতি সম্প্রতি ভারত সফর ও অন্যান্য দেশে সফরকালীন সময়ে সেসব দেশের সঙ্গে বাংলাদেশের যে চুক্তিগুলো হয়েছে সংবিধান অনুযায়ী সেই চুক্তিগুলোকে জনসম্মুখে প্রকাশ করা এবং তার মধ্যে দেশের স্বার্থের হানিকর কিছু হয়েছে কি-না সেটা পর্যালোচনা করার সুযোগ দেওয়া হোক।

তিনি বলেন, আমরা দেখেছি শুধু জাতীয় এবং আন্তর্জাতিক গণমাধ্যমে প্রধানমন্ত্রী কথা বলেছেন। কিন্তু এ সম্পর্কে জাতীয় সংসদে আলোচনা হয়নি, এমনকি রাষ্ট্রপতির কাছেও এই ফাইল গিয়েছে কি-না, এ বিষয়ে সাধারণ জনগণ কিছু জানে না। কিন্তু সংবিধানের ১৪৫/ক ধারায় এটা সংসদে পেশ করার এবং জানার অধিকার রয়েছে জনগণের। জনগণের সমর্থিত দল হিসেবে বিএনপি এই দায়িত্ব পালনে অগ্রসর হয়েছে। আমরা আনুষ্ঠানিকভাবে প্রধানমন্ত্রীকে চিঠি দিয়েছি। অবিলম্বে এটা সংসদের আলোচনার টেবিলে নিয়ে আসা হোক। যেন এটা পাবলিক ডিসকাশনের ব্যবস্থা হয়।

সংসদে বিএনপির প্রতিনিধি আছেন, সেখানে উত্থাপন না করে এখানে কেন দিলেন- এমন প্রশ্নের জবাবে আলাল বলেন, জাতীয় সংসদে আমাদের যারা সদস্য আছেন, তারা কয়েক দফা এ ব্যাপারে কথা বলার চেষ্টা করেছেন, নোটিশ দিয়েছেন। তাদের সে নোটিশ গ্রহণ করা হয়নি। কথা বলার সুযোগ দেওয়া হয়নি। আমরা অনন্যোপায় হয়ে এখানে চিঠি দিলাম।  

বাংলাদেশ সময়: ১৪২৩ ঘণ্টা, নভেম্বর ১৭, ২০১৯
এমএইচ/এইচএ/

** চিঠি নিয়ে প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের পথে বিএনপির দুই নেতা

পুলিশের উদ্যোগে থানা প্রাঙ্গণে বিক্রি হবে পেঁয়াজ
খালেদা জিয়ার মুক্তির দাবিতে যুবদলের বিক্ষোভ শনিবার
কুষ্টিয়া মিরপুরে গৃহবধূর ঝুলন্ত মরদেহ উদ্ধার
অতিথি পাখির কলতানে মুখর রাউজানের লস্কর দিঘী
সৌম্যের ফিফটিতে ভুটানকে উড়িয়ে দিল বাংলাদেশ


শ্রীনগরে বাসচাপায় চাচা নিহত, ভাতিজা আহত 
চড়া দামেই বিক্রি হচ্ছে সবজি, মাছেও নেই স্বস্তি
‘ঘি’ মানসম্মত না হওয়ায় মামলা
উত্তর জেলা আ’লীগের সম্মেলন ঘিরে চাঙা নেতা-কর্মীরা
শীত জেঁকে বসতেই খুলনায় হাঁস খাওয়ার মহোৎসব!