করোনা: সৈয়দপুরে মানবেতর অবস্থায় ঢুলিপাড়ার ৩০ পরিবার

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

ঢুলি পরিবারের কয়েক সদস্য। ছবি: বাংলানিউজ

walton

নীলফামারী: বিয়ে-পূজা ছাড়াও বিভিন্ন উৎসবে ঢোল বাজিয়ে জীবিকা নির্বাহ করে ঢুলিপাড়ার ৩০টি পরিবার। করোনা ভাইরাস সংক্রমণরোধে সামাজিক অনুষ্ঠান বন্ধ ঘোষণা হওয়ায় বিপাকে পড়েছেন ঢুলিরা। অনাহারে-অর্ধাহারে কাটছে তাদের জীবন।

নীলফামারীর সৈয়দপুর উপজেলার লক্ষণপুরে অবস্থিত ঢুলিপাড়া। ৩০টি পরিবারে সদস্য সংখ্যা দুই শতাধিক। বিভিন্ন সামাজিক অনুষ্ঠানে ঢোল বাজিয়ে যা আয় হয় তা দিয়ে চলে তাদের সংসার। তাদের গৃহবধূরা ঘরে বসে বাঁশের জিনিসপত্র তৈরি করে বাজারে বিক্রি করে সংসারে যোগান দিতো। কিন্তু হাট-বাজার বন্ধ থাকায় সেসব পণ্যও পড়ে রয়েছে ঘরের কোনায়।

করোনা ভাইরাস সম্পর্কে তাদের নেই ধারণা। তাদের পাড়ায় এসে কেউ এ রোগটি সম্পর্কে সচেতনও করেনি। কিভাবে প্রতিরোধ করা যায় নেই তাদের ধারণা। সরকারি কোনো সাহায্য দূরের কথা-করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে মাস্ক, সাবান, ব্লিচিং পাউডার, হ্যান্ড স্যানিটাইজার কপালে জোটেনি। উপরন্তু ক্ষুদ্র ঋণের কিস্তি উত্তোলন করা হচ্ছে ওই ঢুলিপাড়ায়।

ওই পাড়ার প্রবীণ জিতেন বৈশ্য মালী জানান, বাপ-দাদার পেশা। এতো বছর এ পেশায় থেকে জীবিকা নির্বাহ করছি কিন্তু এমন অভাব-অনটনের মধ্যে পড়িনি। তিনি আক্ষেপ করে বলেন, আমাদের দিকে কেউ তাকায় না। না সরকারি লোক, না মেম্বার-চেয়ারম্যান-এমপি।

এ ব্যাপারে সোমবার (৩০ মার্চ) সাংবাদিকদের সঙ্গে মতবিনিময় সভায় সৈয়দপুর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মো. নাসিম আহমেদ জানান, বিষয়টি খতিয়ে দেখা হবে।

বাংলাদেশ সময়: ২০২৫ ঘণ্টা, মার্চ ৩০, ২০২০
আরএ

ক্লিক করুন, আরো পড়ুন: নীলফামারী
রংপুরে আইনজীবীকে গলাকেটে হত্যা
পর্তুগালের ক্লাব বেনফিকার টিম বাসে হামলা, আহত ২ ফুটবলার
এই ওষুধে ২ দিনে সুস্থ করোনা রোগী!
ফুটবলের ইতিহাসে প্রথম বিলিয়নিয়ার রোনালদো
করোনায় বেশি আক্রান্ত তরুণরা


সিলেটে করোনা চিকিৎসায় আরও ২ ভেন্টিলেটর দিলেন ড. মোমেন
ভোলায় দুই চিকিৎসকসহ নতুন ৮ জনের করোনা পজিটিভ
করোনা আক্রান্ত হয়েছিলেন কিনা জানা যাবে গণস্বাস্থ্যের কিটে
নারায়ণগঞ্জে মেয়েকে ধর্ষণের অভিযোগে বাবা গ্রেফতার
নরসিংদীতে নতুন ৪৩ জনের করোনা শনাক্ত, আক্রান্ত বেড়ে ৬৮৪