ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ১৩ কার্তিক ১৪২৭, ২৯ অক্টোবর ২০২০, ১১ রবিউল আউয়াল ১৪৪২

জাতীয়

১ হাজার পরিবারকে খাদ্য সহায়তা দিলেন লিপি ওসমান

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২১৩০ ঘণ্টা, মার্চ ২৬, ২০২০
১ হাজার পরিবারকে খাদ্য সহায়তা দিলেন লিপি ওসমান

নারায়ণগঞ্জ: করোনা ভাইরাসের প্রাদুর্ভাবের মধ্যে অসহায় মানুষের পাশে এসে দাঁড়িয়েছেন নারায়ণগঞ্জ জেলা মহিলা সংস্থার চেয়ারম্যান ও সংসদ সদস্য শামীম ওসমানের স্ত্রী সালমা ওসমান লিপি। তার উদ্যোগে ইতোমধ্যে ১ হাজার জনকে খাদ্য সহায়তা দেওয়া হয়েছে।

বৃহস্পতিবার (২৬ মার্চ) নারায়ণগঞ্জের দুটি বস্তি এলাকায় হতদরিদ্র, নিম্নবিত্তদের মধ্যে প্রতিজনকে ১ প্যাকেট করে খাদ্য বিতরণ করা হয়।

প্রত্যেক প্যাকেটের মধ্যে ৫ কেজি চাল, এক কেজি ডাল, এক লিটার তেল, আধা কেজি লবণ, ১টি সাবান ছিল।

এগুলো বিতরণের সময় লিপি ওসমানের সঙ্গে উপস্থিত ছিলেন নারায়ণগঞ্জ সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) নাহিদা বারিক ও জেলা ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি এহসানুল হাসান নিপু।

লিপি ওসমান বলেন, করোনা ভাইরাসের প্রাদুর্ভাব ঠেকাতে ইতোমধ্যে গণপরিবহন চলাচল, মার্কেট ও দোকানপাট, শিল্প কারখানা, শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধ ঘোষণা করা হয়েছে। ইতোমধ্যে জরুরি প্রয়োজন ছাড়া বাড়ির বাইরে বের না হওয়ার নির্দেশনা রয়েছে। ফলে অনেক খেটে খাওয়া মানুষ বিশেষ করে একেবারে হতদরিদ্র, নিম্নবিত্তদের যেন খাবারের কষ্ট না হয় সেজন্যই নারায়ণগঞ্জ শহরের চাঁদমারী এলাকার স্বপ্নডানা স্কুলের সামনে ও হাজীগঞ্জ এলাকার পৃথক বস্তি এলাকায় ১ হাজার জনকে খাদ্য সহায়তা দেওয়া হয়েছে।

‘পর্যায়ক্রমে আরও বিতরণ করা হবে। যারাই এ ধরনের খাদ্য কষ্টে থাকবে তাদের পাশেই আমি সাধ্যমত দাঁড়ানোর চেষ্টা করবো। তাই আমি আবারো সবার কাছে অনুরোধ করবো আসুন সবাই মিলে এসব অসহায় মানুষদের জন্য কাজ করি, তাদের পাশে দাঁড়াই। শেখ হাসিনার বাংলাদেশে কেউ না খেয়ে থাকবে না এটাই আমার বিশ্বাস। যেহেতু দেশের স্বার্থে, ভাইরাস যেন না ছড়ায় সেজন্য সবকিছু বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে সেহেতু অসহায়, গরীব, হতদরিদ্র মানুষের পাশে দাঁড়ানো আমাদের একান্ত কাম্য। ’

বাংলাদেশ সময়: ২১৩০ ঘণ্টা, মার্চ ২৬, ২০২০
এইচএডি/

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

জাতীয় এর সর্বশেষ

Alexa