php glass

মান্দায় ‘ছেলেধরা’ সন্দেহে গণপিটুনি, আটক ৭

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

আটক ব্যক্তি। ছবি : বাংলানিউজ

walton

নওগাঁ: নওগাঁর মান্দা উপজেলায় ছেলেধরা সন্দেহে গণপিটুনির শিকার হয়েছেন ৭ ব্যক্তি। এর মধ্যে উপজেলার বুড়িদহ গ্রামে ৬ ও মহানগর স্কুলের সামনে থেকে একজনকে স্থানীয়দের হাত থেকে উদ্ধার করে পুলিশ। 

রোববার (২১ জুলাই) সকালে এ গণপিটুনির ঘটনা ঘটে।
 
গণপিটুনির শিকার ব্যক্তিরা হলেন- নওগাঁ সদর উপজেলার খাগড়া ফয়েজউদ্দিন কলেজ এলাকার সাদ্দাম, আসলাম, সাইফুল, আব্দুল মজিদ, আনিছুর, ফারাদপুর গ্রামের রেজাউল করিম ও একই উপজেলার আবুল কালাম আজাদ। 

মান্দা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোজাফফর হোসেন বাংলানিউজকে ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।
 
ওসি জানান, রাতে বুড়িদহ গ্রামের রঞ্জিতের পুকুরে একদল মৎস্যজীবী মাছ শিকার করেন। সকালে তারা কিছু মাছ বস্তায় ভরে বাজারে নিয়ে যাচ্ছিলেন। এ সময় গ্রামবাসী ছেলেধরা সন্দেহে তাদের ধাওয়া করে আটক করে গণপিটুনি দেন। 
 
খবর পেয়ে পুলিশ গ্রামবাসীর হাত থেকে জেলেদের উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসে। এ ঘটনায় একজনকে আটক করা হয়েছে।

অন্যদিকে স্থানীয়রা উপজেলার মহানগর স্কুলের সামনে থেকে আবুল কালাম আজাদ নামে আরেক ব্যক্তিকে আটক করে পুলিশে সোপর্দ করেছে। তার বাড়ি মান্দার তেঁতুলিয়া গ্রামে।

বাংলাদেশ সময়: ১১১৮ ঘণ্টা, জুলাই ২১, ২০১৯
আরএ

ট্রাক্টরই এখন কৃষকের ‘গলার কাঁটা’
বাংলাদেশকে অনেক ভালোবাসি: সালমান খান
পঞ্চগড়ে শীতের তীব্রতা চরমে, দুর্ভোগে নিম্ন আয়ের মানুষ
বেগম রোকেয়ার জন্ম-মৃত্যু
ইতিহাসের এই দিনে

বেগম রোকেয়ার জন্ম-মৃত্যু

রাজাপুরে বসতঘরে অগ্নিকাণ্ড, ১৫ লাখ টাকার ক্ষতি


ফুল নিয়ে ফজলে করিমের বাসায় সালাম-আতাউর
ময়মনসিংহে সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত ১
ববিতে আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে হামলা, আহত ৪
জয় বাংলা, জয় বঙ্গবন্ধু: ক্যাটরিনা
ভারতের পারমাণবিক বিদ্যুৎকেন্দ্রে ‘কোর ক্যাচার’ স্থাপন