উত্তরখানে আগুনে দগ্ধ হয়ে মৃতের সংখ্যা বেড়ে ৪

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

প্রতীকী ছবি

ঢাকা: রাজধানীর উত্তরখানের একটি বাসায় গ্যাসলাইনের লিকেজ থেকে সৃষ্ট আগুনে দগ্ধদের মধ্যে আফরোজা আক্তার ‍পূর্ণিমা (৩০) নামে আরও একজন মারা গেছেন। এ নিয়ে শনিবারের (১৩ অক্টোবর) অগ্নিকাণ্ডের ঘটনায় একই পরিবারে চারজনের মৃত্যু হলো।

php glass

মঙ্গলবার (১৬ অক্টোবর) রাত সাড়ে ১১টার দিকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালের বার্ন ইউনিটে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান পূর্ণিমা। তার শরীরের ৮০ শতাংশ পুড়ে গিয়েছিল।

ঢামেক পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ উপ-পরিদর্শক (এসআই) বাচ্চু মিয়া কর্তব্যরত চিকিৎসকের বরাত দিয়ে বাংলানিউজকে এ তথ্য জানান।

এর আগে রোববার (১৪ অক্টোবর) সকাল ৭টার দিকে পূর্ণিমার মা সুফিয়া বেগম (৫০) ঢামেক হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান।

উত্তরখানের ব্যাপারীপাড়ার হেলাল মার্কেট এলাকার একটি বাসায় গ্যাসলাইনের লিকেজ থেকে সৃষ্ট আগুনে দগ্ধ হয়ে এ পর্যন্ত চারজন মারা গেলেন। বেশ কয়েকজন ঢামেক হাসপাতালে চিকিৎসাধীন।

শনিবার (১৩ অক্টোবর) সকালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় সুফিয়ার ভাতিজা আজিজুল ইসলাম (২৭) মারা যান। সন্ধ্যায় মারা যান তার স্ত্রী মুসলিমা (২০)। 

চিকিৎসাধীন দগ্ধরা হলেন- পূর্ণিমার ছেলে সাগর (১২), সুফিয়ার ভাতিজি ও আজিজুলের বোন আঞ্জু আরা (২৫) ও তার স্বামী ডাবলু মোল্লা (৩৩), তাদের ছেলে আব্দুল্লাহ সৌরভ (৫)।

শনিবার ভোরে ব্যাপারীপাড়ার ১১০/এ-১ নম্বর হোল্ডিংয়ের তিনতলা বাড়ির নিচ তলায় ওই অগ্নিকাণ্ডে একই পরিবারের নারী ও শিশুসহ আটজন দগ্ধ হন। 

এ ঘটনায় নিহত প্রত্যেককে ২০ হাজার টাকা ও আহত দগ্ধদের ১০ হাজার টাকা করে দিয়েছেন ঢাকা জেলা প্রশাসক আবু সালেহ মোহাম্মদ ফেরদৌস খান।

বাংলাদেশ সময়: ০০৪৫ ঘণ্টা, অক্টোবর ১৭, ২০১৮
এজেডএস/এমইউএম/আরআর

লক্ষ্মীপুরে স্বাধীনতা দিবস উদযাপন
জাতীয় স্মৃতিসৌধ যেন লাল-সবুজের একখণ্ড বাংলাদেশ
বাংলাদেশের উন্নয়ন দেখে বিদেশিরা ঈর্ষা করে: ঢাবি ভিসি
শ্রেষ্ঠ সন্তানদের ফুলেল শ্রদ্ধায় স্মরণ করছে জাতি
 ইতালিতে জাতীয় গণহত্যা দিবস পালিত


বরিশাল নগরে যাত্রী ওঠা-নামার জন্য স্ট্যান্ড হবে 
জাতির বীরসন্তানদের রাষ্ট্রপতি-প্রধানমন্ত্রীর শ্রদ্ধা
এক সন্তান প্রসবের ২৬ দিন পর ফের জমজ জন্মদান
কলকাতায় বাংলাদেশ উপ-দূতাবাসে গণহত্যা দিবস পালিত
জাতীয় গণহত্যা দিবস পালিত হলো পাকিস্তানে