php glass

কলকাতায় পেঁয়াজের সঙ্গে পাল্লা দিয়ে বাড়ছে সবজির দরও

ভাস্কর সরদার, সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

কলকাতার সবজির বাজার, ছবি: বাংলানিউজ

walton

কলকাতা: পূজার মৌসুম শেষ হয়েছে। প্রাক শীতের এই সন্ধিক্ষণে কলকাতার বাজারে নতুন সবজি আসতে শুরু করেছে। কিন্তু দাম বেশি। প্রায় সব সবজির দাম এতটাই চড়া যে মধ্যবিত্ত মানুষের কেনা দায় হয়ে পড়েছে। এর সঙ্গে আবার কাঁদাচ্ছে পেঁয়াজও।

পেঁয়াজের দাম মাঝে কিছুটা কমেছিল। কিন্তু এখন ফের ঊর্ধ্বমুখী। এ রকম চলতে থাকলে সেঞ্চুরি হাঁকাতে বেশি সময় লাগবে না কলকাতার বাজারে। মঙ্গলবার (১২ নভেম্বর) দিল্লির খুচরা বাজারে পেঁয়াজ ১০০ রুপি থেকে কমে ৯০ হলেও কলকাতায় ৭০ থেকে ১০ বেড়ে ৮০ রুপি হয়েছে।

এরইমধ্যে গরমের সবজি পটল, ঢ্যাঁড়স, ঝিঙের পাশপাশি শীতের ফুলকপি, গাজর, শিম, বিন, মটরশুঁটি, বাঁধাকপি ও টমেটো এসে গেছে বাজারে। কিন্তু এসব সবজির বাজারদরও অনেক বেশি। যেমনটি গত বছরের এ সময় ছিল না।

গতবছর গড়ে যেসবের দাম ছিল ৪০ রুপির নিচে, তা এ মৌসুমে ৬০ থেক ৭০ রুপি কেজি দরে বিক্রি হচ্ছে। যদিও ঘূর্ণিঝড় বুলবুলের ঝড়বৃষ্টিতে সবজির দর আরও বাড়বে বলে মনে করছেন কলকাতার ব্যবসায়ীরা। কারণ অকাল বৃষ্টি সবজির পক্ষে মোটেও ভালো নয়।

আলুর দাম এবার পূজা মৌসুমে মোটামুটি স্থিতিশীল ছিল। এরও দাম বেড়েছে এখন। ওই সময় যে আলুর দাম ১২ থেকে ১৪ রুপি ছিল, সেটা এখন খুচরা বাজারে ২০ রুপি অতিক্রম করেছে।

প্রতিবছর নভেম্বরেই উত্তর প্রদেশ ও পাঞ্জাব থেকে পশ্চিমবঙ্গে আলু আসতে শুরু করে। কিন্তু এবার বৃষ্টির কারণে দুই রাজ্যে আলুর চাষ পিছিয়ে গেছে। তাই আলু আসতে দেরি। পাশাপাশি পশ্চিমবঙ্গে চাষ হওয়া নতুন আলু জানুয়ারির শুরুতে কলকাতার বাজারে আসে। এবার এখানেও দেরি হবে। তাই আলুর দাম আরও বাড়বে বলে মনে করছেন ব্যবসায়ীরা।

পেঁয়াজের ব্যাপারে অবশ্য রাজ্যের বিশেষ কিছু করার নেই। বর্তমানে পেঁয়াজ আসছে মহারাষ্ট্র, অন্ধ্র প্রদেশ থেকে। সেখানেও দাম চড়ছে। বাজারে এ দিন পেঁয়াজের দাম ৭০ রুপি। এছাড়া ভালো মানের পেঁয়াজ অর্থাৎ নাসিক থেকে যে পেঁয়াজ আসে, কলকাতা বাজারে তার খুচরা মূল্য ৮০ রুপি। ফলে গোটা ভারতের সঙ্গে কলকাতার বাজারেও পেঁয়াজের দাম চড়া।

মহারাষ্ট্রে অসময়ে বৃষ্টির জন্য নতুন পেঁয়াজ আসতে দেরি হচ্ছে। পাশাপাশি কলকাতায় সংরক্ষিত পেঁয়াজও শেষ হয়ে আসছে। আর সে কারণেই কলকাতার খুচরা বাজারে পেঁয়াজের দাম ৮০, দিল্লিতে ৯০, মুম্বাইয়ে ৯০ ও চেন্নাইতে ৭০ রুপির আশপাশে রয়েছে। অবশ্য কলকাতায় সরকারি স্টল থেকে ভর্তুকি দেওয়া পেঁয়াজ ৪০ রুপিতে মিলছে। কিন্তু দোকান খুলতে না খুলতে শেষ হয়ে যাচ্ছে।

কলকাতার সবচেয়ে বড় পাইকারি সবজির বাজার ‘কোলে মার্কেট’-এর দায়িত্বপ্রাপ্ত কর্মকর্তা কমল দে বাংলানিউজকে জানিয়েছেন, রাজ্যের পাইকারি বাজারেই পেঁয়াজের দাম এখন ৫০ থেকে ৬০ রুপি। তবে এরও জোগান খুব কমে গেছে। কেন্দ্রীয় সরকার দ্রুত বিদেশ থেকে পেঁয়াজ আমদানির ব্যবস্থা করতে না পারলে অবস্থা আরও খারাপ হবে।

‘অবশ্য কেন্দ্রীয় সরকার কিছুদিন আগে বিদেশে পেঁয়াজ রপ্তানি নিষিদ্ধ করলে এর জেরে বাজার কিছুটা ভালো হয়েছিল। কিন্তু মজুত শেষ হয়ে আসায় সামাল দেওয়াই মুশকিল হচ্ছে।’

তিনি বলেন, পেঁয়াজ তো অনেকদিন ধরেই মধ্যবিত্তদের নাগালের বাইরে। এবার সবজিও চলে যাচ্ছে সে জায়গায়। পেঁয়াজের সঙ্গে পাল্লা দিয়ে বাড়তি সবজির দামও। বুলবুলের প্রভাবে সবজির দাম বেশ বাড়বে বলে আশঙ্কা করছে কলকাতাবাসী।

বাংলাদেশ সময়: ১৬৪৩ ঘণ্টা, নভেম্বর ১২, ২০১৯
ভিএস/টিএ

ক্লিক করুন, আরো পড়ুন: কলকাতা
মানবাধিকারের দলিল থাকলেও বাস্তবে নেই: ড. কামাল
গেন্ডারিয়ায় চাঁদাবাজের বিরুদ্ধে দোকান দখলের অভিযোগ
সাবেক এমপিএ মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল কাদিরের মৃত্যু
বাগেরহাটে সরকারিভাবে আমন ধান সংগ্রহ শুরু
পল্লীর আলোকায়নে বসছে সড়কবাতি


খালেদা জিয়াকে পছন্দমতো হাসপাতালে চিকিৎসা দেওয়ার দাবি
চেক প্রজাতন্ত্রের এক হাসপাতালে বন্দুকধারীর হামলা, নিহত ৬
রাজশাহী কলেজে একাডেমিক ভবনের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন 
দেশকে এগিয়ে নিতে ভ্যাট প্রদানের বিকল্প নেই: মেয়র নাছির
অনুপ্রবেশের দায়ে ট্রলারসহ ভারতীয় ১৪ জেলে আটক