ঢাকা, মঙ্গলবার, ২০ শ্রাবণ ১৪২৭, ০৪ আগস্ট ২০২০, ১৩ জিলহজ ১৪৪১

আন্তর্জাতিক

আসাম-ত্রিপুরায় বিক্ষোভকারীদের সঙ্গে পুলিশের সংঘর্ষ

আন্তর্জাতিক ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৯-১২-১২ ১২:৫৪:০০ এএম
আসাম-ত্রিপুরায় বিক্ষোভকারীদের সঙ্গে পুলিশের সংঘর্ষ নাগরিকত্ব সংশোধনী বিল (সিএবি) প্রত্যাহারের দাবিতে বিক্ষোভ করছেন ভারতের আসাম ও ত্রিপুরা রাজ্যের জনতা।

বিতর্কিত নাগরিকত্ব সংশোধনী বিল (সিএবি) প্রত্যাহারের দাবিতে বিক্ষোভে ফেটে পড়েছে ভারতের আসাম ও ত্রিপুরা রাজ্যের হাজার হাজার জনতা।

বুধবার (১১ ডিসেম্বর) রাজ্য দু’টির বিভিন্ন স্থানে বিক্ষোভকারীদের সঙ্গে পুলিশের সংঘর্ষ হয়। বিক্ষোভকারীদের লক্ষ্য করে ফাঁকা গুলি ও কাঁদানে গ্যাস ছোড়ে এবং লাঠিচার্জ করে পুলিশ।

পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে রাজ্য দু’টিতে সেনা মোতায়েন করা হয়েছে। এছাড়া, আসামের রাজধানী গুহাটিতে কারফিউ জারি করা হয়েছে। গুহাটিসহ আসামের ১০ জেলায় মোবাইল ইন্টারনেট সার্ভিস বুধবার সন্ধ্যা ৭টা থেকে আগামী ২৪ ঘণ্টার জন্য বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত নিয়েছে কর্তৃপক্ষ।

বিক্ষোভকারীদের বেশিরভাগই বিভিন্ন বয়সী শিক্ষার্থী। গুহাটির প্রধান প্রধান সড়ক অবরোধ করে বিক্ষোভ করছেন তারা। এছাড়া, আসাম ও ত্রিপুরার অন্য অনেক স্থানে সড়ক অবরোধ করে বিক্ষোভ করছে জনতা।

সোমবার (৯ ডিসেম্বর) ভারতীয় সংসদের নিম্নকক্ষ লোকসভায় পাস হয়েছে নাগরিকত্ব সংশোধনী বিল (সিএবি)। এ বিল অনুযায়ী আফগানিস্তান, বাংলাদেশ ও পাকিস্তান থেকে আগত হিন্দু, শিখ, বৌদ্ধ, জৈন, পার্সি ও খ্রিস্টান অবৈধ অভিবাসীদের নাগরিকত্ব দেবে ভারত।

১৯৫৫ সালের নাগরিকত্ব আইন সংশোধন করার উদ্দেশ্যে বিলটি প্রণীত হয়েছে। সংশোধিত বিল অনুযায়ী, এসব ধর্মের লোকজন, যারা প্রয়োজনীয় কাগজপত্র ছাড়া ২০১৪ সালের আগে ভারতে প্রবেশ করেছেন, তাদের কারাবন্দি বা বিতাড়িত করা হবে না। ভারতে ছয় বছর বসবাসের পর স্থায়ী নাগরিকত্ব পাবেন তারা।

ধর্মের ভিত্তিতে নাগরিকত্ব দেওয়ার এ বিল বাতিলের দাবিতে বিক্ষোভে উত্তাল হয়ে উঠেছে আসাম ও ত্রিপুরা রাজ্যের জনতা।

বাংলাদেশ সময়: ১৯৫৪ ঘণ্টা, ডিসেম্বর ১১, ২০১৯
এফএম

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

আন্তর্জাতিক এর সর্বশেষ

Alexa