উইলিয়ামসনের সেঞ্চুরিতে প্রোটিয়াদের হারালো কিউইরা

ওয়ার্ল্ড কাপ ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

বল করতে গিয়ে মাটিতে পড়ে গেছেন রাবাদা: ছবি-সংগৃহীত

walton

শেষ ওভারে নিউজিল্যান্ডের দরকার ৮ রান। বোলিংয়ে এসে ফিল্ডিং সাজানো নিয়ে কিছুটা সময় ক্ষেপণ করলো দক্ষিণ আফ্রিকা। কিন্তু লাভ হলো না। আন্দ্রে ফেলুকাওয়াওয়ে প্রথম বলে এক রান নিলেন মিচেল স্যান্টনার। দ্বিতীয় বলে চাপের মুখে বল মাঠের বাইরে ছিটকে ফেললেন কেন উইলিয়ামসন। জয়টা হাতের মুঠোই চলে আসার পাশাপাশি সেঞ্চুরিটাও করে ফেললেন ‘ব্ল্যাক ক্যাপস’ অধিনায়ক।

পেন্ডুলামের মতো দুলতে থাকা ম্যাচে ৩ বল ও ৪ উইকেট হাতে রেখে জিতেছে নিউজিল্যান্ড। প্রোটিয়াদের দেয়া ২৪২ রানের লক্ষ্য তাড়া করতে নেমে কিউইরা শেষ বলে চার মেরে করেছে ২৪৫ রান। ‍

যে দেশ জন্টি রোডসের মতো বিশ্বসেরা ফিল্ডার জন্ম দিয়েছে নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে তারাই একের পর এক ক্যাচ মিস করেছে। অবশ্য মামুলি টার্গেট দিলেও প্রোটিয়াদের লড়াইয়ে রাখে বোলাররা।

দলীয় ১২ রানের মাথায় কলিন মুনরোকে (৯) সাজঘরে ফেরান কাগিসো রাবাদা। কিউইরা ধাক্কাটা সামাল দেয় মার্টিন গাপটিল ও উইলিয়ামসনের ব্যাটে। দু’জনের ৬০ রানের জুটি ভাঙেন ফেলুকাওয়াও। হিট উইকেটে গাপটিলকে (৩৫) ফেরান এই প্রোটিয়া পেসার। 

এর পরপরই ক্রিস মরিসের বলে রস টেইলরকে (১) তালুবন্দী করেন উইকেটরক্ষক কুইন্টন ডি কক। একইভাবে টম লাথামকেও (১) সাজঘরের পথ দেখান তিনি। জিমি নিশামকে (২৩) তৃতীয় বানান মরিস।

তবে সতীর্থদের যাওয়া-আসার মাঝে নিজের দায়িত্বের প্রমাণ দেন উইলিয়ামসন। এক প্রান্তে কলিন ডি গ্রান্ডহোম ৩৯ বলে ফিফটি তুলে নিয়ে এগোতে থাকেন। অন্য প্রান্তে মাটি কামড়ে পড়ে থাকেন কিউই অধিনায়ক। 

শেষদিকে লুঙ্গি এনগিডি গ্রান্ডহোমকে (৬০) ফিরিয়ে ম্যাচে রোমাঞ্চ ছড়িয়ে দেন। কিন্তু দিনটা ছিল উইলিয়ামসনের। শেষ কাজটা তিনি সারেন স্যান্টনারকে (২) নিয়ে। সেঞ্চুরি থেকে ৪ রান দূরত্বে দাঁড়িয়ে ছিলেন তিনি। ৫ বলে যখন ৭ রান দরকার তখনই বল আঁছড়ে ফেললেন মাঠের বাইরে। সেটিই ছিল তার ইনিংসের একমাত্র ছক্কা। উইলিয়ামসন ১৩৮ বলে অপরাজিত ছিলেন ১০৬ রানে।

এর আগে বুধবার (১৯ জুন), বার্মিহামের এজবাস্টনে টসে হেরে ব্যাটিংয়ে নেমে ৬ উইকেট হারিয়ে ২৪১ সংগ্রহ করে ফাফ ডু প্লেসিসের দল। শুরুর আগে বৃষ্টির বাধার মুখে পড়ে ম্যাচটি। নির্ধারিত সময় পেরিয়ে গেলেও ভেজা আউটফিল্ডের কারণে টসে বিলম্ব হয়। বৃষ্টির কারণে ম্যাচটি নামিয়ে আনা হয় ৪৯ ওভারে। অবশেষে টসে জিতে ফিল্ডিং নেয় নিউজিল্যান্ড।

ব্যাটিংয়ে নেমে শুরুটা ভালো হয়নি দ. আফ্রিকার। স্কোরবোর্ডে ৫৯ রান যোগ হতেই ডি কক (৫) ও ডু প্লেসিসকে (২৩) হারায় তারা। তবে হাশিম আমলার ফিফটিতে দলীয় শতকের দেখা পায় প্রোটিয়ারা। স্যান্টনারের বলে ৫৫ রান করে বোল্ড হন এই তারকা ব্যাটসম্যান। 

এদিন ২৪ রান করে বিরাট কোহলির পরই ইনিংসের হিসেবে ওয়ানডেতে দ্রুততম ৮ হাজার রানের মালিক আমলা। কিউইদের বিপক্ষে ব্যাটিংয়ে নামার আগে আমলার রান ছিল ৭৯৭৬ রান। ৮ হাজার রানের মাইলফলক গড়তে হ্যাশের লেগেছে ১৭৯ ম্যাচ ও ১৭৬ ইনিংস। কোহলির লেগেছে ১৮৩ ম্যাচ ও ১৭৫ ইনিংস।

আমলার বিদায়ের পরপরই দলীয় ১৩৬ রানে এইডেন মার্করামকে (৩৮) হারায় দ. আফ্রিকা। তবে রসি ফন ডার ডুসেনের ঝড়ো ব্যাটিংয়ে এগিয়ে চলে তারা। ডেভিড মিলারকে নিয়ে ৭২ রানের জুটি গড়েন তিনি। ৩৭ বলে ৩৬ রান করে মিলার ফেরেন ফার্গুসনের বলে। এর পররপই ফিরেন লুকাওয়াও(০)। ক্রিস মরিসকে (৬) নিয়ে দলকে লড়াকু পুঁজি এনে দেন ডুসেন। এই বাঁহাতি প্রোটিয়া অলরাউন্ডার ৬৪ বলে অপরাজিত ছিলেন ৬৭ রানে। 

এই জয়ে ৫ ম্যাচে ৯ পয়েন্ট নিয়ে শীর্ষে  উঠেছে নিউজিল্যান্ড। সেমিফাইনালের স্বপ্ন ধুলিসাৎ হয়ে যাওয়া প্রোটিয়ারা ৩ পয়েন্ট নিয়ে আছে আটে।

বাংলাদেশ সময়: ০১০১ ঘণ্টা, ২০ জুন, ২০১৯ 
ইউবি 

ক্লিক করুন, আরো পড়ুন: আইসিসি ক্রিকেট বিশ্বকাপ ২০১৯
বন্যায় গাইবান্ধার পাঁচ লাখ মানুষ ক্ষতিগ্রস্ত
চন্দ্রাভিযান স্মরণে হ্যাজার্ডের ৫০ নাম্বার জার্সি 
গাজীপু‌রে ৫ টন পলিথিন জব্দ
পুলিশ একাডেমিতে মৈত্রী ভবন পরিদর্শনে ভারতীয় হাইকমিশনার 
রশিদ-নবীদের নিয়ে বোমা ফাটালেন গুলবাদিন


বগুড়ায় বন্যায় ফসলের ১২৩ কোটি টাকার ক্ষতি
সেলস অফিসার নিয়োগ দেবে ন্যাশনাল পলিমার
ডিএসইর প্রধান সূচক ৫ হাজারের নিচে
ব্যাংকারদের সক্ষমতা বাড়ানোর পরামর্শ
ক্ষেতলালে মোটরসাইকেলের ধাক্কায় ভ্যান চালক নিহত