বাংলাদেশ ‘ওয়ান ম্যান আর্মি’ নয়: সাকিব

ওয়ার্ল্ড কাপ ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

সাকিব আল হাসান: ছবি-সংগৃহীত

walton

বিশ্বকাপে আরেকটি জয়ের চিত্রনাট্য লিখেছেন সাকিব আল হাসান। বিশ্বসেরা এই অলরাউন্ডারের নৈপুণ্যে আফগানিস্তানের বিপক্ষে ৬২ রানের জয় পেয়েছে বাংলাদেশ। সাকিব আবার প্রমাণ দিয়েছেন কেন তিনি বিশ্বসেরা অলরাউন্ডার। বিশ্বকাপে নিজেদের প্রথম ম্যাচ থেকে হাসছে তার ব্যাট, বোলিংয়ে গুঁড়িয়ে দিচ্ছেন প্রতিপক্ষকে। তার অসাধারণ পারফর্ম্যান্সে সেমিফাইনালের আশা বাঁচিয়ে রেখেছে টাইগাররা। 

সাকিবের ৫১ রানের ওপর ভর করে আফগানদের বিপক্ষে ৭ উইকেটে ২৬২ রান করে বাংলাদেশ। পরে বল হাতে ২৯ রানে ৫ উইকেট নিয়ে জয়ের নায়কও তিনি। হাফসেঞ্চুরি ও পাঁচ উইকেট নিয়ে ‍যুবরাজ সিংয়ের সঙ্গে এক সিংহাসনে বসেছেন সাকিব। ২০১১ বিশ্বকাপে এই অনন্য রেকর্ডটি গড়েছিল যুবি।

সোমবার (২৫ জুন) আফগানদের বিপক্ষে অনবদ্য এক চিত্রনাট্যের সমাপ্তির পর সাকিব ম্যাচ পরবর্তী সংবাদ সম্মেলনে বলেন, ‘পাঁচ উইকেট নেওয়া বিশেষ কিছু। দেখুন আমরা এমন টাইপের স্পিনার যারা দেশকে সাহায্য করে। আমার মনে হয় আজকের উইকেটটা আমাদের বেশি সাহায্য করেছিল। এটা দরকার ছিল এবং আমার প্রেক্ষিতে এটা দলের প্রয়োজন ছিল। সৌভাগ্যবশত আমি তার করতে পেরেছি। এবং তা করতে পেরে সত্যি খুশি।’ 

বিশ্বকাপের শুরু থেকে অসাধারণ ব্যাটিং দিয়ে ক্রিকেট বিশ্বকে মুগ্ধ করে দিয়েছেন সাকিব। টুর্নামেন্টের সর্বোচ্চ (৪৭৬) রানও তার। দুর্দান্ত ব্যাটিং করতে থাকা সাকিব কোন রকম চাপ অনুভব করেননি বলে জানান। তিনি বলেন, ‘আমি ভাল প্রস্তুতি নিয়েছিলাম। কিন্তু নিজেকে প্রমাণের তেমন কিছুই অনুভব করিনি।’ 

নিজে অলরাউন্ড পারফর্ম্যান্স করতে পারলে সন্তুষ্টি পান জানিয়ে সাকিব আরো বলেন, ‘বিশ্বকাপের আগে প্রস্তুতি নিয়ে আমি যা করতে পারতাম আমি তাই করেছি। এটা আমাকে প্রচুর সাহায্য করছে। আমি নিজের পারর্ফম্যান্স নিয়ে কোনো প্রকার র‌্যাংক করি না। কিন্তু যখন আমি ব্যাট ও বল হাতে অবদান রাখি তখন সন্তুষ্ট হই। এটা এক খাতে অবদানের চেয়ে আমাকে আরো বেশি সন্তুষ্টি দেয়।’

আগে পাঁচে ব্যাটিং করলেও বিশ্বকাপে নাম্বার তিনে ব্যাট করছেন সাকিব। তবে তাতে কোনো প্রকার যে অসুবিধা হচ্ছে না তা তো প্রতিনিয়ত বুঝিয়ে দিচ্ছেন তিনি। বাংলাদেশে আগে নাম্বার তিন নিয়ে সংকটে ছিল। ঘুরেফিরে অনেকে চেষ্টা করেছেন জায়গাটিতে সেট হতে। কিন্তু সম্ভব হয়নি। তবে সাকিব সেখানেই সফল। 

দুর্দান্ত এই পারর্ফম্যান্সের পেছনে নিজের ফিটনেসকে ক্রেডিট দিচ্ছেন সাকিব, ‘দেড় মাস আমি ফিটনেস নিয়ে কাজ করেছি এবং এটাই আমাকে সাহায্য করছে। ফিটনেস আমাকে কঠিন সময় ও পরিবেশে সঠিক সিদ্ধান্ত নিতে সাহায্য করছে। আমি ফিটনেসের কারণে কঠিন সময়ে সিদ্ধান্ত নিতে সক্ষম। কারণ আমি অন্যকিছু পরিবর্তন করতে পারবো না এটা ছাড়া। আমি যা করছি তাতে ফিটনেস খুব সাহায্য করছে।’ 

এমন একটা সময় ছিল যখন বাংলাদেশ ছিল ‘ওয়ান ম্যান আর্মি।’ তবে সেখান থেকে টাইগাররা বেরিয়ে এসেছে অনেক আগে। বিশ্বকাপেও তা দেখা যাচ্ছে। অবশ্য অন্যদের চেয়ে এই জায়গায় একটু বেশি উজ্জ্বল সাকিব। 

বাংলাদেশ ওয়ান ম্যান আর্মি-কিনা সাংবাদিকদের এমন প্রশ্নের জবাবে সাকিব বলেন, ‘না, আমরা ওয়ান ম্যান আর্মি নয। আপনি যদি আজকের (২৪ জুন) ম্যাচ দেখেন, তাহলে দেখবেন, মুশফিকের ইনিংস, রিয়াদ-তামিম এবং মোসাদ্দেকের অবদান। বিশেষ করে এই ধরণের উইকেটে তাদের অবদান ছিল অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। তারা ইনিংসকে নির্মাণে সহায়তা করেছে। মোস্তাফিজ এবং সাইফউদ্দীনকে যদি দেখেন, তারা উভয়ে ৯-১০ উইকেট নিয়েছে এই বিশ্বকাপে। তাই আমি মনে করি এটি অনেক বড় অর্জন বাংলাদেশের জন্য।’ 

বাংলাদেশ সময়: ১১৫২ ঘণ্টা, জুন ২৫, ২০১৯ 
ইউবি

ক্লিক করুন, আরো পড়ুন: আইসিসি ক্রিকেট বিশ্বকাপ ২০১৯ CWC19
হবিগঞ্জ আ’লীগের সম্মেলনে ৭০০০ কর্মীর জন্য বিরিয়ানি
ক্রেতাদের বাজেট অনুযায়ী পোশাক তৈরি করছে ‘সারা’
মায়ের ওপর অভিমান, রাজধানীতে স্কুলছাত্রীর আত্মহত্যা
নোয়াখালীতে ট্রাক-অটোরিকশা সংঘর্ষে প্রাণ গেলো দু’জনের
প্রণব মুখার্জি-খান আতার জন্ম


খালেদার মুক্তির জন্য স্বেচ্ছায় কারাভোগে রাজি ফেনী বিএনপি
‘মাথাপিছু আয় ৬০০০ ডলারের আগেই সবার কাছে গাড়ি থাকবে’
দলের জন্য সবটুকু অভিজ্ঞতা ঢেলে দেবেন গিবস
কর দিতে হয়রানি হলে তাৎক্ষণিক ব্যবস্থা: অর্থমন্ত্রী
মিয়ানমারে গণহত্যার বিচার শুরু, সন্তুষ্ট রোহিঙ্গারা