ক্ষমতার অপব্যবহার চলছে ত্রিপুরায়

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

মানিক সরকার। ছবি: বাংলানিউজ

আগরতলা (ত্রিপুরা): ত্রিপুরা রাজ্যে এখন ক্ষমতার অপব্যবহার চলছে, বললেন বিরোধী দলের নেতা ও সাবেক মুখ্যমন্ত্রী মানিক সরকার।

বৃহস্পতিবার (২৪ মে) দুপুরে দক্ষিণ জেলার বিলোনিয়া এলাকার বামফ্রন্ট সমর্থিত সিআইটিইউ-এর ভেঙে ফেলা অফিস পরিদর্শনে এসে একথা বলেন তিনি।

এদিকে বুধবার (২৩ মে) রাতে ত্রিপুরার দক্ষিণ জেলার জোলাইবাড়ীর  ঠাকুরছড়া এমএলএ পাড়ায় সিপিআই (এম) দলের হাতে ৮ বিজেপিকর্মী আক্রান্ত হওয়ার অভিযোগ ওঠে।

শান্তির বাজার মহকুমা প্রশাসনের পক্ষ থেকে সরকারি খাস জমিতে স্থাপিত পার্টি অফিস ভেঙে ফেলার উদ্যোগ নেওয়া হয়।  ফলে এমএলএ পাড়ার সিপিআইএম পার্টি অফিসে মজুত সরঞ্জাম সরিয়ে নেওয়ার জন্য সিপিআইএম কর্মীরা সেখানে উপস্থিত হন। জানা যায়, বিজেপি কর্মীদের কাছে আগে থেকেই খবর ছিল, এই সিপিআইএম পার্টি অফিসে বিভিন্ন প্রকারের অস্ত্র মজুত রয়েছে।  

এসব অস্ত্র দেখার জন্য কিছু বিজেপি কর্মী সেখানে উপস্থিত হন। বিজেপি কর্মীদের উপস্থিতির খবর পেয়ে সিপিআই (এম) নেতা দেবেন্দ্র ত্রিপুরার নেতৃত্বে কিছু কর্মী বিজেপি কর্মীর উপর হামলা চালায় বলে অভিযোগ রয়েছে। অতর্কিত হামলায় আট জন বিজেপি কর্মী আহত হন।  এরমধ্যে এক জনের আঘাত গুরুত্বর হওয়ায় তাকে গোমতী জেলা হাসপাতালে পাঠানো হয়।  বাকিদের জোলাইবাড়ী প্রাথমিক স্বাস্থ্যকেন্দ্রে চিকিৎসা দেওয়া হয়।  

আহত আট জন বিজেপিকর্মী হলো চয়ন চক্রবর্তী, রায়ধন মল্ল, বাবুল আচার্য্যি, সুকান্ত বনিক, স্বপন সরকার, উত্তম মজুমদার, বিক্রম মজুমদার, মন্টু কুমার কর। এরমধ্যে চয়ন চক্রবর্তীকে গোমতী জেলা হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়।   

এঘটনার খবর জানার পর বৃহস্পতিবার (২৪ মে) আহত বিজেপিকর্মীদের দেখার জন্য ছুটে যান  ৩৬ শান্তির বাজার বিধানসভার বিধায়ক প্রমোদ রিয়াং, অংকীয় মগ, জোলাইবাড়ী বিজেপির মণ্ডল, তাপস দত্ত , বিকাশ বৈদ্য প্রমুখ। 

এ ঘটনায় জোলাইবাড়ী থানায় একটি মামলা দায়ের করা হয়। তবে ঘটনার পর অনেক দিন অতিক্রম হলেও, অভিযুক্তদের ধরতে পারেনি পুলিশ।

বাংলাদেশ সময়: ১৬১৬ ঘণ্টা, মে ২৩, ২০১৮
এসসিএন/এনএইচটি

শেরে বাংলানগরে নয়, সচিবালয়েই হচ্ছে ‘টুইন টাওয়ার’
ভূমিকম্পে বেরিয়ে এলো প্রাচীন মন্দির
টাঙ্গাইলে মাইক্রোবাসের সিলিন্ডার বিস্ফোরণে নিহত ৩
যেমন ছিল ‘ওৎজি’ মানবের খাবার
বদরগঞ্জের শোলার খোঁজে দূর-দূরান্তের মালিরা
যে শহরে কোটি টাকা আয় করেও গরিব!
তদবিরে বাড়তি চাল বরাদ্দ মিললেও মেলেনি বরাদ্দপত্র
বছরে ৫০ কোটি মেট্রিকটন ক্ষতিকর পোকামাকড় খায় পাখি
যেভাবে চালু করবেন জিমেইলের স্মার্ট কম্পোজ
জয়পুরহাটে ২৫ কোটি টাকা ব্যায়ে বটতলী সেতুর নির্মাণ শুরু