ফলের রাজা আম, আমের রাজা ল্যাংড়া!

ইকরাম-উদ দৌলা, সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

আমের রাজা ল্যাংড়া/ছবি: বাংলানিউজ

রাজশাহী: সুস্বাদু ফল আমের প্রজাতির কোনো শেষ নেই। তিনশ’র অধিক প্রজাতি রয়েছে এই ফলের। এগুলোর মধ্যে অন্তত পাঁচ প্রজাতির আম আবার স্বাদে-গন্ধে-গুণে অতুলনীয়। বাহারি সব রঙ, আকার, আর স্বাদে ভরপুর আম, ফলের রাজা হবে এটাই স্বাভাবিক।

কিন্তু রাজার মধ্যেও তো মহারাজা থাকতে হয়। তাই ফলে রাজা আম হলেও আমের রাজা কি এ প্রশ্ন সামনে আসাটাই স্বাভাবিক।
 
আমের রাজা খুঁজতে গিয়ে দেখা গেছে, বাজারে বেশ কিছু প্রজাতির আমের চাহিদা সবচেয়ে বেশি। এগুলোর মধ্যে একেবারে দেশি জাতের সংখ্যাই বেশি। তবে হাইব্রিডও আম চাহিদার শীর্ষে রয়েছে।
 
দেশি জাতের মধ্যে চাহিদার শীর্ষে রয়েছে ফজলি, হিমসাগর আর ল্যাংড়া প্রজাতি। আর এদের চেয়ে কোনো অংশেই কম নয় আম্রপালি। এ আমটি সম্পূর্ণ বিদেশি জাতের।
 
চাষিদের সঙ্গে কথা বলে জানা গেছে, আম্রপালি চাষে ব্যয় কম। ফলন ভালো। খেতে সুস্বাদু, রং ভাল। তাই বাজারে নামলে বেশ চলে। জুলাই মাসের প্রথম সপ্তাহ থেকেই এটি বাজারে আসে। একটি প্রমাণ সাইজ গাছ থেকে ১০ হাজার টাকার মতো আয় হয়।
 
তবে ল্যাংড়া আম সবচেয়ে সুস্বাদু, হিমসাগর মিষ্টি বেশি আর ফজলি আমের কদর আদালা। এগুলোর মধ্যে ল্যাংড়ার স্বাদ পরিমিত। এটা সবার পছন্দ। হিমসাগর অনেকেই পছন্দ করেন না। আর ফজলি আমের দাম বেশি।
 
একটা প্রমাণ সাইজের গাছের ল্যাংড়া আম থেকে আয় হয় ১৫ থেকে ১৮ হাজার টাকা। হিমসাগার ১২ থেকে ১৫ হাজার টাকা। আর ফজলি থেকে ১৮ থেকে ২০ হাজার টাকা আয় হয়। তবে বড় বড় গাছ থেকে এক লাখ টাকাও আয় হয়।
 
তাই ক্রেতার পছন্দ ও গুণাগুণ এবং চাষিদের লাভের ক্ষেত্রে এগিয়ে ল্যাংড়া। এ আমের তুলনা হয় না।
 
চাঁপাইনবাবগঞ্জের ইকরিমপুর আমবাগানের চাষি মো. মতিন মিয়া বাংলানিউজকে বলেন, ফলের রাজা আম। আর আমের রাজা ল্যাংড়া। এ আম উৎপাদন, বিক্রি, ক্রেতার চাহিদা আর স্বাদ সবদিক মিলিয়ে অন্য কারো সঙ্গে তুলনা করা যায় না।
 
তবে এগুলো ছাড়াও বাজারে খিসরাপাত, গোপালভোগসহ আরো কিছু আম ভাল। তবে সবদিক থেকে এগুলো এগিয়ে নয়।
 
রাজশাহী আঞ্চলিক উদ্যানতত্ব গবেষণা কেন্দ্রের মূখ্য বৈজ্ঞানিক কর্মকর্তা ড. মো. হামিম রেজা বাংলানিউজকে বলেন, ল্যাংড়া আমটা একটা আলাদা। এটির ঘ্রাণ সুন্দর। খেতে ভাল। চাষিরা আয়ও করে ভাল। সবদিক থেকে এই আম সেরা। আসলে খিসরাপাত বা হিমসাগর, ফজলি, আম্রপালি কোনোটিই কোনটির চেয়ে আপাত দৃষ্টিতে কম নয়। তবে কিছুটা তারতম্য আছে বলেই একেকটার একের নাম। সেদিক থেকে ল্যাংড়ার কদরটা সবার কাছেই। এ আম জুনের শেষে দিকে বাজারে আসবে।
 
বাংলাদেশ সময়: ১৬৩৯ ঘণ্টা, জুন ০১, ২০১৮
ইইউডি/এসএইচ
...

ক্লিক করুন, আরো পড়ুন: আম
ওসমানী হাসপাতালে রোগীর স্বজনকে ধর্ষণের ঘটনায় তোলপাড়
৩০০ কুমির মেরে প্রতিশোধ
আইনশৃঙ্খলা বাহিনীকে নিরপেক্ষতা বজায় রাখার নির্দেশ 
ফ্রান্স কাপ জিতেছে, ক্রোয়েশিয়া জিতেছে ভালোবাসা
ঢাবি শিক্ষকদের ওপর হামলাকারীদের শাস্তি দাবি
রাশিয়া বিশ্বকাপে ভিএআর’র সফলতা-ব্যর্থতা
মৌলভীবাজারে ৪ মানবতাবিরোধী অপরাধীর রায় মঙ্গলবার
টুর্নামেন্টে এটাই সম্ভবত আমাদের সেরা ম্যাচ ছিল
বুড়িগঙ্গা থেকে নবজাতকের মরদেহ উদ্ধার
হেলসিংকি বৈঠক নিয়ে সতর্ক ট্রাম্প