বিশ্বকাপ থেকে ছিটকে পড়ার পর ফুটবলটাও দেখার ইচ্ছে হয়নি

স্পোর্টস ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

ছেলে ডেভি লুক্কাকে সঙ্গে নিয়ে নেইমার-ছবি: সংগৃহীত

হেক্সা মিশন! মানে ষষ্ঠ বিশ্বকাপ জয়ের লক্ষ্যে ফেভারিটের তালিকা একেবারে ওপরের কাতারে থেকেই রাশিয়া গিয়েছিল ব্রাজিল। কিন্তু সমর্থকদের হতাশ করে কোয়ার্টার ফাইনাল থেকেই বিদায় নিতে হয় সেলেকাওদের। তবে দলের এমন বিদায়ে মারাত্মক মর্মাহত হয়েছিলেন নেইমার। এরপর তিনি বিশ্বকাপের আর কোনো ম্যাচই দেখেননি। এমনকি বলের দিকেও তাকাতে ইচ্ছে হতো না তার।

সদ্য শেষ হওয়া বিশ্বকাপে নেইমার অবশ্য পারফরম্যান্স প্রদর্শনের থেকে সমালোচনার শিকারই বেশি হয়েছেন। ট্যাকেলের শিকার হয়ে মাঠে তার পড়ে যাওয়া সমর্থকরা ভালো চোখে দেখেননি। তবে দলের প্রয়োজনে তার অবদান ছিল অসামান্য।

এ টুর্নামেন্টে তিনি মোট ৫টি ম্যাচ খেলেছে। যেখানে গোল আদায় করেছেন ২টি। তবে শেষ আটে বেলজিয়ামের বিপক্ষে হেরে কষ্টটা টের পেয়েছেন ভালোভাবেই।

একটি ফাইভ ‘এ সাইড টুর্নামেন্টে খেলতে গিয়ে এএফপির এক সাক্ষাৎকারে নেইমার বলেন, ‘ব্যাপারটা এমন না যে, আমি আর খেলতে চাইনি। তবে বলের দিকে আমার আর তাকাতে ইচ্ছে হয়নি, এমনকি বিশ্বকাপের আর কোনো ম্যাচ আমি দেখিনি।’

ছয় বছরের ছেলে ডেভি লুক্কাকে সঙ্গে নিয়ে নেইমার আরও বলেন, ‘আমি শোকাহত ছিলাম, আমি সত্যিই মর্মাহত হয়েছিলাম, তবে এখন এই ব্যাপারটি কেটে গেছে। আমার পরিবার, ছেলে, বন্ধুরা রয়েছে, যারা আমাকে এভাবে দেখতে চায় না। কষ্ট থেকে আমার ভালো থাকার অন্য অনেক কারণ রয়েছে।’

বাংলাদেশ সময়: ১২৫৭ ঘণ্টা, ২২ জুলাই, ২০১৮
এমএমএস

নেত্রকোনায় ট্রাকচাপায় মোটরসাইকেল আরোহীর মৃত্যু
ভূমিকম্পে ১০ ইঞ্চি বেড়ে গেলো লমবক দ্বীপ
ট্রাফিক সপ্তাহ চলবে আরও তিনদিন
শেরপুরে এক ব্যক্তির মরদেহ উদ্ধার
আলিয়াকে রণবীরের মা-বাবার ‘হ্যাঁ’
যাত্রীদের নিরাপদে গন্তব্যে পৌঁছাবে ৩০০ চালক
সমাজে অবহেলিত মানুষের ভাগ্যোন্নয়নই লায়নিজমের মূল মন্ত্র
স্বজনের হেলমেট নাই তাই…
জাতীয় পার্টি-খেলাফত মজলিশের মধ্যে নির্বাচনী সমঝোতা 
কুবিতে ১২ আগস্ট থেকে ঈদুল আজহার ছুটি শুরু