৬ ডিসেম্বর মুক্ত হয় আখাউড়া

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

৬ ডিসেম্বর আখাউড়া মুক্ত দিবস। ব্রাহ্মণবাড়িয়ার আখাউড়া উপজেলা ১৯৭১ সালের এই দিনে মুক্ত হয়। 

ব্রাহ্মণবাড়িয়া: ৬ ডিসেম্বর আখাউড়া মুক্ত দিবস। ব্রাহ্মণবাড়িয়ার আখাউড়া উপজেলা ১৯৭১ সালের এই দিনে মুক্ত হয়। 

স্বাধীনতা যুদ্ধে পূর্বাঞ্চলের প্রবেশদ্বার বলে খ্যাত আখাউড়ার মাটিতেই শুয়ে আছেন বীরশ্রেষ্ঠ শহীদ সিপাহী মোস্তফা কামালসহ অসংখ্য মুক্তিযোদ্ধা।

দিবসটি পালন উপলক্ষে  ‘আমরা মুক্তিযোদ্ধার সন্তান কমিটি’র উদ্যোগে বিভিন্ন কর্মসূচি নেওয়া হয়েছে। কর্মসূচিগুলোর মধ্যে রয়েছে পতাকা উত্তোলন, আনন্দ শোভাযাত্রা ও আলোচনা সভা। এতে সবাইকে উপস্থিত থাকার আহ্বান জানানো হয়েছে।

মুক্তিযোদ্ধাদের সঙ্গে কথা বলে জানা যায়, একাত্তর সালের ৩০ নভেম্বর ও ১ ডিসেম্বর উপজেলার আজমপুর ও রাজাপুর এলাকায় পাকিস্তানী হানাদার বাহিনীর সঙ্গে মুক্তিবাহিনীর যুদ্ধ হয়। এরপর ৩ ডিসেম্বর হওয়া যুদ্ধে হানাদার বাহিনীর ১১ সৈন্য নিহত ও মুক্তিবাহিনীর দু’জন শহীদ হন। ৪ ডিসেম্বর মুক্তিবাহিনী ও মিত্রবাহিনী মিলে আখাউড়ায় আক্রমণ করে। ওই দিন আজমপুরে শহীদ হন লেফটেন্যান্ট ইবনে ফজল বদিউজ্জামান। ৫ ডিসেম্বর সারাদিন ও রাতে যুদ্ধের পর ৬ ডিসেম্বর আখাউড়া শত্রুমুক্ত হয়। 

বাংলাদেশ সময়: ১১১০ ঘণ্টা, ডিসেম্বর ০৬, ২০১৬
এসআই

সোনার বাংলা গড়তে হলে আলোকিত মানুষ হতে হবে
এডিনবরায় আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস উদযাপিত 
শ্রীদেবীর শেষকৃত্য সোমবার
উখিয়ায় রোহিঙ্গাদের দুঃখগাঁথা শুনলেন তিন নোবেলজয়ী
কারাগারে খালেদাকে দেখে এলেন বোনসহ চার স্বজন
মহাখালীতে অজ্ঞাত ব্যক্তির অঙ্গ-প্রত্যঙ্গ উদ্ধার
নরসিংদীতে ২ মরদেহ উদ্ধার
তালতলী ২০ শয্যা হাসপাতালে আন্ত ও বহির্বিভাগ চালু
বইমেলায় বাড়ছে ডিজিটাল বই
মহেশখালীতে আগ্নেয়াস্ত্রসহ আটক ৩




Alexa