Alexa

লাইসেন্স ছাড়া নলকূপ স্থাপনে দণ্ড বাড়ছে

স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

মন্ত্রিসভার নিয়মিত বৈঠক- ফাইল ছবি

ঢাকা: লাইসেন্স ছাড়া নলকূপ স্থাপনে দণ্ডের পরিমাণ বৃদ্ধি করে ‘ভূ-গর্ভস্থ পানি ব্যবস্থাপনা আইন, ২০১৭’ এর খসড়া চূড়ান্ত অনুমোদন দিয়েছে মন্ত্রিসভা।
 
 

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সভাপতিত্বে সোমবার (১৯ জুন) জাতীয় সংসদ ভবনে মন্ত্রিসভার বৈঠকে এ অনুমোদন দেওয়া হয়।
 
বৈঠক শেষে সচিবালয়ে প্রেস ব্রিফিংয়ে মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ সচিব মোহাম্মদ শফিউল আলম বলেন, সংবিধানের পঞ্চদশ সংশোধনীর নির্দেশনা ও হাইকোর্টর সিদ্ধান্তের আলোকে ‘দ্য গ্রাউন্ড ওয়াটার ম্যানেজমেন্ট অর্ডিন্যান্স, ১৯৮৫’ বাংলায় অনুবাদ করে নতুন করে আইনে পরিণত করা হচ্ছে।
 
আইনে লাইসেন্স ছাড়া নলকূপ স্থাপনের দণ্ডের পরিমাণ বাড়ানো হয়েছে জানিয়ে মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ সচিব বলেন, আগে সর্বোচ্চ জরিমানা ছিল দুই হাজার টাকা। নতুন আইনে তা বেড়ে হচ্ছে ১০ হাজার টাকা বা অনাদায়ে ৭ দিনের বিনাশ্রম কারাদণ্ড।
 
তিনি বলেন, নতুন আইনে উপজেলা পরিষদকে একটু ক্ষমতায়ন করা হয়েছে। উপজেলা সেচ কমিটি নামে একটি কমিটি উপজেলা পরিষদের নির্দেশনায় পরিচালিত হবে। এখানে লাইসেন্সের একটি ব্যবস্থা রাখা হয়েছে। অর্থাৎ ভূ-গর্ভস্থ পানি কৃষি কাজে ব্যবহারের জন্য লাইসেন্স লাগবে। লাইসেন্স দেবে উপজেলা সেচ কমিটি।
 
সেচ কমিটির গঠন বিধির মাধ্যমে নির্ধারিত হবে। তবে এটা এখনও করা হয়নি। বিধির মাধ্যমে কমিটির কাজও নির্ধারিত হবে। লাইসেন্সের জন্য ফি নির্ধারণ করা হবে।
 
তিনি বলেন, কমিটি লাইসেন্স দেওয়ার আগে সরেজমিনে পরিদর্শন করবে। কোনো জায়গায় নলকূল স্থাপনের প্রয়োজন আছে কিনা সেটা দেখবে। নিকটবর্তী নলকূপের দূরত্ব কতটুকু তাও দেখবে।
 
“কারণ আমরা যদি ভূ-গর্ভস্থ পানি ব্যবহার করতে থাকি তাহলে পরিবেশ বিপর্যয়ের সম্ভাবনা আছে। সেটাকে নিয়ন্ত্রণ করার জন্য বিধান রাখা হয়েছে।”
 
বিদ্যমান নলকূপগুলোকে সময় দিয়ে লাইসেন্স নেওয়ার সুযোগ দেওয়া হবে বলে জানান মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ সচিব।
 
উপজেলা পরিষদের হাতে লাইসেন্স সাসপেন্ড বা বাতিল করার ক্ষমতা থাকবে জানিয়ে তিনি বলেন, যদি কোনো লাইসেন্স এক বছরের মধ্যে তিনবার স্থগিত হয় তবে উপজেলা পরিষদ শুনানি দিয়ে বাতিল করে দিতে পারবে।
 
কুয়েত ও বাহরাইনের সঙ্গে দ্বৈত করারোপ পরিহারে অনুসমর্থন
বাংলাদেশ ও বাহরাইন এবং বাংলাদেশ ও কুয়েতের মধ্যে দ্বৈত করারোপ পরিহারের যে চুক্তি তার অনুসমর্থন দিয়েছে মন্ত্রিসভা।
 
এছাড়া ইসলামিক সহযোগিতা সংস্থা (ওআইসি)-এর বিশেষায়িত সংস্থা ইসলামিক অর্গানাইজেশন ফর ফুড সিকিউরিটি (আইওএফএস)-এর স্ট্যাচ্যুট অনুসমর্থনের প্রস্তাব অনুমোদন হয়েছে।
 
মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ সচিব জানান, সংস্থাটি এফএও’র মতো ইসলামিক অর্গানাইজেশনের একটা সংস্থা, এ সংস্থার জন্য তৈরি করা আইনে মন্ত্রিসভা অনুসমর্থন করেছে।
 
বাংলাদেশ সময়: ১৭২০ ঘণ্টা, জুন ১৯, ২০১৭
এমআইএইচ/জেডএস


উত্তর-দক্ষিণবঙ্গের সাথে সারাদেশের রেল সংযোগ বিচ্ছিন্ন
প্রধানমন্ত্রীর আগমনে নিরাপত্তার চাদরে ঢাকা দিনাজপুর
বঙ্গবন্ধু সেতুর পূর্বপাড়ে নদীর তীর দেবে গেছে
খান টিপু সুলতানের মৃত্যুতে প্রধানমন্ত্রীর শোক
জয়পুরহাট জাতীয়তাবাদী আইনজীবী ফোরামের সেক্রেটারির মৃত্যু

Alexa