ছাত্রলীগের সংঘর্ষের পর কুমেক বন্ধ ঘোষণা

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

কুমেকের শেখ রাসেল হোস্টেলে ছাত্রলীগের দু'গ্রুপের সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। ছবি: বাংলানিউজ

কুমিল্লা: আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে কুমিল্লা মেডিকেল কলেজে (কুমেক) ছাত্রলীগের দু’গ্রুপের মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনায় ১১ জানুয়ারি পর্যন্ত প্রতিষ্ঠানটি বন্ধ ঘোষণা করেছে কর্তৃপক্ষ।

শুক্রবার (৫ জানুয়ারি) দুপুরের মধ্যে সব শিক্ষার্থীকে হোস্টেল ছাড়ার নির্দেশ দেওয়া হয়। এ নির্দেশনায় শিক্ষার্থীরাও হল ত্যাগ করেন।

কুমেকের উপাধ্যক্ষ অধ্যাপক জাহাঙ্গীর হোসেন এ বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

স্থানীয় সূত্র জানায়, বৃহস্পতিবার (৪ জানুয়ারি) দিনগত রাত আড়াইটার দিকে কুমিল্লা মেডিকেল কলেজের শেখ রাসেল হোস্টেলে নিজেদের আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে স্বাচিপের কেন্দ্রীয় নেতা কুমেকের ২য় ব্যাচের ছাত্র আব্দুল হান্নান ও কেন্দ্রীয় নেতা ৮ম ব্যাচের ছাত্র হাবিবুর রহমান পলাশের অনুসারীদের মধ্যে সংঘর্ষ হয়। এ সময় রড, হকি স্টিক ও দেশীয় অস্ত্র নিয়ে উভয় গ্রুপ সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়েন। এ সময় উভয় গ্রুপের ১০ জন আহত হয়। আহতদের মধ্যে ইরফানুল ও তৌফিকের অবস্থা আশংকাজনক।

আহতরা হলেন- ছাত্রলীগ কর্মী ফয়সল, মনির হোসেন, ইফতেখার, পিয়াস, তামিম নুর, আশিক, পারভেজ, সাব্বির । তারা কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন।

অপর আহত ইরফানুল হক ও তৌফিক ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন বলে জানা গেছে ।

বাংলাদেশ সময়: ১৪৩৮ ঘণ্টা, জানুয়ারি ০৫, ২০১৮
এএটি

ঢাবির ৫ শিক্ষার্থীকে পেটালো নীলক্ষেতের বই দোকানিরা
‘প্রশাসন ভোট ডাকাতির নীল নকশা করছে’
জুরাইনে লোহার অ্যাঙ্গেলে চাপা পড়ে শ্রমিকের মৃত্যু
আমাদের গণিত অলিম্পিয়াড
চাঁদে মানুষের প্রথম পদার্পণ
সাবধানে থাকুন কর্কট, দাম্পত্য দ্বন্দ্ব মকরের
কোটা আন্দোলনের পেছনে বিএনপি-জামায়াত
আ’লীগ নেতাদের দাবির মুখে ওসি বাবুল মিঞাকে প্রত্যাহার
ফেল করায় আত্মহত্যা করলেন ঐশ্বর্য
২০০ টন স্বর্ণসহ নিখোঁজ সেই রুশ জাহাজ দ. কোরিয়ায়